মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

লক্ষ্মীপুরের শীর্ষ সন্ত্রাসী জিসান র‌্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ॥ অস্ত্

প্রকাশিত : ২৪ জানুয়ারী ২০১৫
লক্ষ্মীপুরের শীর্ষ সন্ত্রাসী জিসান র‌্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ॥ অস্ত্

নিজস্ব সংবাদদাতা, দাউদকান্দি, কুমিল্লা ও লক্ষ্মীপুর, ২৩ জানুয়ারি ॥ কুমিল্লায় র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ লক্ষ্মীপুরের ‘জিসান বাহিনী’র প্রধান শীর্ষ সন্ত্রাসী সোলাইমান উদ্দিন জিসান নিহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে দাউদকান্দি উপজেলার পুটিয়া এলাকায় বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। নিহত জিসান লক্ষ্মীপুরের চন্দ্রগঞ্জ ইউনিয়নের লতিফপুর গ্রামের মৃত আবু বকরের ছেলে। তার বিরুদ্ধে হত্যা, অপহরণ, ডাকাতিসহ বিভিন্ন অপরাধের ৪০টিরও বেশি মামলা রয়েছে। শুক্রবার সকালে জিসানের লাশ উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়।

র‌্যাব ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, শীর্ষ সন্ত্রাসী জিসান ঢাকা থেকে মোটরসাইকেলযোগে লক্ষ্মীপুর যাচ্ছিল। রাত দুটার দিকে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লার দাউদকান্দি উপজেলার জিংলাতলী এলাকায় পৌঁছলে কুমিল্লার র‌্যাব-১১-এর একটি টহল দল মোটরসাইকেলটি থামানোর সঙ্কেত দেয়। এ সময় জিসান মোটরসাইকেল না থামিয়ে দ্রুতগতিতে চলে যায়। এতে র‌্যাবের সন্দেহ হলে দাউদকান্দির পুটিয়া এলাকায় র‌্যাবের অপর একটি টহল দলকে বিষয়টি জানানো হয়। পরে জিসান পুটিয়া এলাকায় পৌঁছা মাত্র র‌্যাবের ওই দলটি তাকে থামার সঙ্কেত দেয়। এ সময় জিসান র‌্যাব সদস্যদের লক্ষ্য করে দুই রাউন্ড গুলি ছোড়ে। র‌্যাবও পাল্টা গুলি ছুড়লে গুলিবিদ্ধ হয়ে জিসান নিহত হয়। নিহত জিসান লক্ষ্মীপুর জেলা ছাত্রদলের পাঠাগার সম্পাদক ছিলেন।

র‌্যাব-১১-এর সিও লে. কর্নেল আনোয়ার লতিফ ও দাউদকান্দি থানার ওসি আবু ছালাম মিয়া জানান, জিসানের কাছ থেকে একটি বিদেশী পিস্তল, একটি গুলি, একটি ম্যাগাজিন এবং তার সঙ্গে থাকা মোটরসাইকেলটি উদ্ধার করা হয়েছে। লক্ষ্মীপুরের পুলিশ সুপার শাহ মিজান শাফিউর রহমান জানান, নিহত জিসান লক্ষ্মীপুরের তালিকাভুক্ত শীর্ষ সন্ত্রাসী এবং ‘জিসান বাহিনী’র প্রধান। তার বিরুদ্ধে জেলার বিভিন্ন থানায় হত্যা, অপহরণ, নারী নির্যাতন, ডাকাতিসহ বিভিন্ন অপরাধের ৪০টিরও বেশি মামলা রয়েছে। জিসানের বাহিনীতে ৭৫-৮০ সশস্ত্র সদস্য রয়েছে বলে জানায় স্থানীয়রা।

প্রকাশিত : ২৪ জানুয়ারী ২০১৫

২৪/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: