আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

রিয়ালে চুক্তি বৃদ্ধিতে দারুণ খুশি খেদিরা

প্রকাশিত : ২৬ ডিসেম্বর ২০১৪
রিয়ালে চুক্তি বৃদ্ধিতে দারুণ খুশি খেদিরা

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ চার বছর আগে স্বদেশী ক্লাব স্টুটগার্ট থেকে রিয়াল মাদ্রিদে যোগ দেন সামি খেদিরা। স্প্যানিশ জায়ান্ট রিয়ালের সঙ্গে প্রথম কয়েকটি মৌসুম বেশ ভালই কেটেছে তার। কিন্তু গত মৌসুমে নিষ্প্রভ ছিলেন তিনি। মূলত চোটের কারণেই কার্লো আনচেলত্তির প্রথম পছন্দের তালিকায় নেই এই জার্মান তারকা। আসছে বছরেই রিয়ালের সঙ্গে চুক্তির মেয়াদও শেষ হয়ে যাচ্ছে তার। আর যদি চুক্তির মেয়াদ বৃদ্ধি করা না হয় তাহলে ২০১৫ সালের জুনেই রিয়াল ছাড়তে হবে তাকে। কিন্তু জার্মানির বিশ্বকাপজয়ী এই তারকা ফুটবলার রিয়ালেই থাকার ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন। চেষ্টা চালাচ্ছেন চুক্তি সংক্রান্ত বিষয়টি দ্রুতই মীমাংসা করার জন্য। এ বিষয়ে সামি খেদিরা বলেন, ‘রিয়াল চুক্তির মেয়াদ বৃদ্ধি করলে আমি খুশি হব।’ ২০১০ সালে স্প্যানিশ ক্লাবটিতে যোগ দেন তিনি। সেই থেকেই স্প্যানিশ ক্লাবটিতে নিজের সেরাটা ঢেলে দিচ্ছেন জার্মান মিডফিল্ডার। মধ্য মাঠের ফুটবলার হলেও তাকে প্রতিপক্ষ দলের খেলোয়াড়রা তার প্রতি সর্বদা অতিরিক্ত নজরে রাখে। কারণ, সুযোগ পেলেই প্রতিপক্ষের জালে গোল করার অসাধারণ ক্ষমতা রয়েছে তার। শুধু ক্লাব ফুটবলেই নয় বরং জাতীয় দলের জার্সিতেও নিজেকে ফুটিয়ে তুলছেন তিনি।

কিন্তু গত মৌসুমটা চোটের সঙ্গে লড়াই করতে হয় তাকে। চোট নিয়ে সাইড লাইনে বসে ছিলেন জার্মানির এই তারকা ফুটবলার। এবার চোট থেকে মুক্ত তিনি। নিজেকে ফিট রাখার জন্য ইতোমধ্যেই অনুশীলনে কঠোর সময় পার করছেন সামি খেদিরা। কিন্তু রিয়ালে তার জায়গাটা দখল করে রেখেছেন আরও অনেকেই। যেখানে রয়েছেন তারই জাতীয় দলের সতীর্থ ফুটবলার টনি ক্রুজ। আছেন ক্রোয়েশিয়ার লুকা মডরিচ এবং স্প্যানিশ প্লেমেকার ইস্কো। যে কারণে রিয়ালে নিজেকে খোঁজে পাওয়াটা তার জন্য কঠিন। তাই অনেকেই মনে করছেন, রিয়ালের জার্সি তুলে জার্মান জায়ান্ট বেয়ার্ন মিউনিখে দেখা যেতে পারে তাকে। শুধু বুন্দেসলিগার চ্যাম্পিয়ন বেয়ার্ন কেন? বাতাসে চাউর রয়েছে খেদিরাকে পেতে আগ্রহী ইংলিশ প্রিমিয়ার লীগের ক্লাব আর্সেনালও। যেখানে খেলেন তারই স্বদেশী এবং সাবেক ক্লাব সতীর্থ মেসুত ওজিল। তবে প্রিয় ক্লাব রিয়ালে থাকতেই আগ্রহী খেদিরা। এ ব্যাপারে তিনি ক্লাব কর্তৃপক্ষের সঙ্গেও কথা বলেছেন। তার ইচ্ছা অন্তত আরও কয়েকটি বছর লা লিগাতেই কাটিয়ে দেয়া, ‘যদি কোন সমাধান পাওয়া যায়; তাহলে আমি খুশি হব।’ রিয়ালে তার কঠিন প্রতিতিপক্ষ টনি ক্রুজ। কিন্তু তার সতীর্থের পারফর্মেন্সের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন। এ বিষয়ে খেদিরা বলেন, ‘টানা ৬ মাস রিয়ালের হয়ে দারুণ পারফর্মেন্স করছে ক্রুজ। এখন তিনি কোচের চোখে চোখে। একাদশের সুযোগ পেতে হলে এক কথায় আমাকে কঠিন প্রতিদ্বন্দ্বিতার মুখোমুখিই হতে হবে।’

সামি খেদিরা আরও জানিয়েছেন, তিনি আর্সেনাল, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড কিংবা অন্য কোন ক্লাবের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হওয়ার ব্যাপারে কোন কথা বলেননি। এ বিষয়ে ২৭ বছর বয়সী সামি খেদিরা বলেন, ‘অন্য কোন ক্লাবের সঙ্গে আমার কোন কথা হয়নি। এমনকি আমি কখনও রিয়াল ছাড়ার ব্যাপারে কথাও বলিনি। রিয়াল মাদ্রিদ অসাধারণ একটা দল। সান্তিয়াগো বার্নাব্যু ছাড়ার মতো কোন কারণ আমি খুঁজে পাইনি।’ স্প্যানিশ লা লিগায় চলতি মৌসুমে দুর্দান্ত খেলছে তার দল রিয়াল মাদ্রিদ।

লীগে ১৫ ম্যাচ শেষে ৩৯ পয়েন্ট নিয়ে সবার উপরে অবস্থান করছে তারা। এক ম্যাচ বেশি খেলা চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সিলোনার দখলে ৩৮ পয়েন্ট। কিন্তু সামি খেদিরা খেলার সুযোগ পেয়েছেন মাত্র চার ম্যাচে। আর এসবই বলছে ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদের সঙ্গে তার সম্পর্কের ফারাকটা অনেক দূর!

প্রকাশিত : ২৬ ডিসেম্বর ২০১৪

২৬/১২/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: