মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
৯ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

তাপমাত্রা সামান্য বাড়বে আজ

প্রকাশিত : ৯ জানুয়ারী ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার ॥ রাজধানীসহ সারাদেশে মাঝারি থেকে তীব্র শীত অনুভূত হচ্ছে। বৃহস্পতিবারও দেশের সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা হ্রাস অব্যাহত থাকে। তবে আবহাওয়া অফিস জানায়, আজ শুক্রবার থেকে ১৪ জানুয়ারি পর্যন্ত সারাদেশের দিন ও রাতের তাপমাত্রা সামান্য বৃদ্ধি পেতে পারে। দেশের উত্তরাঞ্চলের কিছু কিছু স্থানে হালকা বৃষ্টি হতে পারে। দেশের উত্তরাঞ্চল থেকে মধ্যাঞ্চল পর্যন্ত ও নদী অব্বাহিকায় মধ্যরাত থেকে সকাল পর্যন্ত হালকা থেকে মাঝারি কুয়াশা পড়তে পারে। আজ শুক্রবারও দেশে বয়ে যাবে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ।

আবহাওয়া অফিস জানায়, উপমহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকা পর্যন্ত বিস্তৃত। স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। আজ শুক্রবার মধ্যরাত থেকে সকাল পর্যন্ত সারাদেশে হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে। সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে এবং দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে। টাঙ্গাইল, রাজশাহী, পাবনা, যশোর, কুষ্টিয়া ও শ্রীমঙ্গলে ওপর দিয়ে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে এবং তা অব্যাহত থাকতে পারে।

এদিকে, বৃহস্পতিবার দেশের অধিকাংশ জেলার সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা হ্রাস পায়।

তিনদিন ধরে দ্বিতীয়বারের মতো দেশে বয়ে যাচ্ছে শৈত্যপ্রবাহ। রাজধানীসহ দেশের প্রায় সব ক’টি স্টেশনেই দেশের সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা কমেছে। বুধবার দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা কক্সবাজারে ২৯ ডিগ্রী সেলসিয়াস ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা শ্রীমঙ্গলে ৯.৮ ডিগ্রী সেলসিয়াস রেকর্ড হয়। আর বৃহস্পতিবার সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড হয় যথাক্রমে ২৬ ও ৮.৪ ডিগ্রী সেলসিয়াস। অর্থাৎ বুধবারের তুলনায় বৃহস্পতিবার সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা হ্রাস পায় ৩ ডিগ্রী সেলসিয়াস ও ১.৪ ডিগ্রী সে:। বুধবার ঢাকায় সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ২৪.৩ ডিগ্রী সেলসিয়াস ও ১৩.২ ডিগ্রী সে:। আর বৃহস্পতিবার তা নেমে আসে ২২.৯ ও ১২.২ ডিগ্রী সেলসিয়াস। তাপমাত্রা কমে আসার পাশাপাশি রাজধানীসহ সারাদেশের সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রার পার্থক্যও কমে এসেছে, যা শীত বৃদ্ধির পেছনে সহায়ক ভূমিকা রাখছে। বৃহস্পতিবার দেশের অধিকাংশ জেলায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১০ থেকে ১৩ ডিগ্রী সেলসিয়াসের মধ্যে বিরাজ করে।

আবহাওয়া অফিসের দীর্ঘমেয়াদী পূর্বাভাস অনুযায়ী, জানুয়ারি মাসে দেশের উত্তর, উত্তর-পূর্বাঞ্চল, পশ্চিম ও মধ্যাঞ্চলে ১ থেকে ২ টি মাঝারি ও তীব্র ধরনের শৈত্য প্রবাহ এবং অন্যত্র ২ থেকে ৩ টি মৃদু ও মাঝারি শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাওয়ার কথা রয়েছে। তাই চলতি মাসে শীতের তীব্রতা আরও বাড়বে। আবহাওয়াবিদরা বলছেন, মৃদু শৈত্যপ্রবাহ, ঘন কুয়াশা ও ঠা-া বাতাসের কারণে শীতের তীব্রতা বেড়েছে।

প্রকাশিত : ৯ জানুয়ারী ২০১৫

০৯/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: