কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

জাতীয় দল থেকে রুবেলকে বাদ দেয়ার রিট খারিজ

প্রকাশিত : ৭ জানুয়ারী ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার/কোর্ট রিপোর্টার ॥ ক্রিকেটার রুবেল হোসেনকে জাতীয় দল থেকে বাদ দেয়ার নির্দেশনা চেয়ে অভিনেত্রী নাজনীন আক্তার হ্যাপির দায়ের করা রিট আবেদন খারিজ করে দিয়েছে হাইকোর্ট। মঙ্গলবার বিচারপতি কাজী রেজাউল হক ও বিচারপতি আবু তাহের মোঃ সাইফুর রহমানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ রিট আবেদনটি খারিজ করে দেয়।

হ্যাপির দায়ের করা ধর্ষণ মামলায় জাতীয় ক্রিকেট দলের পেসার রুবেল হোসেনের জামিননামা মঞ্জুর করেছে বিচারিক আদালত। মঙ্গলবার বিকেলে ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট এস এম আশিকুর রহমানের আদালতে হাজির হয়ে রুবেল হোসেন জামিননামা পেশ করলে তা মঞ্জুর করে আদালত। উচ্চ আদালতের দেয়া জামিনের মেয়াদ শেষ হওয়ায় মঙ্গলবার রুবেল আত্মসমর্পণ করতে আদালতে আসেন। এরপর তাঁর আইনজীবী আদালতে জামিননামা পেশ করেন।

এর আগে গত ১৩ ডিসেম্বর ২০১৪ অভিনেত্রী নাজনীন আক্তার হ্যাপি ধর্ষণের অভিযোগ এনে রাজধানীর মিরপুর থানায় রুবেলের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন ৯/১ ধারায় মামলাটি দায়ের করেন। পরে ১৫ ডিসেম্বর বিকেলে বিচারপতি সৈয়দ এবি মাহমুদুল হক ও বিচারপতি আকরাম হোসেন চৌধুরী সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ রুবেলকে চার সপ্তাহের আগাম জামিন দেয়। এই সময়ের মধ্যে তাকে নিম্ন আদালতে আত্মসমর্পণেরও নির্দেশ দেয়া হয়েছিল।

অপরদিকে, হাইকোর্টে এদিন তিন দফায় রিট আবেদনটি শুনানির জন্য উঠলে হ্যাপির আইনজীবী মোঃ ইউনুস আলী আকন্দ কোন বারই উপস্থিত না থাকায় আদালত আবেদনটি খারিজ করে দেয় বলে রুবেলের আইনজীবী মনিরুজ্জামান আসাদ জানান। তিনি সাংবাদিকদের বলেন, প্রথমে বেলা ১২টায় আবেদনটি শুনানির জন্য উঠলে আইনজীবী আকন্দ আদালতে ছিলেন না। এরপর বেলা আড়াইটায় ও বিকাল ৪টায় আবেদনটি শুনানির জন্য হ্যাপির আইনজীবীকে আদালতে উপস্থিত থাকতে নির্দেশ দিলেও তিনি না আসায় বিচারকরা তা খারিজ করে দেন। এ বিষয়ে হ্যাপির আইনজীবী মোঃ ইউনুস আলী আকন্দ বলেছেন, এভাবে রিট আবেদন খারিজ হলে তা পুনরুজ্জীবিত করা যায়। আমরা মামলা পুনরুজ্জীবনের আবেদন করব। তারপর আবার শুনানি করব।

সম্প্রতি রুবেলের বিরুদ্ধে ‘বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দৈহিক সম্পর্ক’ গড়ার অভিযোগে থানায় মামলা করে আলোচনায় আসেন চলচ্চিত্র নায়িকা হ্যাপি। তার ওই মামলায় জামিনে থাকা রুবেল আসন্ন বিশ্বকাপ ক্রিকেটের জন্য বাংলাদেশের জাতীয় দলে ডাক পেয়েছেন। সোমবার হ্যাপির পক্ষে হাইকোর্টে একটি রিট আবেদন করা হয়, যাতে রুলের পাশাপাশি রুবেলকে জাতীয় দল ও বিশ্বকাপ দল থেকে বাদ দিতে আদালতের নির্দেশনা চাওয়া হয়। রুবেলকে দলছাড়া করার পাশাপাশি মামলা নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত তার পাসপোর্ট জব্দ করার আবেদনও করেন হ্যাপি।

রিট আবেদনে, রুবেলের হাত থেকে হ্যাপির ‘জীবন রক্ষায়’ পুলিশি নিরাপত্তা দিতে কেন নির্দেশনা দেয়া হবে না- তা জানতে রুল জারিরও আর্জি রয়েছে। বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল ও বিশ্বকাপ দল থেকে রুবেলের নাম বাদ দিতে কেন নির্দেশনা দেয়া হবে না এবং হ্যাপির মামলার তদন্ত ও বিচার না হওয়া পর্যন্ত রুবেলের পাসপোর্ট কেন জব্দ করতে বলা হবে না, আবেদনে এ মর্মে রুল জারিরও আর্জি জানিয়েছেন হ্যাপি।

আবেদনে, স্বরাষ্ট্র সচিব, ক্রীড়া সচিব, বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি, ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম, ক্রিকেটার রুবেল হোসেন, নারী শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৫ এবং মিরপুর মডেল থানার ওসিকে রিটে বিবাদী করা হয়েছে।

প্রকাশিত : ৭ জানুয়ারী ২০১৫

০৭/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: