মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

যারা বঙ্গবন্ধুকে অসম্মান করে তাদের সঙ্গে কেয়ামত পর্যন্ত আপোস নেই ॥ নাসিম

প্রকাশিত : ২৫ ডিসেম্বর ২০১৪

নিজস্ব সংবাদদাতা, নওগাঁ, ২৪ ডিসেম্বর ॥ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, সত্তরের নির্বাচন না হলে দেশ স্বাধীন হতো না, আর ৫ জানুয়ারি নির্বাচন না হলে দেশে গণতন্ত্র থাকত না। তিনি বলেন, এই নির্বাচনের বিরোধিতা করতে গিয়ে খালেদা জিয়ার আমও গেছে, ছালাও গেছে। যারা জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে অসম্মান করে কথা বলে, তাদের সঙ্গে রোজ কেয়ামত পর্যন্ত কোন আপস নেই। তিনি খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ্য করে বলেন, আপনি নির্বাচনী ট্রেন ফেল করেছেন। আপনাকে পরবর্তী ট্রেনের জন্য অপেক্ষা করতে হবে। এ জন্য ২০১৯ সালের আগ পর্যন্ত আপনাকে অপেক্ষা করতে হবে। সংবিধান অনুযায়ী ২০১৯ সালের ১ দিন আগেও নির্বাচন হবে না। মোহাম্মদ নাসিম বলেন, ক্ষুধা দারিদ্র্য ও সন্ত্রাসমুক্ত বাংলাদেশ গড়ার দৃঢ় প্রত্যয় নিয়ে যখন প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে, ঠিক সেই মুহূর্তে খালেদা জিয়া নতুন করে জামায়াত শিবিরকে সঙ্গে নিয়ে আবারও ষড়যন্ত্র শুরু করেছে। নাসিম বলেন, প্রধানমন্ত্রীত্বের জন্য শেখ হাসিনা রাজনীতি করেন না। এদেশের ১৬ কোটি মানুষের ভাগ্য উন্নয়নের জন্য দিনরাত নিরলস পরিশ্রম করে যাচ্ছেন তিনি। খালেদা জিয়া আপনি সহিংসতার পথ কখনও বেছে নিবেন না। সাহস থাকলে গণতান্ত্রিক পন্থায় আন্দোলন করুন। তিনি জামায়াত-বিএনপিকে হুঁশিয়ার করে বলেন, আন্দেলনের নামে জ্বালাও-পোড়াও সন্ত্রাসী কর্মকা- চালানোর চেষ্টা করলে কালোহাত ভেঙ্গে দেয়া হবে।

বুধবার দুপুরে নওগাঁ নওজোয়ান মাঠে জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এই কথাগুলো বলেন। এর আগে মোহাম্মদ নাসিম জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্য দিয়ে সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। জেলার ১১টি উপজেলার প্রায় ৩০ হাজার নেতাকর্মী ছাড়াও পার্শ্ববর্তী জেলাসমূহের নেতৃবৃন্দ সম্মেলনে অংশগ্রহণ করেন।

জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এ্যাডভোকেট একেএম ফজলে রাব্বী বকুর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক এমপি, কেন্দীয় আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক লে. কর্নেল (অব) মুহাম্মদ ফারুক খান এমপি, সদস্য এএইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন, সদস্য আব্দুর রহমান এমপি, পাট ও বস্ত্র প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম এমপি, সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন এমপি, সদস্য এসএম কামাল হোসেন, সদস্য সুজিত রায় নন্দী, পাট ও বস্ত্রমন্ত্রী এমাজ উদ্দিন প্রামানিক এমপি, সাধন চন্দ্র মজুমদার এমপি, হুইপ শহীদুজ্জামান সরকার বাবলু এমপি, ইসরাফিল আলম এমপি, আব্দুল মালেক এমপি, নির্মল কৃষ্ণ সাহা প্রমুখ।

নয়া কমিটি ॥ পরে মোহাম্মদ নাসিমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত দ্বিতীয় কাউন্সিল অধিবেশনে সর্বসম্মতিক্রমে আব্দুল মালেক এমপিকে সভাপতি এবং সাধন চন্দ্র মজুমদার এমপিকে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মনোনীত করা হয়।

প্রকাশিত : ২৫ ডিসেম্বর ২০১৪

২৫/১২/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: