মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
মঙ্গলবার, ৮ জানুয়ারী ২০১৩, ২৫ পৌষ ১৪১৯
টঙ্গীকে নিয়ে গাজীপুর হলো সিটি কর্পোরেশন
তারাকান্দা উপজেলা পীরগঞ্জ ও উজিরপুর পৌরসভা
বিশেষ প্রতিনিধি ॥ গাজীপুর সিটি করপোরেশন গঠনের প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছে সরকার। টঙ্গী ও গাজীপুর পৌরসভাসহ প্রায় ৩৩০ বর্গকিলোমিটার এলাকা জুড়ে গঠিত হবে নতুন এই সিটি করপোরেশন। সোমবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত প্রশাসনিক পুনর্বিন্যাস সংক্রান্ত জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির (নিকার) বৈঠকে প্রস্তাবটি অনুমোদন দেয়া হয়। স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় এখন সীমানা নির্ধারণ ও ওয়ার্ড বিন্যাস করে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের গেজেট প্রকাশ করবে। আর আইন অনুযায়ী, গেজেট প্রকাশের ১৮০ দিনের মধ্যে হবে দেশের একাদশতম এই সিটি কর্পোরেশনের প্রথম নির্বাচন।
নিকারের বৈঠকের পর মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব নজরুল ইসলাম সাংবাদিকদের বলেন, ৩২৯ দশমিক ৯ বর্গকিলোমিটার আয়তনের এই সিটি কর্পোরশেনের লোকসংখ্যা হবে প্রায় ২৫ লাখ।
সরকার গত বছরের শুরুতে গাজীপুরকে সিটি কর্পোরেশনে উন্নীত করার উদ্যোগ নেয়ার পর চলতি বছর ২২ অক্টোবর প্রস্তাবিত গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের সীমানা সম্প্রসারণের ব্যাপারে আপত্তি নিষ্পত্তির জন্য গণবিজ্ঞপ্তি জারি করে জেলা প্রশাসন। দীর্ঘদিনেও এ উদ্যোগ বাস্তবায়িত না হওয়ায় স্থানীরা আন্দোলনেরও ঘোষণা দেন।
একটি রিট আবেদনের পর গাজীপুরকে সিটি কর্পোরেশন ঘোষণা করতে কেন নির্দেশ দেয়া হবে না- তা জানতে চেয়ে রুল জারি করে হাইকোর্ট। সিটি কর্পোরেশনে উন্নীত হলে বিধি অনুযায়ী একজন প্রশাসক নিয়োগ করা হবে।
এ প্রসঙ্গে অতিরিক্ত সচিব নজরুল ইসলাম জানান, সোমবার নিকারের বৈঠকে মোট সাতটি সিদ্ধান্ত হয়েছে। এর মধ্যে ময়মনসিংহ জেলার ফুলপুর উপজেলার তারকান্দা থানাকে উপজেলায় উন্নীত করা হয়েছে। ১০টি ইউনিয়ন নিয়ে ৩১৫ দশমিক ৬৯ বর্গকিলোমিটার আয়তনের নতুন এ উপজেলার জনসংখ্যা ২ লাখ ৯২ হাজার ৪৫৬ জন। রংপুরের পীরগঞ্জ সদর ও বরিশালের উজিরপুর উপজেলা সদরকে পৌরসভায় উন্নীত করার প্রস্তাবও নিকারের অনুমোদন পেয়েছে। এর মধ্যে পীরগঞ্জের জনসংখ্যা ৫০ হাজার এবং উজিরপুরের লোকসংখ্যা ৫১ হাজার ৫৯৭ জন।
চট্টগ্রামের ৮টি থানাকে বিভক্ত করে চকবাজার, আকবরশাহ, সদরঘাট ও ইপিজেড নামে চারটি নতুন থানা স্থাপনের অনুমোদন দিয়েছে সরকার। এসব থানার কার্যক্রম পরিচালনার জন্য ২০০টি পদ সৃষ্টিরও অনুমোদন দেয়া হয়েছে।
চট্টগ্রাম জেলার মীরসরাই থানাকে বিভক্ত করে জোরারগঞ্জ নামে নতুন থানা স্থাপন করার প্রস্তাব অনুমোদন পেয়েছে। থানার কার্যক্রম পরিচালনার জন্য ৪৪টি পদ সৃষ্টি করা হবে। জোরারগঞ্জের অধীনে ৮টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভা থাকবে। এছাড়া মাদারীপুর জেলার কালকিনি থানার ডাসার তদন্তকেন্দ্রকে পূর্ণাঙ্গ থানায় উন্নীত করা হবে। থানা পরিচালনার জন্য ২৪টি পদ সৃষ্টিরও অনুমোদন দেয়া হয়েছে। নতুন এ থানার অধীনে থাকবে পাঁচটি ইউনিয়ন।