রৌদ্রজ্জ্বল, তাপমাত্রা ২৩.৯ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

চেলসি, ম্যানসিটি, আর্সেনালের জয়

প্রকাশিত : ৫ ডিসেম্বর ২০১৪
  • চেলসি ৩- টটেনহ্যাম হটস্পার, সান্ডারল্যান্ড ১-৪ ম্যানচেস্টার সিটি, আর্সেনাল ১- সাউদাম্পটন

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ দারুণ সাদৃশ্যই বটে। দুই কোচ জোশে মরিনহো ও ম্যানুয়েল পেলেগ্রিনি তাদের প্রিয় শিষ্যের প্রশংসায় পঞ্চমুখ হলেন। বুধবার চেলসি ও ম্যানচেস্টার সিটি নিজ নিজ ম্যাচে সহজ জয় পাওয়ার পর দিদিয়ের দ্রগবা ও সার্জিও এ্যাগুয়েরোর উচ্ছ্বসিত প্রশংসা করেন সময়ের অন্যতম দুই তারকা কোচ। ঘরের মাঠ স্টামফোর্ড ব্রিজে টটেনহ্যাম হটস্পারের বিরুদ্ধে চেলসির ৩-০ গোলের জয়ে দ্রগবা করেন এক গোল। বাকি দুটি গোল করেন ইডেন হ্যাজার্ড ও লোইক রেমি। ম্যাচে গোল করা ছাড়াও দুর্দান্ত খেলেন আইভরিকোস্ট তারকা। আর ম্যানসিটির হয়ে যেন ক্যারিয়ারের সেরা ফর্মে আছেন এ্যাগুয়েরো। প্রতিটি ম্যাচেই নিজেকে ছাড়িয়ে যাচ্ছেন আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। পরশু এ্যাওয়ে ম্যাচে সান্ডারল্যান্ডের বিরুদ্ধে ম্যানসিটির ৪-১ গোলের জয়ে এ্যাগুয়েরো করেন জোড়া গোল। বর্তমান চ্যাম্পিয়নদের হয়ে অপর দুটি গোল করেন স্টিভেন জোভেটিক ও পাবলো জাবালেটা। আরেক ম্যাচে কোন রকমে জয় পেয়েছে আর্সেনাল। সাউদাম্পটনের বিরুদ্ধে ম্যাচের শেষ মুহূর্তে আলেক্সিস সানচেজের গোলে গানার্সরা ১-০ ব্যবধানে জয় পায়। এভারটন ও হালসিটির মধ্যকার অপর ম্যাচটি ১-১ গোলে ড্র হয়। অপ্রতিরোধ্য জয়ে অপরাজিত থেকে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে অবস্থান করছে চেলসি। দ্য ব্লুজদের ভা-ারে জমা ১৪ ম্যাচে সর্বোচ্চ ৩৬ পয়েন্ট। সমান ম্যাচে ৩০ পয়েন্ট নিয়ে ম্যানসিটি দ্বিতীয়, ২৬ পয়েন্ট নিয়ে সাউদাম্পটনের অবস্থান তিন নম্বরে। ২৩ পয়েন্ট নিয়ে আর্সেন ওয়েঙ্গারের আর্সেনালের অবস্থান তালিকার ছয় নম্বরে।

এ্যাওয়ে ম্যাচে স্বাগতিক সান্ডারল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথমে পিছিয়ে পড়েছিল অতিথি ম্যানসিটি। স্টেডিয়াম অব লাইটে ম্যাচের ১৯ মিনিটে এগিয়ে যায় স্বাগতিকরা। কনোর উইকহামের গোলে এগিয়ে যায় সান্ডারল্যান্ড। সমতা ফেরাতে অবশ্য বিলম্ব করেনি পেলেগ্রিনির দল। মাত্র দুই মিনিট পরই তুখোড় ফর্মে থাকা এ্যাগুয়েরো স্কোরলাইন করেন ১-১। জোভেটিকের পাস থেকে গোল করেন আর্জেন্টাইন তারকা। ৩৯ মিনিটে নিজেই গোল করেন জোভেটিক। মজার ব্যাপার হচ্ছে, এবার তার গোলের উৎসদাতা প্রথম গোলদাতা এ্যাগুয়েরো। ২-১ গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে যায় অতিথিরা। বিরতির পর ৫৫ মিনিটে সামির নাসরির সহায়তায় দলের হয়ে তৃতীয় ও নিজের প্রথম গোল করেন আর্জেন্টাইন ফুটবলার জাবালেটা। ৭১ মিনিটে জেমস মিলনার ডান পাশ দিয়ে বাড়ানো বলে নিজের দ্বিতীয় ও দলের চার নম্বর গোল করেন এ্যাগুয়েরো। এই গোলটি ইপিএলে চলমান মৌসুমে এ্যাগুয়েরোর ১৪তম গোল। আর সব আসর মিলিয়ে সিটি তারকার গোলসংখ্যা ১৯। ম্যাচ শেষে এ্যাগুয়েরোর প্রশংসায় পঞ্চমুখ হন সিটি কোচ ম্যানুয়েল পেলেগ্রিনি। তিনি বলেন, আমি মনে করি, সে বিশ্বের সেরা ৫ খেলোয়াড়ের একজন। সে গোল করছে, আবার ভালও খেলছে। লিওনেল মেসি, ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো ও নেইমারদেরই এই মুহূর্তে বিশ্বের অন্যতম তিন সেরা খেলোয়াড় ভাবেন অনেকে। ভবিষ্যতে এ্যাগুয়েরো আরও ভাল কিছু করবেন বলেই বিশ্বাস করেন ইতালিয়ান এই কোচ। তিনি বলেন, ওর বয়স কেবল ২৬ বছর এবং প্রতিদিনই ও উন্নতি করতে পারে। টটেনহ্যামের বিরুদ্ধে দারুণ জয়ে শিরোপার পথে আরও একধাপ এগিয়েছে চেলসি। ফলে স্টামফোর্ড ব্রিজে জয়ের স্বাদ পাওয়া হলো না স্পার্সদের। এ নিয়ে দ্য ব্লুজদের মাঠে লীগে টানা ২৩ ম্যাচ জয়শূন্য থাকল টটেনহ্যাম।

ম্যাচের ১৯ মিনিটে এগিয়ে যায় স্বাগতিক চেলসি। দ্রগবার সঙ্গে বল দেয়া নেয়া করে গোলটি করেন বেলজিয়াম তারকা হ্যাজার্ড। ২২ মিনিটে গোলরক্ষক হুগো লরিসের ভুলে দ্বিতীয় গোল হজম করে অতিথিরা। লরিসের নেয়া শট গিয়ে চলে যায় হ্যাজার্ডের কাছে। বেলজিয়াম তারকার কাছ থেকে ব্রাজিলের অস্কার হয়ে বল পান দ্রগবা। ফাঁকা জায়গা থেকে গোল করতে ভুল করেননি মরিনহোর প্রিয় শিষ্য। বিরতির পর ফরাসী ফরোয়ার্ড রেমির ৭৩ মিনিটের গোলে বড় জয় নিশ্চিত হয় চেলসির। ম্যাচ শেষে চেলসি কোচ জোশে মরিনহো বলেন, খেলার প্রতি দ্রগবার মনসংযোগ অন্যদের জন্য অনুকরণীয়। বয়স বাড়লেও সে তার দায়িত্ব সম্পর্কে সচেতন। ঘরের মাঠ লন্ডনের মাঠ এমিরেটস স্টেডিয়ামে আর্সেনাল একের পর এক আক্রমণ চালালেও সাউদাম্পটন গোলরক্ষক ফ্রেজার ফস্টারের দৃঢ়তায় গোল পাচ্ছিল না। অবশ্য শেষ রক্ষা করতে পারেননি তিনি। ম্যাচ শেষের এক মিনিট আগে সানচেজ গোল করে আর্সেনালকে মূল্যবান জয় এনে দেন। এটি সাবেক বার্সিলোনা তারকার লীগে নবম গোল।

প্রকাশিত : ৫ ডিসেম্বর ২০১৪

০৫/১২/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: