কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি

প্রকাশিত : ১৬ জানুয়ারী ২০১৫
  • দুই অধিনায়ক মরগান-বেইলির অন্যরকম এক লড়াই ত্রিদেশীয় সিরিজ

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বিশ্বকাপ ক্রিকেট শুরু হতে আর মাত্র ২৮ দিন বাকি। আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি উদ্বোধনী ম্যাচে মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে মুখোমুখি হবে অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড। সেই ম্যাচটারই ড্রেস রিহার্সেলে আজ সিডনিতে পরস্পরের প্রতিপক্ষ হচ্ছে দু’দল। ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ম্যাচ। অপর দল ইতোমধ্যেই স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজ খেলা বর্তমান বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ভারত। ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া উভয় দলের জন্যই আজ নতুন এক লড়াই। এ্যালিস্টার কুককে বরখাস্ত করে ইয়ন মরগানকে স্থায়ী অধিনায়ক করা ইংল্যান্ডের জন্য নতুন করে গুছিয়ে ওঠার চ্যালেঞ্জ শুরু। আর নিয়মিত অধিনায়ক মাইকেল ক্লার্ক ইনজুরিতে থাকায় জর্জ বেইলির নেতৃত্বে নামবে অসিরা। দু’দলের অধিনায়কই দীর্ঘদিন আছেন রান খরায়। সে জন্য আজ থেকে নিজেদের ফিরে পেয়ে দলের অন্য ক্রিকেটারদের অনুপ্রাণিত করা লড়াইটাও শুরু। বাংলাদেশ সময় সকাল ৯টা ২০ মিনিটে ম্যাচটি শুরু হবে।

বিশ্বকাপের আগে দারুণ প্রস্তুতির সুযোগ। একেবারে যে মঞ্চে হবে ওয়ানডে বিশ্বকাপ সেখানেই আগেভাগে লড়ে নিজেদের ঝালিয়ে নেয়া। ইংলিশদের সামনে বড় চ্যালেঞ্জ এ ত্রিদেশীয় সিরিজটা। দীর্ঘদিন ওয়ানডে ক্রিকেটে বেশ বাজে অবস্থার মধ্যে আছে তারা। সে কারণে বিশ্বকাপ ও এ ত্রিদেশীয় সিরিজের দলটির নেতৃত্বই শুধু কেড়ে নেয়া হয়নি একেবারেই দল থেকে ছেঁটে ফেলা হয়েছে কুককে। মরগানের কাঁধে গুরু দায়িত্ব দলকে ভালভাবে সাজিয়ে-গুছিয়ে তোলার। কিন্তু তিনি নিজেই আছেন অফফর্মে। ব্যাটে রানের খরা। সর্বশেষ ১৯ ওয়ানডেতে মাত্র একটি অর্ধশতক হাঁকাতে পেরেছেন মরগান। গত বছর ইংল্যান্ড ঘরের মাঠে শ্রীলঙ্কা ও ভারতের কাছে ওয়ানডে সিরিজ হেরেছে। আবার শ্রীলঙ্কা সফরেও সিরিজ পরাজয় দেখেছে কুকের দল।

শেষ পর্যন্ত তাঁকে ওয়ানডের দল থেকেই বাদ দেয়া হয়েছে। তবে ত্রিদেশীয় সিরিজের আগে দারুণ কিছু করার মতো লক্ষণ দেখিয়েছে ইংলিশরা। গা-গরমের ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী একাদশের বিরুদ্ধে দুর্দান্ত ব্যাটিং নৈপুণ্য দেখিয়েছে তারা। যদিও মরগান মাত্র ৭ রান করেই ফিরে গেছেন। কিন্তু ওপেনার ইয়ান বেল বিস্ফোরক একটি ইনিংস উপহার দিয়েছেন। করেছেন ১৪৫ বলে ২০ চার ও ৩ ছক্কায় ১৮৭ রান। দীর্ঘদিন টপঅর্ডারে রান না পাওয়া ইংল্যান্ড দল এ ম্যাচে উদ্বোধনী জুটিতে ১১৩ ও দ্বিতীয় উইকেটে ১৪১ রান করে। বেলের সঙ্গে প্রথম উইকেটে ছিলেন গত শ্রীলঙ্কা সিরিজ থেকে দুর্দান্ত ব্যাট করা মঈন আলি। তিনিও মাত্র ৪৯ বলে ৭১ রানের একটি ইনিংস উপহার দিয়েছেন। তিন নম্বরে নামা তরুণ জেমস টেইলরও ৭৭ বলে ৭১ রানের দারুণ এক ইনিংস খেলেন। ফলে ৩৯১ রানের বিশাল সংগ্রহ পায় ইংল্যান্ড। সে কারণে ব্যাটিংয়ে দুর্গতির বিষয়টা এখন চাপা পড়ে গেছে। নিজেদের ফিরে পাওয়ার ইঙ্গিতটা দিয়ে দিয়েছে সফরকারীরা। এর পাশাপাশি মঈন অফস্পিনেও বেশ কার্যকর।

প্রস্তুতি ম্যাচে প্রধানমন্ত্রী একাদশ ৬০ রানে হেরে গেলেও গ্লেন ম্যাক্সওয়েল দুর্দান্ত একটি ইনিংস উপহার দেন। তিনি মাত্র ৮৯ বলে ২০ চার ও ২ ছক্কায় ১৩৬ রানের একটি বিধ্বংসী ইনিংস খেলেন। তবে আজ নিয়মিত অধিনায়ক ক্লার্ককে ছাড়াই নামতে হবে অসিদের। টেস্টে তাঁর পরিবর্তে সহঅধিনায়ক তরুণ স্টিভেন স্মিথ নেতৃত্ব দিলেও ওয়ানডের নেতৃত্ব দেয়া হয়েছে বেইলির কাঁধে। তিনি নিজেও রানের খরায় ভুগছেন। এ সিরিজে ক্লার্কের অবর্তমানে বেইলি-স্মিথের মধ্যে বেশি উপযুক্ত এবং স্পিনে জেভিয়ের ডোহার্টির সঙ্গে সহযোগী স্পিনার হিসেবে ম্যাক্সওয়েলকে ব্যবহারটা কতখানি কার্যকর হতে পারে সেটাও পরীক্ষার সুযোগ অসিদের। তবে বেইলি সবমিলিয়ে অসি ব্যাটসম্যানদের মধ্যে সবচেয়ে ভাল অবস্থায় আছেন। আইসিসি ওয়ানডে র‌্যাঙ্কিংয়ে একমাত্র অসি ব্যাটসম্যান হিসেবে সেরা দশে আছেন তিনি। আর ৫৫ রান যদি করতে পারেন সেক্ষেত্রে ওয়ানডেতে অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে দ্রুততম সময়ে ২০০০ রান করার রেকর্ড গড়বেন তিনি, ভেঙ্গে ফেলবেন ডেভিড বুনের রেকর্ড। এরপরও বিশ্বকাপে ক্লার্ক ফিরলে নিজের স্থানটা হারাতে পারেন বেইলি। সে জন্য তাঁর লড়াই নিজেকে বিশ্বকাপ একাদশে খেলার জন্য দারুণ কিছু করে দেখানোর।

প্রকাশিত : ১৬ জানুয়ারী ২০১৫

১৬/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: