কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

খালেদাকে অমিত শাহ্র ফোনের খবরে বিস্মিত ভারতীয় প্রশাসন

প্রকাশিত : ১২ জানুয়ারী ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার ॥ বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়াকে বিজেপি সভাপতি অমিত শাহের টেলিফোনের বিষয়টি গণমাধ্যমে প্রকাশের পরে বিস্মিত হয়েছিল ভারতের প্রশাসন। সে কারণে বেগম খালেদা জিয়াকে টেলিফোন করার বিষয়ে অমিত শাহের নিকট এ বিষয়ে বিস্তারিত জানতে চেয়েছিলেন ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রী সুষমা স্বরাজ। তবে বিজেপি সভাপতিই প্রথমে সুষমা স্বরাজকে নিশ্চিত করেন খালেদা জিয়ার সঙ্গে তার কোন কথা হয়নি। একাধিক সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

বুধবার রাতে বিএনপি অফিস থেকে প্রথমে প্রচার করা হয় যে, বেগম খালেদা জিয়ার সঙ্গে ভারতের বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ টেলিফোনে আলাপ করেছেন। এ সময় অমিত শাহ বেগম খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার খোঁজখবর নেন বলেও বিএনপি থেকে জানানো হয়। তবে এই খবর যখন বাংলাদেশ ছাড়িয়ে ভারতের গণমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে, তখন ভারতীয় প্রশাসন এই ঘটনায় বিস্মিত হয়। কেননা বিজেপির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে বাংলাদেশের বর্তমান সরকারের সঙ্গে গভীর সুসম্পর্ক তৈরি হয়েছে। এছাড়া মোদির সঙ্গে ইতিমধ্যেই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দু’দফা বৈঠকও হয়েছে। মোদি বাংলাদেশে আসার বিষয়ে আগ্রহও প্রকাশ করেছেন। এছাড়া মোদি বলেছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাংলাদেশকে বানিয়েছেন, আর শেখ হাসিনা বাংলাদেশকে বাঁচিয়েছেন। এই বাস্তবতায় বেগম খালেদা জিয়াকে বিজেপি সভাপতি কোনোভাবেই টেলিফোন করতে পারেন না বলে মনে করেন ভারতের প্রশাসন। সে কারণে অমিত শাহের কাছে প্রথমেই টেলিফোন করেন ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রী সুষমা স্বরাজ। তিনি টেলিফোনে অমিত শাহের নিকট জানতে চান, বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়াকে টেলিফোন করেছেন কি-না। সুষমাকে সে সময় অমিত শাহ বলেন, বাংলাদেশ থেকে দু’দফা তাঁর দফতরে ফোন গিয়েছিল। কিন্তু তাদের মধ্যে কোনো আলাপ হয়নি।

প্রকাশিত : ১২ জানুয়ারী ২০১৫

১২/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



ব্রেকিং নিউজ: