কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বড় ইনিংস খেলতে চান মুমিনুল

প্রকাশিত : ১৯ জানুয়ারী ২০১৫
বড় ইনিংস খেলতে চান মুমিনুল

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ টেস্টে নির্ভরযোগ্য ব্যাটসম্যান মুমিনুল হকের বড় ইনিংস আছে। বলতে গেলে সেঞ্চুরি আছে। তাও আবার ১২ ম্যাচে ২৩ ইনিংস খেলে চারটি সেঞ্চুরি রয়েছে! অথচ ওয়ানডেতে এখন পর্যন্ত সেঞ্চুরি করতে পারেননি মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যান মুমিনুল। ২৪ ওয়ানডে খেলে মাত্র ৩টি অর্ধশতক আছে। সর্বোচ্চ স্কোর ৬০ রান। এবার যখন বিশ্বকাপ মঞ্চে প্রথমবারের মতো খেলবেন, তখনই বাজিমাত করে দেখাতে চান। বড় ইনিংস খেলতে চান। অর্থাৎ সেঞ্চুরি করতে চান।

বিশ্বকাপ উপলক্ষে চলছে প্রস্তুতি ক্যাম্প। মুমিনুলও অনুশীলনে ভুলগুলো শুধরে নিয়ে শক্তির জায়গাগুলো আরও পাকাপোক্ত করে নিচ্ছেন। এখনও বড় ইনিংস খেলতে পারেননি; সুযোগ পেলে এটা লক্ষ্য হবে কি না? সেই বড় ইনিংস সেঞ্চুরির দিকেই ইঙ্গিত করা হয়েছে। এমন প্রশ্নে রবিবার মুমিনুলই জানালেন, ‘অবশ্যই লক্ষ্য থাকবে। যা আমি এতদিন পারিনি, সেটা করার চেষ্টা করব। নিজেকে প্রমাণ করার চেষ্টা করব সেই জায়গাটায়।’

কিন্তু এমনটি মুমিনুল কোন পজিশনে খেললে করতে পারবেন? কোন পজিশনে মুমিনুলইবা খেলতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন? নিজেই জানালেন, ‘আসলে টিম যেখানে চায় সেখানেই আমার খেলতে কোন সমস্যা নেই। আমার ব্যক্তিগত কোন পছন্দ নেই। যদি ৩ নম্বরে খেলি ইনশাল্লাহ বড় ইনিংস খেলার চেষ্টা করব। শেষের দিকে খেললে দলের রানটা বড় করার চেষ্টা করব।’ মুমিনুলের পছন্দের পজিশন বোঝাই যাচ্ছে তিন নম্বর ব্যাটিং পজিশন। ওয়ানডে ক্যারিয়ারে এ ব্যাটসম্যান বেশিরভাগ সময়ই যে পজিশনটিতে খেলেছেন। ২৪ ওয়ানডের ১৫টিতে এ পজিশনে খেলে রান করেছেন ২৮.০৬ গড়ে ৪২১। সর্বোচ্চ রানটিও এ পজিশন থেকেই এসেছে। তিনটি অর্ধশতকও এ পজিশনে খেলেই করেছেন মুমিনুল। এবার সুযোগ পেলে বিশ্বকাপ মঞ্চে বড় স্কোরই করার স্বপ্ন দেখছেন।

কিন্তু তা করা যে কঠিন তা জানেন মুমিনুলও। অস্ট্রেলিয়ায় যে বাউন্সি উইকেট। সে উইকেট নিয়ে যে এশিয়ার দলগুলোর ব্যাটসম্যানদের মধ্যে বিস্তর ভাবনাও কাজ করছে। তবে বাউন্সি উইকেটে অনুশীলন করা এক্ষেত্রে বাংলাদেশ ব্যাটসম্যানদের সুবিধা করে দিতে পারে। মুমিনুল যেমন বলেছেন, ‘উইকেট একটু বাউন্সি করা হয়েছে। চেষ্টা করছি বাউন্সি উইকেটে নিজেকে মানিয়ে নিতে। মেশিনে বলেন কিংবা অন্যভাবে বলেন, নিজেকে প্রস্তুত করছি। যদি নির্দিষ্ট করে বলি বেকফুটে নির্দিষ্ট কিছু শট আছে, কাট-পুল; এসব নিয়ে কাজ করছি। উপমহাদেশে সবারই প্রথম প্রথম একটু সমস্যা হয়। পরে সবাই মানিয়ে নেয়। আমরাও চেষ্টা করব সবাই দ্রুত মানিয়ে নিতে।‘

ছোট-খাটো গড়নের অনেক ভাল ব্যাটসম্যান আছে আমরা যদি ইতিহাস দেখি, তাদের ফলো করা কিংবা এই বিষয়টি মাথায় আছে কিনা? এমন প্রশ্নে মুমিনুল জবাব দেন, ‘খেলা দেখলে অনেক কিছু শেখা যায়। অনেক ছোট ছোট ব্যাটসম্যান যারা ছিল অনেকে ভাল খেলত। আমিও চেষ্টা করি ভাল খেলার। শট বলগুলো ভাল খেলার জন্য।’ অস্ট্রেলিয়ার কন্ডিশনে রান করার জন্য কোচ আপনাদের কোন জিনিসগুলো নিয়ে কাজ করছেন? মুমিনুল বলেন, ‘ওই কন্ডিশনে রান করতে হলে পিচে ভাল খেলতে হবে। কাট, পুল এগুলো ভাল খেলতে হবে।’ ব্যক্তিগত কোন লক্ষ্য আছে কিনা? মুমিনুল বাকি ক্রিকেটারদের মতো দেশের জন্য কিছু করার কথাই বললেন, ‘ব্যক্তিগত কোন লক্ষ্য ওইভাবে নেই। একটাই ইচ্ছা আছে দেশের হয়ে বড় জায়গায় খেলার সুযোগ পাচ্ছি, এই সুযোগটা কাজে লাগাব। দেশের জন্য কিছু করার চেষ্টা করব।’

গ্রুপ পর্বে ৬টি বিভিন্ন দলের সঙ্গে খেলা আছে আপনাদের। এদের নিয়ে কোন আলোচনা করেছেন কিনা? মুমিনুল জানালেন, ‘পরিকল্পনা বলতে ওদের খেলা চলছে, সেগুলো দেখছি। কোন বোলার কিভাবে বোলিং করছে, কোন ব্যাটসম্যান কিভাবে ব্যাটিং করছে; সেসব আমরা পর্যবেক্ষণ করছি।’ আপনি শট বলে দুর্বল বেশি এটা মনে করা হচ্ছে; আপনি কী মনে করছেন? মুমিনুল জানান, ‘আমি যদি ভাল খেলি তখন আপনারা সবাই বলবেন আমি পুল ভাল খেলি। আমার অবশ্যই এটা প্রমাণ করতে হবে আমি পুল ভাল খেলি। এটা নিয়ে আমার চিন্তা নেই। আমাকে দেখাতে হবে আমি পুল ভাল খেলি।’

অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডের কন্ডিশনে বল বাউন্স হবে। সেই বলে পুল শট খেলা মুখ্য হয়ে দাঁড়াবে। সেই পুল শট খেলে রানও করতে হবে। মুমিনুল চান যেভাবেই হোক বড় ইনিংস খেলতে। মুমিনুল বড় ইনিংস খেললে সেটি দলের জন্যই কাজে লাগবে।

প্রকাশিত : ১৯ জানুয়ারী ২০১৫

১৯/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: