কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

৫ জানুয়ারি তাদের ঢাকায় ঢুকতে দেয়া হবে না ॥ মায়া

প্রকাশিত : ২৫ ডিসেম্বর ২০১৪

স্টাফ রিপোর্টার ॥ বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার নেতৃত্বাধীন জোটকে ‘গণতন্ত্রের শত্রু’ আখ্যায়িত করে ৫ জানুয়ারি তাদের রাজধানীতে ঢুকতে দেয়া হবে না বলে ঘোষণা দিয়েছেন ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং ত্রাণ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম।

তিনি বলেন, খালেদা জিয়ার জোট গণতন্ত্রের শত্রু। আগামী ৫ জানুয়ারি এদের রাজধানীতে ঢুকতে দেয়া হবে না। ৫ তারিখে আওয়ামী লীগ ছাড়া কাউকে রাজপথ দখলে নিতে দেয়া হবে না। আওয়ামী লীগকে আন্দোলনের ভয় দেখাবেন না। হুমকি-ধমকি দিবেন না। আগামী ৫ জানুয়ারি দেখা যাবে কাদের কত শক্তি। তিনি বলেন, ১ জানুয়ারি থেকেই আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা মাঠে থাকবে। আমরা প্রতিটি থানা, ওয়ার্ড ও পাড়া-মহল্লায় পাহারা দেয়া শুরু করব যাতে কেউ সন্ত্রাস করতে না পারে। আগামী ৫ জানুয়ারি জননেত্রী শেখ হাসিনার ঢাকা হবে। জনগণকে সঙ্গে নিয়ে বিএনপি-জামায়াতের সকল নৈরাজ্যের জবাব দেয়া হবে।

বুধবার বঙ্গবন্ধু এভিনিউর আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে ‘বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগ আয়োজিত এক আলোচনা সভায় তিনি এ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন। মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে এ আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। সংগঠনের সভাপতি ফাতেমা জলিল সাথীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন মহানগর নেতা ফয়েজ উদ্দিন মিয়া, মুকুল চৌধুরী, শাহে আলম মুরাদ, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মোল্লা মোঃ আবু কাওছার প্রমুখ।

বিএনপি-জামায়াতের সকল নৈরাজ্যের জবাব জনগণকে সঙ্গে নিয়ে দেয়া হবে জানিয়ে মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া আরও বলেন, ৫ জানুয়ারি বিএনপি-জামায়াতের নৈরাজ্য প্রতিরোধে পাড়া-মহল্লায় সবাই সতর্ক থাকবেন, খোঁজখবর রাখবেন। কোন দুষ্কৃতিকারী, ষড়যন্ত্রকারী যেন কোন বাসা-বাড়িতে লুকিয়ে থেকে ষড়যন্ত্র করতে না পারে। রাস্তায় গাড়ি ভাংচুর করতে না পারে। জনগণের জান-মালের নিরাপত্তা দেয়ার দায়িত্ব আমাদের।

খালেদা জিয়ার উদ্দেশে তিনি বলেন, খালেদা জিয়া বারবার হরতাল দিয়ে, মায়াকান্না করে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার বন্ধ করতে চেয়েছিলেন। কিন্তু ব্যর্থ হয়েছেন। ইনশাল্লাহ শত চেষ্টা করেও খালেদা জিয়া তাদের রক্ষা করতে পারবেন না। বিচার আমরা শেষ করবই। বাংলাদেশকে পাকিস্তান বানানোর স্বপ্ন খালেদা জিয়ার কোনদিনই সফল হবে না। এদেশে আর কোনদিন জঙ্গীবাদের জন্ম হবে না।

খালেদা জিয়া বিচার ঠেকাতে পারবেন না- কামরুল ॥ খাদ্যমন্ত্রী এ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ করে বলেছেন, যতই বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির চেষ্টা করুন, বিচারের নিয়ম-কানুন মেনেই এই মামলার নিষ্পত্তি হবে। আপনার ভাগ্যে যা আছে, তাই হবে। ভাগ্য ফেরাতে পারবেন না। হাজার চেষ্টা করেও আপনার বিচার ঠেকাতে পারবেন না।

বুধবার সকালে রাজধানীর সেগুনবাগিচার শিল্পকলা একাডেমিতে প্রয়াত আওয়ামী লীগ নেতা আবদুর রাজ্জাকের তৃতীয় মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাখতে গিয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

কামরুল ইসলাম আরও বলেন, মির্জা ফখরুল বলেন আমরা নাকি উদ্দেশ্যমূলকভাবে বিচার করছি। আমরা তো বিচারকও পরিবর্তন করেছি, তাহলে সমস্যা কোথায়? তিনি বলেন, আদালতের সময় সকাল ১০টা হলেও খালেদা জিয়া ঠিক সময়ে আদালতে যান না। আদালতে হাজিরা দেয়ার নামে বুধবারও বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির চেষ্টা করেছেন। এরা বিচার-আদালত কিছুই মানে না। দেশে অস্থিতিশীল অবস্থার সৃষ্টি করতে চায়। আইনের প্রতি বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখাতে চায়।

তিনি বলেন, দেশ যখন স্থিতিশীল তখন ২০১৩ সালের মতো আবারও বীভৎস্য পরিস্থিতি সৃষ্টির চেষ্টা করা হচ্ছে। পত্র-পত্রিকায় যতই লেখা হোক, দেশে জানুয়ারিতে কিছুই হবে না। প্রয়াত বর্ষীয়ান নেতা আবদুর রাজ্জাকের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে তিনি বলেন, আমি রাজ্জাক ভাইয়ের নেতৃত্বাধীন বিএলএফের অধীনে ভারতের দেরাদুনে ট্রেনিং নিয়েছি। অথচ মির্জা ফখরুল ইসলাম বিএলএফ নিয়ে বাজে কথা বলেছেন। ওই সময় তো বিএনপির জন্মই হয়নি। মিথ্যাচার ও মুক্তিযুদ্ধকে বিতর্কিত করার চেষ্টা বিএনপি সব সময়ই করে থাকে।

মোবারক আলী শিকদারের সভাপতিত্বে আলোচনায় সভায় বক্তব্য রাখেন জোটের নেতা ও খ্যাতনামা অভিনেতা এটিএম শামসুজ্জামান, নগর আওয়ামী লীগের শাহে আলম মুরাদ, জোটের সাধারণ সম্পাদক অরুন সরকার রানা প্রমুখ।

প্রকাশিত : ২৫ ডিসেম্বর ২০১৪

২৫/১২/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



ব্রেকিং নিউজ: