কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বার্সিলোনার জার্সিতে মেসির ৩০তম হ্যাটট্রিক

প্রকাশিত : ২০ জানুয়ারী ২০১৫
বার্সিলোনার জার্সিতে মেসির ৩০তম হ্যাটট্রিক

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ আবারও জমে উঠেছে সময়ের দুই মহাতারকার ব্যক্তিগত দ্বৈরথ। স্প্যানিশ লা লীগায় রবিবার ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর জোড়া গোলের পর হ্যাটট্রিক করে পাল্টা জবাব দিয়েছেন লিওনেল মেসি। মেসির রেকর্ড গড়া হ্যাটট্রিকে ভর করে অ্যাওয়ে ম্যাচে বার্সিলোনা ৪-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে ডিপোর্টিভো লা করুনাকে। ক্যাটালানদের অপর গোলটি আসে আত্মঘাতীর সৌজন্যে।

গ্রানাডাকে ২-০ গোলে হারিয়ে জয়ে ফিরেছে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ। আসরের বর্তমান চ্যাম্পিয়নদের হয়ে গোল করেন মারিও মানদুকিচ ও রাউল গার্সিয়া। পরশুর অন্যান্য ম্যাচে এলচে ১-০ গোলে লেভান্তেকে, সেভিয়া ২-০ গোলে মালাগাকে ও রিয়াল মাদ্রিদ ৩-০ গোলে পরাজিত করে গেটাফেকে। এই জয়ে ১৯ ম্যাচে বার্সিলোনার পয়েন্ট বেড়ে হলো ৪৪। তাদের অবস্থান দুই নম্বরে। এক ম্যাচ কম খেলে ৪৫ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে রিয়াল মাদ্রিদ। ১৯ ম্যাচে ৪১ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে আছে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ।

রেকর্ড গড়ে টানা চারবার ফিফা সেরা হওয়ার পর গত দুই বছরই রোনাল্ডোর পেছনে থেকে দ্বিতীয় থাকতে হয়েছে মেসিকে। বিষয়টি নিশ্চিত করেই ভাল লাগার কথা নয় বার্সা জাদুকরের। তাইতো ক্লাব ছাড়ার গুঞ্জন, আলোচনা-সমালোচনার ডালি সরিয়ে মাঠের পারফরমেন্স দিয়েই জবাব দিচ্ছেন আর্জেন্টাইন অধিনায়ক। এবার হ্যাটট্রিক করে নিজেকে নিয়ে গেছেন আরও উচ্চতায়। ডিপোর্টিভোর বিরুদ্ধে তিন গোল করে বার্সিলোনার জার্সি গায়ে ক্যারিয়ারের ৩০তম হ্যাটট্রিক করেছেন মেসি। এর মধ্যে স্প্যানিশ লা লীগায় হ্যাটট্রিক ২২টি। লা লীগায় চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর হ্যাটট্রিকের সংখ্যা ২৩টি। এক্ষেত্রে মেসি দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসে দুই সাবেক কিংবদন্তির পাশে নাম লিখিয়েছেন। লা লীগায় আলফ্রেডো ডি স্টেফানো ও টেলমো জারারও হ্যাটট্রিক সংখ্যা ২২টি করে। মেসি তার জাতীয় দল আর্জেন্টিনার হয়ে দুটি হ্যাটট্রিক করেছেন। ফলে সব ধরনের প্রতিযোগিতা মিলিয়ে বর্তমানে তার হ্যাটট্রিক সংখ্যা ৩২টি।

ডিপোর্টিভোর মাঠে শুরু থেকেই আক্রমণের ঢেউ বইয়ে দিয়ে খেলতে থাকে সফরকারী বার্সিলোনা। ১০ মিনিটের শুরুত মেসির বাঁ পায়ের শট কোনমতে রুখে দেন স্বাগতিক গোলরক্ষক। কিন্তু ওই মিনিটের শেষ সময়ে আর্জেন্টিনার অধিনায়ককে আর আটকে রাখতে পারেননি তিনি। ক্রোয়েশিয়ার মিডফিল্ডার ইভান রাকিটিচের লম্বা করে উড়িয়ে মারা বল অসাধারণ দক্ষতায় অফসাইডের ফাঁদ ভেঙ্গে হেডে জালে পাঠিয়ে দেন মেসি। ৩৩ মিনিটে সম্মিলিত নৈপুণ্যে নিজের ও দলের দ্বিতীয় গোল করেন ব্রাজিল বিশ্বকাপের সেরা খেলোয়াড়।

বিরতির পরও অধিকাংশ সময় বল দখলে রেখে বারবার আক্রমণ করতে থাকে ক্যাটালনরা। ৬২ মিনিটে রেকর্ডগড়া হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন মেসি। একক নৈপুণ্যেই তৃতীয় গোলটি করেন তিনি। রাকিটিচের কর্নার থেকে বল নিয়ন্ত্রণে নিয়ে ডানদিক থেকে কিছুটা কোনাকুনি দৌড়ে বাঁ পায়ের ‘ট্রেডমার্ক’ বাঁকানো শটে গোলরক্ষককে বোকা বানান সাবেক ফিফা সেরা ফুটবলার। ৮৩ মিনিটে সিলভা জুনিয়রের আত্মঘাতী গোলে ৪-০ গোলে এগিয়ে যায় বার্সিলোনা। দুর্দান্ত এই হ্যাটট্রিকে ১৯টি গোল নিয়ে গোলদাতার তালিকার দ্বিতীয় স্থানে আছেন মেসি। শীর্ষে থাকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর গোল ২৮টি।

ম্যাচ শেষে মেসির প্রশংসায় মেতেছেন কোচ-সতীর্থ সবাই। বার্সা কোচ লুইস এনরিকে বলেন, মৌসুমের পুরো সময় জুড়েই মেসি নিজের মান বজায় রেখে চলেছে। নিজের মান সে এক মুহূর্তের জন্য নিচে নামায়নি। সে অসাধারণ খেলে চলেছে। তার মান সম্পর্কে প্রশ্ন তোলাটা বোকামির মধ্যেই পড়ে।

গ্রানাডার বিরুদ্ধে নিজেদের মাঠ ভিসেন্টে ক্যালডেরনে ম্যাচের ৩৪ মিনিটে এগিয়ে যায় অ্যাটলেটিকো। দিয়াগো গডিনকে করা ফাউলের সুবাদে পেনাল্টি থেকে গোল করেন ক্রোয়েশিয়ান তারকা মারিও মানদুকিচ। ৮৪তম মিনিটে মানদুকিচকে বসিয়ে রাউল গার্সিয়াকে নামান কোচ দিয়েগো সিমেওনে। আর বদলি হিসেবে নামার চার মিনিটের মধ্যেই তুরস্কের মিডফিল্ডার আরডা টুরানের ক্রসে হেডে গোল করে অ্যাটলেটিকোর জয় নিশ্চিত করেন স্প্যানিশ মিডফিল্ডার গার্সিয়া।

প্রকাশিত : ২০ জানুয়ারী ২০১৫

২০/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: