১৭ অক্টোবর ২০১৯, ২ কার্তিক ১৪২৬, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
 
সর্বশেষ

ভিক্টর পরিবহন বাসের চালক সুমন ও সহকারী আক্তার গ্রেফতার

প্রকাশিত : ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৩:০৮ পি. এম.
ভিক্টর পরিবহন বাসের চালক সুমন ও সহকারী আক্তার গ্রেফতার

অনলাইন ডেস্ক ॥ রাজধানীর উত্তরার তুরাগ এলাকায় সঙ্গীত শিল্পী ও পরিচালক পারভেজ রবকে চাপা দেওয়ার ঘটনায় ভিক্টর পরিবহন বাসের চালক মো. সুমন ও সহকারী আক্তার হোসেনকে গ্রেফতার করেছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

গতকাল শুক্রবার নারায়ণগঞ্জ জেলার ফতুল্লা থানাধীন মাসদাইড় বাজার এলাকা থেকে চালক সুমনকে এবং শরীয়তপুর জেলার নড়িয়া থানাধীন দিনারা এলাকা থেকে কন্ডাক্টর আক্তার হোসেনকে গ্রেফতার করে করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের ভিত্তিতে ডিবি জানায়, ঘটনার সময় ঘাতক বাসটির চালকের আসনে ছিলেন সহকারী আক্তার হোসেন। আর চালক সুমন পাশের সিটে বসা ছিলেন। টঙ্গী থেকে ছেড়ে আসার পর তুরাগ এলাকায় বেপরোয়া গতিতে পারভেজ রবকে চাপা দেয় বাসটি। এরপর চালক ও সহকারী বাসটি ফেলে দ্রুত পালিয়ে যান।

মারা যান পারভেজ রব। ঘটনার পর মামলা করা হয়। গা ঢাকা দেন সুমন ও আক্তার। দুজনই একসঙ্গে ঢাকা ত্যাগ করেন। গত ১৩ সেপ্টেম্বর দুজনই তাদের ব্যবহৃত মোবাইলফোন যমুনা নদীতে ফেলে দেন। তবে তাতেও রক্ষা হয়নি। তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তায় চালক মো. সুমন এবং সহকারী (কন্ডাক্টর) আক্তার হোসেনকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ।

এ ব্যাপারে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা উত্তর বিভাগের উপ-কমিশনার মশিউর রহমান বাস চাপার ঘটনা ও গ্রেফতার সম্পর্কে বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে চালক সুমন জানান, ঘটনার সময় বেপরোয়া গতির ওই বাসটির চালকের আসনে ছিলেন না তিনি। তিনি পাশের সিটে বসে ড্রাইভিং সিটে বসিয়ে দেন কন্ডাক্টর আক্তার হোসেনকে। ওইটাই কাল হয়। বেপরোয়া গতিতে বাসটি চালাতে গিয়ে দুর্ঘটনা ঘটান আক্তার।

গোয়েন্দা পুলিশের ডিসি মশিউর বলেন, বাসটির আসল চালক সুমনের ড্রাইভিং লাইসেন্স থাকলেও কন্ডাক্টর আক্তারের নেই। তারপরও তিনি বাসটি চালাচ্ছিলেন। আক্তার মাঝে-মধ্যেই সুযোগ পেলেই ড্রাইভিং সিটে বসতেন।

মশিউর রহমান বলেন, চালক ও কন্ডাক্টরকে তুরাগ থানায় করা মামলায় (মামলা নং ৮) গ্রেফতার দেখিয়ে আজ শনিবার আদালতে সোপর্দ করে ১০ দিনের রিমান্ড চাওয়া হবে। রিমান্ড মঞ্জুর হলে তাদের বিশদভাবে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।

গত ৫ সেপ্টেম্বর’ বেলা ১১টায় তুরাগ থানাধীন ধউর ইস্টওয়েস্ট মেডিক্যাল কলেজের সামনে মেইন রোডের উত্তর পাশে সংগীত শিল্পী ও পরিচালক পারভেজ রব সদর ঘাট যাওয়ার উদ্দেশ্যে গাড়ির জন্য অপেক্ষা করছিলেন। এ সময় ভিক্টর ক্লাসিক নামের বাসটি (রেজিঃ নং-ঢাকা মেট্রো-ব-১২-০৯৬৩) থামানোর জন্য সংকেত দিলে গাড়ির চালক বাসটি না থামিয়ে বেপরোয়া ও দ্রুত গতিতে বাসটি চালিয়ে পারভেজ রবকে চাপা দেয়। হাসপাতালে নেয়া হলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। ওই ঘটনায় নিহতের স্ত্রী রুমানা বেগম বাদী হয়ে তুরাগ থানায় একটি মামলা করেন।

ওই ঘটনার বিষয়ে ভিক্টর ক্লাসিক গাড়ির মালিক, ম্যানেজার, ড্রাইভার ও হেলপারদের খোঁজ করতে গেলে বাদী, বাদীর ছেলে ইয়াছির আলভী রব ও ছেলের বন্ধু মেহেদী হাসান ছোটনদেরকে ভিক্টর ক্লাসিকের অপর একটি বাস উত্তরা ৯নং সেক্টর এলাকায় গাড়ি চাপা দেয়। ওই ঘটনায় ইয়াছির আলভী রব গুরুত্বর আহত হয়। এবং মেহেদী হাসান ছোটন নিহত হন। ওই ঘটনায় উত্তরা পশ্চিম থানায় আরেকটি মামলা দায়ের হয়।

প্রকাশিত : ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৩:০৮ পি. এম.

২১/০৯/২০১৯ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

জাতীয়



শীর্ষ সংবাদ:
রাষ্ট্রপতির সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাৎ || ক্ষুধামুক্ত বাংলাদেশ গড়তে কাজ করছে সরকার || র‌্যাগিংয়ের শিকার হলে নালিশ করুন, বিচার হবে : আইনমন্ত্রী || বুয়েটে সন্ত্রাস ও সাম্প্রদায়িক অপশক্তিকে রুখে দেওয়ার শপথ || ‘কুড়িগ্রাম এক্সপ্রেস’ট্রেন উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী || সারাদেশে সন্ত্রাস, দুর্ণীতির বিরুদ্ধে অভিযান চলছে ॥ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী || খাদ্যের অধিকার নিশ্চিতে আইন প্রণয়নে গুরুত্ব সাবের হোসেনের || হংকং ইস্যুতে যুক্তরাষ্ট্রে বিল পাস, হুঁশিয়ারি চীনের || চট্টগ্রামে মাদ্রাসাছাত্রী ধর্ষণে রাজমিস্ত্রীর যাবজ্জীবন || মেক্সিকোয় নিরাপত্তা বাহিনী-সন্ত্রাসীদের গোলাগুলি ॥ নিহত ১৫ ||