আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

উখিয়ায় রাবার ড্যাম নির্মাণ, কৃষকের মুখে হাসি

প্রকাশিত : ১৬ জানুয়ারী ২০১৫
  • তিন হাজার একর অনাবাদী জমি চাষাবাদের আওতায়

নিজস্ব সংবাদদাতা, উখিয়া, ১৫ জানুয়ারি ॥ জেলার উখিয়ায় অংশগ্রহণমূলক পানি সম্পদ সেক্টর প্রকল্প রাজাপালং ইউনিয়নের পশ্চিম ডিগলিয়া রবার ড্যাম নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হয়েছে। এতে এতদঞ্চলের কৃষকরা বেশ খুশি ।

জানা গেছে, ৫ কোটি ৩৪ লাখ টাকা ব্যয় বরাদ্দে বাংলাদেশ সরকার ও ইফাতের সহায়তা প্রকল্পের আওতায় এ রবার ড্যামের নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হয়। যার ফলে এতদঞ্চলের প্রায় ৩ হাজার একর অনাবাদী জমিতে বোরো চাষাবাদ নিশ্চিত হয়েছে বলে জানান স্থানীয় কৃষকরা। কৃষকদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, সীমান্ত সংলগ্ন পাহাড়ের পাদদেশ থেকে সৃষ্ট রেজুখালে বছরের ১২ মাস পানি থাকলেও ওই পানি কৃষকদের কোন কাজে আসছে না। খালের বিভিন্ন অংশে অপরিকল্পিত মাটির বাঁধ দিয়ে খ- খ- চাষাবাদ হলেও একদিকে যেমন খালের নব্যতা হ্রাস পাচ্ছে অন্যদিকে বৃহত্তর ফসলি জমি অনাবাদী থেকে যাচ্ছে বছরের পর বছর। পশ্চিম ডিগলিয়া খালের ওপর বাস্তবায়িত রবার ড্যামের উদ্যোক্তা ও স্থানীয় কৃষক জাফর উল্লাহ চৌধুরী জানান, এ রবার ড্যামের পানি দিয়ে এলাকার ৩ হাজার একর অনাবাদী জমি বোরো চাষাবাদের আওতায় আসার পাশাপাশি পরিত্যক্ত ভূমিতে বিভিন্ন প্রকার শাক-সবজি, ফলমূল উৎপাদনের মাধ্যমে গরিব পরিবারগুলো আর্থিকভাবে লাভবান হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

পশ্চিম ডিগলিয়া পানি ব্যবস্থাপনা সমিতির সভাপতি আব্দুর রহিম জানান, এ রবার ড্যামটি বাস্তবায়নের ফলে এলাকাগুলোতে বসবাসরত ভূমিহীন কৃষক পরিবারগুলো চাষাবাদের সুযোগ পাবে। এতে একদিকে যেমন এলাকার ফলন বৃদ্ধি হবে একইভাবে পানি ব্যবস্থাপনা কমিটিতে যে ৩শ’ সদস্য রয়েছে তারাও আর্থিকভাবে সচ্ছল হয়ে উঠবে।

রবার ড্যাম নির্মাণকারী ঠিকাদার আবুল বশর রুদ্র জানান, এ রবারটি চীনের এক কোম্পানি থেকে আমদানি করা হয়েছে। সার্বিক ব্যবস্থাপনায় রবার ড্যামের যতœ হলে প্রায় ৩০ বছর পর্যন্ত এ রবার ড্যামের আওতায় চাষ করা সম্ভব হবে।

প্রকাশিত : ১৬ জানুয়ারী ২০১৫

১৬/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: