রৌদ্রজ্জ্বল, তাপমাত্রা ২৩.৯ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

‘আমি কোথাও যাচ্ছি না’

প্রকাশিত : ১৩ জানুয়ারী ২০১৫
‘আমি কোথাও যাচ্ছি না’

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বার্সিলোনা ছাড়ছেন লিওনেল মেসি! কোচ লুইস এনরিকের সঙ্গে চলছে ঝামেলা। যে কারণে ন্যুক্যাম্পে আর থাকছেন না আর্জেন্টাইন অধিনায়ক। সম্প্রতি এমন খবরে ছেয়ে গেছে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম। অবশেষে সব গুঞ্জন আর আলোচনা-সমালোচনায় জল ঢেলে দিলেন স্বয়ং মেসিই। রবিবার সাক্ষাতকারে সাবেক রেকর্ড টানা চারবারের ফিফা সেরা ফুটবলার স্পষ্টভাবে জানিয়ে দিয়েছেন, ‘আমি কোথাও যাচ্ছি না, যা বলা হয়েছে সব মিথ্যা।’ চার দিন আগে চেস ফেব্রিগাসও বলে দিয়েছেন, ‘আমি মেসিকে চেলসিতে আনার কোন চেষ্টাই করিনি।’

রবিবার স্প্যানিশ লা লীগায় হাইভোল্টেজ ম্যাচে এ্যাটলেটিকো মাদ্রিদকে ৩-১ গোলে হারানোর পর বার্সিলোনা তারকা তার দলবদল ও অন্যান্য প্রসঙ্গে কথা বলেন খোলামেলা। সাক্ষাতকারে মেসি বলেন, আমার বার্সিলোনা ছেড়ে যাওয়ার কোন ইচ্ছা নেই। না চেলসির জন্য, না ম্যানচেস্টার সিটির জন্য। মানুষ যা বলছে, এসব নিয়ে আমি খুবই ক্লান্ত। আমি ক্লাবকে কাউকে বরখাস্ত করতেও বলিনি। মেসি সব সময়ই বলে এসেছেন, ন্যুক্যাম্পে তিনি সুখেই আছেন এবং ক্যারিয়ার এখানেই শেষ করতে চান। এখনও এই সিদ্ধান্ত পরিবর্তনের মতো কিছু হয়নি বলে জানান তিনি। আর্জেন্টাইন অধিনায়ক বলেন, যা কিছু বলা হয়েছে সব মিথ্যা। আমি মানুষকে জানাতে চাই, যা বলা হয়েছে সব ভুয়া। বার্সিলোনার সাফল্যে ঈর্ষান্বিত হয়ে এই দলটির ক্ষতি করার জন্য মানুষ এসব করছে বলে উল্লেখ করে মেসি বলেন, মানুষ এসব বলে, কারণ তারা আমাদের ক্ষতি করতে চায়। এটা কষ্ট দেয়, কারণ এটা বার্সিলোনার মানুষদের কাছ থেকেই এসেছে। আমাদের অবশ্যই সংঘবদ্ধ থাকতে হবে। আমাদের দলটি এখন আগের থেকে আরও বেশি মজবুত। তাদের আমাদের প্রতি এমন সংবাদ প্রকাশ করা উচিত হয়নি। আমরা শুধু দলের হয়ে ভাল কিছু অর্জন করতে চাই। ফুটবল ইতিহাসের অন্যতম সেরা এই তারকা বলেন, আমার ক্লাব ছাড়ার কোন ইচ্ছাই নেই। আর এটি খুবই খারাপ কাজ যে, আমার ও এনরিককে নিয়ে মধ্যে বাজে সংবাদ প্রকাশ করা হয়েছে। কারণ এমন কোন কিছুই আমাদের মধ্যে হয়নি। ইতোমধ্যে সবাই জেনে গেছেন ২০১৪ সালের ফিফা ব্যালন ডি’অরকে জয় করেছেন। সোমবার রাতে জুরিখে ঘোষণা হয়েছে বর্ষসেরার নাম। এ প্রসঙ্গে মেসি বলেন, যে যোগ্য তার হাতেই ব্যালন ডি’অরের পুরস্কার উঠবে। এটি ক্রিশ্চিয়ানোও পেতে পারে আবার নিউয়েরও পেতে পারে। তাহলে কি আগেই সারেন্ডার করেছেন মেসি! গত কয়েক মাস ধরেই গুঞ্জন ছিল, মেসিকে বার্সিলোনা থেকে চেলসিতে আনার চেষ্টা করছেন চেস ফেব্রিগাস। সাবেক বার্সা মিডফিল্ডারের এমন প্রচেষ্টার কথা সংবাদমাধ্যমেও এসেছে। মেসির মতো স্প্যানিশ তারকাও বিষয়টি পুরোপুরি অস্বীকার করেন। গত শুক্রবার এক সাক্ষাতকারে এমন খবরকে ভিত্তিহীন বলে উড়িয়ে দেন ফেব্রিগাস। সাক্ষাতকারে ফেব্রিগাস বলেন, বার্সিলোনায় মেসি সুখেই আছে এবং মেসিকে পেয়ে বার্সাও সুখে আছে। বার্সাতে আমি ও মেসি সতীর্থ হিসেবে ছিলাম। সে আমার একজন ভাল বন্ধুও বটে। এটা সত্য যে, তার সঙ্গে আবারও খেলার সুযোগ পেলে সেটি হবে অবিশ্বাস্য। এর পরের বক্তব্যে ফেব্রিগাস বলেন, আমার খুবই খারাপ অনুভূতি হয়েছিল যখন জানতে পারি আমি নাকি মেসিকে চেলসিতে আনার জন্য চেষ্টা চালাচ্ছি। এটা সম্পূর্ণ মিথ্যা খবর। আমাদের মধ্যে এ ব্যাপারে কোন আলাপই হয়নি। আমি কোন চেষ্টাই করিনি। তাছাড়া আমি একজন সাধারণ ফুটবলার। ক্লাব কর্তৃপক্ষ কখন কাকে দলে আনবে তা একান্তই তাদের ব্যাপার।

স্পেনের তারকা এই ফুটবলার আরও জানান, বার্সিলোনায় আমি তিন বছর কাটিয়েছি। ওই সময়ে মেসির মধ্যে ক্লাব ছাড়ার কোন লক্ষণ দেখিনি। যদিও এখন বলা হচ্ছে কোচের সঙ্গে দ্বন্দ্বে জড়ানোয় ক্লাব ছাড়তে পারে মেসি। তবে আমার মনে হয় না মেসি এমনটি করবে। অথচ এর আগে গত ডিসেম্বরে সংবাদমাধ্যমে এসেছিল ফেব্রিগাস নাকি চেষ্টা করছেন মেসিকে চেলসিতে আনতে। তখন ফেব্রিগাসের উদ্ধৃতি দিয়ে বলা হয়েছিল, মেসি যদি বার্সা ছেড়ে চেলসিতে যোগ দেয় তাহলে আমি খুবই খুশি হব।

অথচ এখন সবকিছুই মিথ্যা বলে প্রতীয়মান হচ্ছে!

প্রকাশিত : ১৩ জানুয়ারী ২০১৫

১৩/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: