আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৬ ডিসেম্বর ২০১৬, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

রিয়াজ রহমানের ওপর হামলার ঘটনায় উদ্বিগ্ন যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাজ্য

প্রকাশিত : ১৫ জানুয়ারী ২০১৫
  • সহিংসতা বন্ধের আহ্বান

স্টাফ রিপোর্টার ॥ বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা ও সাবেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী রিয়াজ রহমানের ওপর হামলার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ ও নিন্দা জানিয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাজ্য। একই সঙ্গে সকল রাজনৈতিক দলকে সহিংসতা পরিহারেরও আহ্বান জানিয়েছে দেশ দুটি। বুধবার ঢাকার মার্কিন দূতাবাস ও যুক্তরাজ্য হাইকমিশন থেকে পাঠানো বিবৃতিতে এই তথ্য জানানো হয়।

মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়, প্রাক্তন পররাষ্ট্র সচিব রিয়াজ রহমানের ওপর হামলার ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্র স্তম্ভিত ও মর্মাহত এবং তার দ্রুত আরোগ্য কামনা করছে। গণতান্ত্রিক বাংলাদেশে এমন গর্হিত ও কাপুরুষোচিত কাজের কোন হলেও খালেদা জিয়া ক্ষমতায় যেতে চান। সাধারণ মানুষ মেরে লাভ না হওয়ায় বিএনপি নেত্রী দেশকে অস্থিতিশীল করতে এখন নিজ দলের নেতাকর্মীদেরও হত্যার চেষ্টা করছেন। ক্ষমতায় যাওয়া জন্য কালনাগিনীর ভয়ঙ্কর রূপ নিয়ে তিনি যেকোন মুহূর্তে যে কাউকে ছোবল দিতে পারেন।

বুধবার ধানম-ির আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর রাজনৈতিক কার্যালয়ে চলমান পরিস্থিতি নিয়ে আয়োজিত এক জরুরী সাংবাদিক সম্মেলনে দলের পক্ষ থেকে এসব কথা বলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ। বিএনপির সঙ্গে সংলাপের সম্ভাবনা পুরোপুরি নাকচ করে দিয়ে তিনি বলেন, কার সঙ্গে সংলাপ, কিসের সংলাপ, কি বিষয় নিয়ে বসব?

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা রিয়াজ রহমানের ওপর হামলা প্রসঙ্গে মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেন, যেকোন ধরনের হামলাকে আমরা সমর্থন করি না, আমরা এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাই। তবে বাস্তবতা হচ্ছে, খালেদা জিয়া ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য মরিয়া হয়ে লাশের রাজনীতি শুরু করেছেন। এবার অন্য দলের নেতা নয়, সাধারণ মানুষ নয়, নিজের দলের নেতাকে হত্যা করে দেশকে অস্থিতিশীল করতে চান উনি। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, বিএনপির অবরোধ কর্মসূচী ব্যর্থ হয়েছে। বিএনপি নেতাদের বিভিন্ন বক্তব্যের জবাবে তিনি বলেন, বিএনপির নেতারাই জানেন না, তাঁদের দলের লক্ষ্য কি? তাঁদের দলের লক্ষ্য জানেন একমাত্র খালেদা জিয়া এবং তাঁর লন্ডন প্রবাসী পলাতক পুত্র তারেক রহমান। এ দু’জনের লক্ষ্য হলো দেশকে ব্যর্থ রাষ্ট্র হিসেবে চিহ্নিত করা।

বিএনপি-জামায়াতের নীলনকশার বিষয়ে দেশবাসীকে সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়ে আওয়ামী লীগের এই নেতা বলেন, মানিকগঞ্জের সাটুরিয়ায় এক জনসভায় খালেদা জিয়া বলেছিলেন, ক্ষমতায় যেতে তিনি আরও লাশ চান! আমি খালেদা জিয়াকে অনুরোধ করব- দয়া করে লাশের রাজনীতি বন্ধ করুন। নিজ দলের নেতাকর্মীদের হত্যার চক্রান্তের রাজনীতি বন্ধ করুন।

হানিফ বলেন, মঙ্গলবার রিয়াজ রহমানের উপর হামলার পর বিএনপি যে বিবৃতি দিয়েছে তা আমাদের দৃষ্টিগোচর হয়েছে। এই বিবৃতির মধ্য দিয়ে খালেদা জিয়া গত কয়েক দিনের অবরোধে যে তা-ব হয়েছে তার দায় স্বীকার করে নিয়েছেন। খালেদা জিয়া দেশের মানুষের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছেন উল্লেখ করে তিনি বলেন, খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে দেশে সন্ত্রাসী কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে। বোমাবাজি করে মানুষ হত্যা করা হচ্ছে। তবে কি কারণে খালেদা জিয়া দেশের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছেন দেশের মানুষ তা জানতে চায়।

সাংবাদিক সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতা খালিদ মাহমুদ চৌধুরী এমপি, ফরিদুন্নাহার লাইলী, ড. আবদুস সোবহান গোলাপ, এ্যাডভোকেট আফজাল হোসেন, সুজিত রায় নন্দী, আমিনুল ইসলাম আমিন, এস এম কামাল হোসেন প্রমুখ।

খালেদা জিয়ার বোমাবাজরাই এই হামলা করেছে- ড. হাছান ॥ আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বোমাবাজরাই তাঁর উপদেষ্টা রিয়াজ রহমানের ওপর হামলা চালিয়েছে। খালেদা জিয়া নিরীহ মানুষকে হত্যার জন্য যাদের হাতে পেট্রোলবোমা তুলে দিয়েছেন তারাই এই হামলা চালিয়েছে।

প্রকাশিত : ১৫ জানুয়ারী ২০১৫

১৫/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



ব্রেকিং নিউজ: