কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

চট্টগ্রামের ৭১ বিশিষ্ট নাগরিক

প্রকাশিত : ২৩ জানুয়ারী ২০১৫
  • রাজনীতির নামে সহিংসতা বন্ধ করুন

স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম অফিস ॥ রাজনীতির নামে অপরাজনীতি চর্চা তথা সারাদেশে সহিংস কর্মকাণ্ড বন্ধের দাবি জানিয়েছে চট্টগ্রামের বিভিন্ন প্রতিনিধিত্বশীল ও শীর্ষস্থানীয় সংগঠন এবং বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার ৭১ বিশিষ্ট নাগরিক।

বৃহস্পতিবার বিবৃতিতে চট্টগ্রামের বিশিষ্ট নাগরিকবৃন্দ বলেন, আমরা শান্তিপ্রিয় মানুষ। দেশ থাকবে, থাকবে রাজনীতিও। দেশজুড়ে বিরামহীন যে অপরাজনীতি চলছে, সাধারণ মানুষ যে হারে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে এমতাবস্থায় আমরা নিশ্চুপ হয়ে বসে থাকতে পারি না। আমরা রাজনীতিবিদদের রাজনীতি চর্চার আহ্বান জানাই। আমরা দ্ব্্যর্থহীন ভাষায় বলতে চাই, রাজনীতির মোকাবেলা সহিংসতা দিয়ে নয়, রাজনীতি দিয়ে করতে হবে।

বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়, যে কোন যৌক্তিক আন্দোলন সমর্থনযোগ্য, আন্দোলনের নামে আগুনে পুড়িয়ে মানুষ হত্যাকে নয়। এ ধরনের কর্মকা- কোনভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। অবিলম্বে এ নিরবচ্ছিন্ন, নিষ্ঠুর ও অমানবিক অনৈতিক হত্যাকা- থামাতে হবে। এই হত্যাকা- থামানোর সার্বিক দায়িত্ব ২০ দলীয় জোটের। কারণ তাদের ডাকা অবরোধের মাধ্যমে ও সূত্রে একের পর এক যে নির্মম হত্যাকা- ধারাবাহিক পেট্রোলবোমা ও এলোপাথাড়ি ককটেল নিক্ষেপের মাধ্যমে গরিব, নিরীহ, কর্মজীবী সাধারণ মানুষকে নির্বিচারে হত্যা করা হচ্ছে তা কোনভাবেই কোন সভ্য সমাজ মেনে নিতে পারে না। এই হত্যাযজ্ঞের এবং পেট্রোলবোমা, অগ্নিসংযোগের ফলে নারী, শিশু, বৃদ্ধ, দিনমজুর, রিক্সাওয়ালা কেউ রক্ষা পাচ্ছে না। যারা এটাকে রাজনীতি আখ্যা দেয়, তাদেরকে তীব্র ভাষায় নিন্দা জানাই। সরকারের প্রতি আমাদের আবেদন, অবিলম্বে কঠোর হস্তে এই হত্যাকা-ের হোতা দুর্বৃত্ত-দানবদের দমন করতে হবে।

বিবৃতিদাতাদের মধ্যে শিক্ষাবিদদের পক্ষে প্রফেসর ড. অনুপম সেন, প্রফেসর আনোয়ারুল আজিম আরিফ, প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী, প্রফেসর হাছিনা জাকারিয়া বেলা, প্রফেসর বেনু কুমার দে, শিল্পী ঢালি আল মামুন, প্রফেসর ড. সুলতান আহমেদ, প্রফেসর ড. জীবন চন্দ্র পাল, প্রফেসর ড. শিরিন আকতার, প্রফেসর ড. সেলিনা আখতার। দৈনিক বীর চট্টগ্রাম মঞ্চ সম্পাদক সৈয়দ উমর ফারুক, দৈনিক সুপ্রভাত বাংলাদেশ সম্পাদক রুশো মাহমুদ।

সাংবাদিকদের পক্ষে-চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সভাপতি কলিম সরওয়ার, সাধারণ সম্পাদক মহসিন চৌধুরী, বিশিষ্ট সাংবাদিক নাসিরুদ্দীন চৌধুরী, আবু সুফিয়ান, মোয়াজ্জেমুল হক, এম নাসিরুল হক, আবু তাহের মুহাম্মদ, ওমর কায়সার, রিয়াজ হায়দার চৌধুরী, , সিইউজে’র সাধারণ সম্পাদক হাসান ফেরদৌস

প্রকৌশলীদের মধ্যে ইঞ্জিনিয়ার আলী আশরাফ, মোহাম্মদ হারুন।

মুক্তিযোদ্ধা ডাঃ মাহফুজুর রহমান, ফাহিম উদ্দিন আহমেদ, মোজাফ্ফর আহমেদ, মোহাম্মদ সাহাবউদ্দিন, মাহবুবুল আলম চৌধুরী, সরোয়ার কামাল দুলু, অমল মিত্র। আইনজীবীদের মধ্যে এ্যাডভোকেট আনোয়ারুল কবির চৌধুরী, এ্যাডভোকেট মোহাম্মদ ইব্রাহীম হোসেন চৌধুরী বাবুল, এ্যাডভোকেট মোঃ খোরশেদ আলম চৌধুরী, এ্যাডভোকেট আ ক ম সিরাজুল ইসলাম, এ্যাডভোকেট নাজমুল আহসান খান আলমগীর, এ্যাডভোকেট মুজিবুল হক, এ্যাডভোকেট কামাল উদ্দিন চৌধুরী, এ্যাডভোকেট মোহাম্মদ আবুল হাশেম, এ্যাডভোকেট শেখ ইফতেখার সাইমুল চৌধুরী, এ্যাডভোকেট জিয়া উদ্দিন।

চিকিৎসকদের মধ্যেÑডাঃ শেখ শফিউল আজম, ডাঃ নুরুল ইসলাম, ডাঃ সরফরাজ খান চৌধুরী বাবুল, ডাঃ মুজিবুল হক খান, ডাঃ নাসির উদ্দিন মাহমুদ, ডাঃ মোঃ শরীফ।

কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক নেতৃবৃন্দের পক্ষে- অধ্যক্ষ মোঃ জাহাঙ্গীর, অধ্যাপক উত্তম চৌধুরী, ড. গণেশ রায়, অধ্যক্ষ রফিক উদ্দিন, অধ্যাপক কানাই দাস, অধ্যাপক তড়িৎ ভট্টাচার্য।

নারী নেত্রীদের পক্ষে-নূর জাহান খান, অধ্যাপিকা লতিফা কবির, জেসমিন সুলতানা পার, সুগতা বড়ুয়া, পূর্বা দাশ। সংস্কৃতিসেবী ও সমাজকর্মীদের পক্ষে-ডাঃ এ কিউ এম সিরাজুল ইসলাম, বখতিয়ার নূর সিদ্দিকী, দীপঙ্কর চৌধুরী কাজল, এস এম নাজের হোসাইন, শিল্পী মৃণাল ভট্টাচার্য, রণজিৎ রক্ষিত, শেখ শওকত ইকবাল চৌধুরী, অঞ্চল চৌধুরী, এ্যাডভোকেট মিলি চৌধুরী, মাহবুবুর রহমান শিবলী, ভাস্কর সুকান্ত চৌধুরী, সীমান্ত তালুকদার, শওকত বাঙালি প্রমুখ।

এদিকে, আজ শুক্রবার বিকেল ৩টায় চট্টগ্রাম প্রেসক্লাব চত্বরে অনলাইন এ্যাক্টিভিস্ট ও সাধারণ নাগরিকদের উদ্যোগে আয়োজিত প্রতিবাদী অবস্থান কর্মসূচী সফল করার জন্য চট্টগ্রামের সর্বস্তরের নাগরিকদের অনুরোধ জানিয়েছেন গণসম্প্রীতি পরিষদ।

পরিষদের প্রধান উপদেষ্টা প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. অনুপম সেন, আহ্বায়ক চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর মোঃ আনোয়ারুল আজিম আরিফ, সদস্য সচিব সাবেক ছাত্রনেতা এ্যাডভোকেট সীমান্ত তালুকদার, প্রধান সমন্বয়কারী লেখক-সাংবাদিক শওকত বাঙালি গতকাল সংবাদপত্রে প্রদত্ত এক বিবৃতিতে এই অনুরোধ জানান।

রুখে দাঁড়াও বাংলাদেশ’র নৈরাজ্য বিরোধী মানববন্ধন ও সমাবেশ ॥ বৃহস্পতিবার বিকেলে বাংলাদেশ রুখে দাঁড়াও উদ্যোগে প্রেসক্লাব চত্বরে মানববন্ধন ও সমাবেশে ক্ষমতার জন্য সাধারণ মানুষকে টার্গেট না করতে আন্দোলনকারীদের প্রতি আহ্বান জানানো হয়েছে। রাজনীতির নামে চলমান নৈরাজ্য নাগরিক সমাজকে সংক্ষুব্ধ করেছে। সাধারণ নাগরিকদের রাজপথে টেনে আনছে। এ ধরনের রাজনীতি কোনভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। সন্ত্রাসী-দুর্বৃত্তদের মাধ্যমে রাজনীতি নয়। রাজনৈতিক সঙ্কট নিরসন করতে হবে রাজনৈতিকভাবে। সন্ত্রাসী কর্মকা-কে কোনভাবেই রাজনীতি বলা যায় না, এটি জনগণের বিরুদ্ধে যুদ্ধ। স্বাধীনতায় যারা বিশ্বাস করে না তাদের সঙ্গে সংলাপ হতে পারে না। ককটেল, পেট্রোলবোমা মেরে মানুষকে পুড়িয়ে মারবেন না। সাধারণ মানুষকে টার্গেট করার অপকর্ম থেকে বিরত থাকার জন্য আহ্বান জানানো হয়। প্রমা আবৃত্তি সংগঠনের সভাপতি রাশেদ হাসানের উপস্থাপনায় সমাবেশে বক্তব্য রাখেন কবি সাংবাদিক আবুল মোমেন, প্রকৌশলী দেলোয়ার মজুমদার, আবৃত্তি শিল্পী পঞ্চানন চৌধুরী, কামরুল হাসান বাদল, মুক্তিযোদ্ধা বালাগাত উল্লাহ, গণজাগরণ মঞ্চের চট্টগ্রামের সমন্বয়ক শরীফ চৌহান, উদীচীর সুনীল ধর, খেলাঘরের রোজী সেন, নাট্যকর্মী শুভ্রা বিশ্বাস প্রমুখ।

প্রকাশিত : ২৩ জানুয়ারী ২০১৫

২৩/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: