কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

ডর্টমুন্ডকে উদ্ধার করতে চান রিয়াস

প্রকাশিত : ২১ জানুয়ারী ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ চলতি মৌসুমে বিপর্যস্ত অবস্থার মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে বরুসিয়া ডর্টমুন্ড। এতটা বাজে পরিস্থিতি সর্বশেষ কবে দেখেছিল ক্লাবটি? এবার জার্মান বুন্দেসলিগার পয়েন্ট টেবিলে এতদিন তলানিতেই ছিল ডর্টমুন্ড। তবে বর্তমানে ১৭ নম্বরে থাকলেও রেলিগেশনে পড়ার শঙ্কাটা প্রকট হয়ে গেছে। দলের অন্যতম ভরসা মার্কো রিয়াস এতদিন ইনজুরিতে ছিলেন। তিনি ফিরছেন অচিরেই। আর ফেরার পর দলকে ঘোর বিপদ থেকে উদ্ধার করতে চান এ এ্যাটাকিং মিডফিল্ডার।

গত দুই মাস মাঠের বাইরে ছিলেন ২৫ বছর বয়সী রিয়াস। গোঁড়ালির লিগামেন্ট ছিঁড়ে যাওয়ার কারণে ছিলেন পুনর্বাসন প্রক্রিয়ায়। সেখান থেকে সুস্থ হয়ে উঠেছেন তিনি। শনিবার ডর্টমুন্ডের হয়ে একটি প্রীতি ম্যাচও খেলেছেন রিয়াস। অবশ্য মাঠে মাত্র ৪৫ মিনিট ছিলেন। এই ম্যাচেও রোমানিয়ার দল স্টুয়া বুখারেস্টের বিরুদ্ধে ঘাম ঝরানো ১-০ গোলের জয় পেয়েছে ডর্টমুন্ড। তবে ইনজুরি মুক্ত হয়ে উঠেছেন এতেই সন্তুষ্ট এ এ্যাটাকিং মিডফিল্ডার। তিনি বলেন, ‘আমি অত্যন্ত সন্তুষ্ট যেভাবে ইনজুরিটা কাটিয়ে উঠেছি। এটা হওয়ার আগে আমি যা করতে পারতাম তার সবই এখন পারছি।’ রিয়াস গত বিশ্বকাপেও খেলতে পারেননি গোঁড়ালির ইনজুরির কারণে। তবে এখন আর সেসব নিয়ে ভাবতে চান না তিনি। রিয়াস বলেন, ‘এটা খুবই জরুরী বিষয় সামনের দিকে তাকানো। ফিট থাকা এবং দলকে টেবিলের ওপর দিকে নিয়ে যেতে দারুণ কিছু করে দেখানো। গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে কিছু পয়েন্ট অর্জন করে নিজেদের আত্মবিশ্বাসটা আবার ফিরিয়ে আনা।’ ডর্টমুন্ড থেকে অবশ্য রিয়াসকে ছেড়ে দেয়ার একটা প্রবণতা তৈরি হয়ে গেছে। তাঁকে পেতে রিয়াল মাদ্রিদ ও বেয়ার্ন মিউনিখ এ দুটি ক্লাবই উন্মুখ হয়ে আছে। এ মৌসুমের শেষে ২৫ মিলিয়ন ইউরোতেই তাঁকে পেয়ে যেতে পারে যে কোন ক্লাব।

আগামী মার্চেই শেষ হয়ে যাবে বর্তমান মৌসুম। তখনই রিয়াস তাঁর ভবিষ্যত পরিকল্পনা জানাবেন। গত ডিসেম্বরে কলঙ্কজনক এক অধ্যায় তাঁকে আঁকড়ে ধরেছিল। ড্রাইভিং টেস্টে উত্তীর্ণ না হওয়ার পরও বছরের পর বছর গাড়ি চালিয়েছেন বলে অভিযুক্ত করা হয় তাঁকে। কিন্তু সে বিষয়টাকে তিনি তিক্ত মনে অনুশোচনা করেছেন। তবে সেটা করেও আর লাভ নেই। কারণ রেকর্ড ৬ লাখ ৬৫ হাজার মার্কিন ডলার জরিমানা গুনতে হয়েছে তাঁকে সে জন্য। তবে রিয়াস ফিরলেও ডর্টমুন্ড কোচ জারগেন ক্লপের জন্য দুটি বড় দুঃসংবাদ আছে। স্টুয়া বুখারেস্টের বিরুদ্ধে খেলার সময় ইনজুরিতে পড়েছেন দুই মিডফিল্ডার সেবাস্তিয়ান কেল ও কেভিন গ্রসক্রিউজ। ৩১ জানুয়ারি আবার বুন্দেসলিগা শুরু হবে। স্পেনে কন্ডিশনিং ক্যাম্প শেষ করেছে ডর্টমুন্ড। প্রথম দিনেই ডর্টমুন্ডকে মাঠে নামতে হবে পয়েন্ট টেবিলের তিনে থাকা বেয়ার লেভারকুসেনের বিরুদ্ধে। নিজেদের ক্লাব ইতিহাসে সবচেয়ে বাজে নৈপুণ্য দেখিয়েছে বুন্দেসলিগার অন্যতম শক্তিশালী এ দলটি। প্রথম ১৭ ম্যাচের মধ্যে ১০টি হার দেখেছে তারা। চ্যাম্পিয়ন্স লীগের শেষ ষোলোর লড়াইটাও এগিয়ে আসছে। আগামী ২৪ ফেব্রুয়ারি জুভেন্টাসের বিরুদ্ধে প্রথম লেগে তাদের মাটিতে এবং ১৮ মার্চ ফিরতি লেগে ডর্টমুন্ডে মুখোমুখি হবে তারা। এর আগেই দলকে উজ্জীবিত করার মতো অবস্থানে আনতে চান রিয়াস।

প্রকাশিত : ২১ জানুয়ারী ২০১৫

২১/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: