কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

আজ হোসেন শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দীর মৃত্যুবার্ষিকী

প্রকাশিত : ৫ ডিসেম্বর ২০১৪
আজ হোসেন শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দীর মৃত্যুবার্ষিকী

স্টাফ রিপোর্টার ॥ গণতন্ত্রের মানসপুত্র, উপমহাদেশের প্রখ্যাত রাজনীতিবিদ হোসেন শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দীর ৫১তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ। বরেণ্য এ নেতা ১৯৬৩ সালের ৫ ডিসেম্বর লেবাননের বৈরুতে একটি হোটেল কক্ষে মৃত্যুবরণ করেন। ঢাকার হাইকোর্টের পাশে তিন নেতার মাজারে হোসেন শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দীর সমাধি।

১৯৫২ সালের ভাষা আন্দোলনের পর বাঙালীর যে জাতীয়তাবাদী চেতনার উšে§ষ ঘটেছিল, তাঁর নেতৃত্ব দিয়েছিলেন হোসেন শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দী। তাঁর রাজনৈতিক দূরদর্শিতার ফল ১৯৫৪ সালের যুক্তফ্রন্ট এবং অবিস্মরণীয় বিজয়। শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দী ছিলেন যুক্তফ্রন্ট গঠনের মূল নেতাদের মধ্যে অন্যতম। গণতান্ত্রিক রীতি ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল ছিলেন তিনি, তাই সুধী সমাজ কর্তৃক ‘গণতন্ত্রের মানসপুত্র’ বলে আখ্যায়িত হন।

হোসেন শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দীর ৫১তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথক বাণী দিয়েছেন। হোসেন শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দীর মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন নিয়েছে বিস্তারিত কর্মসূচী।

হোসেন শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দীর স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে রাষ্ট্রপতি বলেন, বাংলাদেশের গণতন্ত্রের ইতিহাসে হোসেন শহীদ সোহ্রাওয়ার্দী এক উজ্জ্বলতম নাম। তিনি ছিলেন একাধারে প্রতিভাবান রাজনৈতিক সংগঠক, আইনজ্ঞ, বঙ্গীয় ব্যবস্থাপক সভা ও গণপরিষদের সদস্য, অবিভক্ত বাংলার মুখ্যমন্ত্রীসহ তৎকালীন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী। তিনি তাঁর বর্ণাঢ্য কর্মজীবনে বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পদে দায়িত্ব পালনকালে শ্রমিক ও মেহনতী মানুষসহ বিভাগপূর্ব অবহেলিত মুসলিম সম্প্রদায়ের স্বার্থ রক্ষায় তৎপর ছিলেন। তাঁর জীবন ও কর্ম নতুন প্রজš§কে গণতান্ত্রিক চিন্তা-চেতনা ও জনগণের সার্বিক কল্যাণে উদ্বুদ্ধ করবে বলে আমার বিশ্বাস।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা হোসেন শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দীর ৫১তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে দেয়া বাণীতে তাঁর স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে বলেন, উপমহাদেশের মুসলমান সমাজের আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন ও রাজনৈতিক স্বার্থ রক্ষার সংগ্রামে হোসেন শহীদ সোহ্্রাওয়ার্দী ছিলেন উচ্চকণ্ঠ। তাঁর দক্ষ পরিচালনায় গণমানুষের সংগঠন আওয়ামী লীগ আরও বিকশিত হয়। মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকার প্রতিষ্ঠা এবং অসাম্প্রদায়িক রাজনীতি বিকাশে তিনি আজীবন কাজ করেছেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, গণতন্ত্রের অগ্রযাত্রা ও রাজনৈতিক সঙ্কট নিরসনে এ মহান নেতার জীবন ও আদর্শ আমাদের প্রেরণা যোগাবে।

প্রকাশিত : ৫ ডিসেম্বর ২০১৪

০৫/১২/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: