১৭ অক্টোবর ২০১৯, ২ কার্তিক ১৪২৬, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
 
সর্বশেষ

শ্লীলতাহানির প্রতিবাদ করায় হামলা ॥ আহত সাত

প্রকাশিত : ১১ অক্টোবর ২০১৯

নিজস্ব সংবাদদাতা, নওগাঁ, ১০ অক্টোবর ॥ মান্দায় যৌন নির্যাতনের প্রতিবাদ করায় আদিবাসী পল্লীতে হামলা চালিয়েছে একদল বখাটে। এ সময় বখাটেদের মারপিটে ওই পল্লীর চার নারীসহ ৭ জন আহত হয়েছেন। তাদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে উপজেলার ভারশো ইউনিয়নের কালীসফা পশ্চিমপাড়া আদিবাসী পল্লীতে হামলার এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ৪ বখাটে যুবককে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয়রা। এরা হলো কালীসফা মোল্লাপাড়া গ্রামের সাইফুদ্দীনের ছেলে হাবিবুর রহমান (১৯), আবু বক্কর সিদ্দিকের ছেলে ইউসুফ আলী (১৮), রকিব হোসেনের ছেলে সুজন ইসলাম (১৮) ও দেলুয়াবাড়ি মোল্লাপাড়া গ্রামের কামরুজ্জামানের ছেলে জিহাদ হোসেন (১৮)। আদিবাসী পল্লীর বাসিন্দারা জানান, কালীসফা দীঘিপাড়ার মোড়ে ‘ডালপূজা’ দেখে বুধবার সন্ধ্যায় বৃষ্টির মধ্যে বাড়ি ফিরছিল ওই পল্লীর ৩ কিশোরী। পথিমধ্যে দেলুয়াবাড়ি এলাকার মৃত মজির উদ্দিনের ছেলে নাজমুল হোসেন এক কিশোরীকে ঝাপটে ধরে শ্লীলতাহানি ঘটায়। এ সময় তাদের চিৎকারে বখাটে নাজমুল পালিয়ে কালীসফা মন্দির সংলগ্ন এলাকায় খোকনের দোকানে আশ্রয় নেয়। পল্লীর বাসিন্দা সুমতি রানী ওরাও জানান, ওই দোকান থেকে নাজমুলকে ধরে আমাদের পাড়াতে এনে আটক করে রাখা হয়। সন্ধ্যার পরে পল্লীর মোড়ল উজ্জল সরদার এসে নাজমুলকে ছেড়ে দেন। তিনি আরও বলেন, ঘটনার জের ধরে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে নাজমুলের নেতৃত্বে ৭-৮ যুবক পল্লীতে এসে হামলা চালিয়ে অতর্কিত মারপিট শুরু করে।

পল্লীর মোড়ল উজ্জল সরদার জানান, বখাটেদের মারপিটে সাগর ওরাও (১৮), শান্ত ওরাও (১৫), আনন্দ ওরাও (২৫), সোনালী ওরাও (৩৫), মিনু ওরাও (৪৫), দুলি ওরাও (২৫) ও জোসনা ওরাও (৪৫) আহত হয়েছেন। তাদের মান্দা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। আদিবাসী পল্লীতে হামলার সঙ্গে জড়িত বখাটেদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান তিনি।

প্রকাশিত : ১১ অক্টোবর ২০১৯

১১/১০/২০১৯ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



শীর্ষ সংবাদ: