আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

অপ্রতিরোধ্য বেয়ার্ন মিউনিখ নকআউট পর্বে

প্রকাশিত : ৭ নভেম্বর ২০১৪
  • বেয়ার্ন মিউনিখ ২- রোমা, ম্যানচেস্টার সিটি ১-২ সিএসকেএ মস্কো, শাখতার ডোনেস্ক ৫- বাটে বরিসভ, এ্যাথলেটিক বিলবাও -২ পোর্তো

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ টানা চার জয়ে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লীগ ফুটবলের নকআউট পর্ব নিশ্চিত করেছে বেয়ার্ন মিউনিখ। বুধবার ‘ই’ গ্রুপের ম্যাচে বাভারিয়ানরা ২-০ গোলে পরাজিত করে ইতালিয়ান ক্লাব এএস রোমাকে। মিউনিখের এ্যালিয়েঞ্জ এ্যারানায় অনুষ্ঠিত ম্যাচে বেয়ার্নের হয়ে গোল দুটি করেন ফ্রাঙ্ক রিবেরি ও মারিও গোয়েটজে। আগের পর্বে রোমাকে ৭-১ গোলে বিধ্বস্ত করেছিল বেয়ার্ন। অপ্রতিরোধ্য ছন্দ ধরে রেখে দুই ম্যাচ হাতে রেখে সেরা ষোলো নিশ্চিত করেছে পেপ গার্ডিওলার দল। এই গ্রুপ থেকে ইংলিশ চ্যাম্পিয়ন ম্যানচেস্টার সিটির বিদায় অনেকটাই নিশ্চিত। চারটি ম্যাচ খেলে একটিতেও জয় পায়নি ম্যানুয়েল পেলেগ্রিনির দল। পরশু ঘরের মাঠ ইতিহাদ স্টেডিয়ামে রাশিয়ান ক্লাব সিএসকেএ মস্কোর কাছে ২-১ গোলে হার মানে সিটি। ঘটনাবহুল ম্যাচে স্বাগতিকদের দুই ফুটবলার লাল কার্ড দেখেন। ‘ই’ গ্রুপ থেকে বেয়ার্ন ১২ পয়েন্ট নিয়ে পরের পর্ব নিশ্চিত করেছে। বাকি একটি স্থানের জন্য রোমা, মস্কো ও সিটির মধ্যে। তবে সবচেয়ে কম ২ পয়েন্ট পাওয়ায় ম্যানসিটির সম্ভাবনা আছে শুধুই খাতা-কলমে! আগের পর্বে বাটে বরিসভের জালে সাত গোল ঢুকিয়েছিল শাখাতার ডোনেস্ক। ফিরতি পর্বেও গোলবন্যা অব্যাহত রেখেছে ইউক্রেনের ক্লাবটি। পরশু ‘এইচ’ গ্রুপের ম্যাচে শাখতার ৫-০ গোলে হারায় দশজনের বেলারুশের বরিসভকে। প্রথম লেগে সাত গোলের মধ্যে একাই পাঁচ গোল করে রেকর্ড গড়েছিলেন শাখতারের ব্রাজিলিয়ান স্ট্রাইকার লুইজ আদ্রিয়ানো। এবারের ম্যাচেও হ্যাটট্রিক করেছেন আদ্রিয়ানো। গ্রুপের আরেক ম্যাচে পোর্তো ২-০ গোলে হারায় এ্যাথলেটিক বিলবাওকে। নিজেদের মাঠে শুরু থেকেই রোমার গোলমুখে চাপ সৃষ্টি করে বেয়ার্ন। তবে গোল পেতে জার্মান চ্যাম্পিয়নদের অপেক্ষা করতে হয় ৩৮ মিনিট পর্যন্ত। স্বাগতিকদের এগিয়ে দেয়া গোলটি করেন ফ্রাঙ্ক রিবেরি। বাম কোনা দিয়ে আক্রমণে যাওয়া ডেভিড এ্যালাবার ক্রস দ্রুত দৌড়ে এসে ডান পায়ের শটে বল জালে পাঠান ফরাসী তারকা। বিরতির পর ৬৪ মিনিটে ব্যবধান দ্বিগুণ করে বেয়ার্ন। পোল্যান্ডের ফরোয়ার্ড রবার্ট লেভানডোস্কির ক্রস থেকে জোরালো শটে গোল করেন ব্রাজিল বিশ্বকাপের ফাইনালে জার্মানির জয়ের নায়ক মারিও গোয়েটজে। গ্রুপের আরেক ম্যাচে ইতিহাদ স্টেডিয়ামে ম্যাচের দ্বিতীয় মিনিটেই স্বাগতিকদের হতবাক করে দিয়ে এগিয়ে যায় অতিথি মস্কো। ইসরায়েলী মিডফিল্ডার বিবরাস নাচোর ফ্রিকিকে ডি বক্সের মাঝে অরক্ষিত সেইডু ডোম্বিয়া হেড করে বল জালে জড়ান। ৮ মিনিটে সমতায় ফেরে ম্যানসিটি।

প্রকাশিত : ৭ নভেম্বর ২০১৪

০৭/১১/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: