ঢাকা, বাংলাদেশ   রোববার ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২২ মাঘ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

বাংলাদেশ ভিখিরি রাষ্ট্র থেকে উন্নয়নশীল রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে 

প্রকাশিত: ১৭:৪৯, ৫ নভেম্বর ২০২২

বাংলাদেশ ভিখিরি রাষ্ট্র থেকে উন্নয়নশীল রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে 

মাহবুব উল আলম হানিফ

বিএনপির পলাতক নেতা টেক ব্যাক বাংলাদেশ বলে স্লোগান তুলেছেন। সেই স্লোগান এখন বিএনপির স্লোগান বলেন, আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ। মির্জা ফখরুল সাহেবও এই স্লোগান দিচ্ছেন। আমি মির্জা ফখরুলের কাছে জানতে চাই, টেক ব্যাক বাংলাদেশ বলে আপনারা দেশকে পিছিয়ে নিতে চান?

শনিবার (৫ নভেম্বর) বেলা ১১টার দিকে কুমিল্লা টাউনহল মাঠে কুমিল্লা মহানগর আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনে প্রধান বক্তার বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মাহবুব উল আলম হানিফ বলেন, গোটা বিশ্বের কাছে আজ প্রমাণিত হয়েছে যে শেখ হাসিনার নেতৃত্বের বাংলাদেশ সবচেয়ে সমৃদ্ধ বাংলাদেশ। এর আগে যারা ক্ষমতায় ছিল তারা দুর্নীতির মাধ্যমে দেশকে নিঃশেষ করে দিয়েছিল। একটি ভিখিরি রাষ্ট্র থেকে উন্নয়নশীল রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে। ২০০১ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত বিএনপি ক্ষমতায় ছিল। তখনকার বাংলাদেশ আর এখনকার বাংলাদেশ কত ব্যবধান সারাবিশ্বের মানুষ তা জানে।

তারেক রহমান কমিশন ছাড়া দেশের কোনো কাজ করেনি উল্লেখ করে হানিফ বলেন, বিএনপি নেতারা কথায় কথায় দুর্নীতির কথা বলেন। আমি তাদের বলব অন্যকে দুর্নীতিবাজ বলার আগে নিজের মুখ আয়নায় দেখুন। কারা হাওয়া ভবনের নামে লুটপাট করেছিল। লজ্জা হয় না, আপনারা দুর্নীতির কথা বলেন! বিএনপির আমলে ৩ দশমিক ২৮ বিলিয়ন ডলার রিজার্ভ ছিল। আমরা ৪৮ বিলিয়নে উঠিয়েছি। 

বর্তমানে ৩৯ বিলিয়ন রিজার্ভ রয়েছে। যেকোনো দুর্যোগে আমরা অন্তত ৬ মাস দেশ চালাতে পারব। আপনারা রিজার্ভের কথা বলার আগে নিজেদের দিকে তাকান। আমরা উন্নয়ন করে দেশকে অনেক দূরে নিয়ে যেতে চাই। আপনারা দুর্নীতি করে দেশকে গিলে ফেলেছেন। বিএনপি কথায় কথায় অবৈধ সরকারের কথা বলে। আমি মির্জা ফখরুলকে বলব আপনাদের দলটাই অবৈধ। জিয়াউর রহমান ক্যান্টনমেন্টে অবৈধভাবে ক্ষমতায় বসেছিল।

তিনি আরও বলেন, আমরা চাই ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত করতে, আর বিএনপি চায় রাষ্ট্রকে টেক ব্যাক বলে পিছিয়ে দিতে। আমি বিএনপিকে পরিষ্কার করে বলে দিতে চাই, এ দেশে টেক ব্যাক বাংলাদেশ আর হবে না। যারা টেক ব্যাক করে বাংলাদেশকে পিছিয়ে নিতে চায় তারা যেন পাকিস্তান চলে যায়। আমরা রাজাকারের প্রেতাত্মাদেরকে এ দেশে দেখতে চাই না।

কুমিল্লা মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও কুমিল্লা-৬ আসনের সংসদ সদস্য আ ক ম বাহাউদ্দিন বাহারের সভাপতিত্বে সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম। সম্মেলনের উদ্বোধন করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। 

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া, জাতীয় সংসদের হুইপ ও আওয়ামী লীগের চট্টগ্রাম বিভাগের বিভাগীয় সম্পাদক আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন, আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণবিষয়ক সম্পাদক শ্রী সুজিত রায় নন্দী, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিবিষয়ক সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার আবদুস সবুর, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক ড. সেলিম মাহমুদ প্রমুখ।

 

 

এমএস

সম্পর্কিত বিষয়:

monarchmart
monarchmart