১৮ জানুয়ারী ২০১৮,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

বাংলাদেশের উড়ন্ত সূচনা


বাংলাদেশের উড়ন্ত  সূচনা

রুমেল খান ॥ ঠিক যেমনটা প্রত্যাশা ছিল, তেমন প্রাপ্তিযোগই হয়েছে। দুরন্ত বাংলাদেশ করেছে উড়ন্ত শুভ সূচনা। রবিবার কমলাপুর স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত সাফ অনুর্ধ-১৫ মহিলা চ্যাম্পিয়নশিপে উদ্বোধনী দিনের খেলায় তারা নেপালকে বিধ্বস্ত করে ৬-০ গোলে। প্রতিপক্ষের জালে বল অর্ধডজন বার পাঠালেও সংখ্যাটা এক ডজন হতে পারতো। কিন্তু একাধিক গোল মিসের মহড়ায় সেটা না হলেও সন্তুষ্টই বাংলাদেশের কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন। অপর ম্যাচে ভারত ৩-০ গোলে হারায় ভুটানকে।

বাংলাদেশ দল ম্যাচের প্রথমার্ধেই এগিয়ে ছিল ৪-০ গোলে। বাংলাদেশের ফরোয়ার্ড তহুরা খাতুন করে হ্যাটট্রিক। জোড়া গোল করে আনুচিং মগিনি। অপর গোলটি মনিকা চাকমা। ম্যাচসেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কার লাভ করে মনিকা।

হ্যাটট্রিক করার পাশাপাশি তহুরা একটি গোলের জোগানও দেয়। এ নিয়ে আন্তর্জাতিক ফুটবলে দুটি হ্যাটট্রিক করলো সে। প্রথমটি করেছিল তাজিকিস্তানের বিরুদ্ধে। ওই ম্যাচে ৯-১ গোলে জিতেছিল বাংলাদেশ। আসরটি ছিল এএফসি অ-১৪ আঞ্চলিক (সাউথ এ্যান্ড সেন্ট্রাল)। আর আন্তর্জাতিক ফুটবলে এ নিয়ে তহুরার গোল দাঁড়ালো ১৬তে। তাজিকিস্তানে অনুষ্ঠিত এএফসি অ-১৪ আঞ্চলিক আসরে ১০টি, নেপালে অনুষ্ঠিত একই আসরে ১ গোল, ঢাকায় অনুষ্ঠিত এএফসি অ-১৬ আঞ্চলিক আসরের বাছাইপর্বে ২ গোল এবং সাফ অ-১৫ মহিলা চ্যাম্পিয়নশিপে ৩ গোল।

এদিকে খেলা শুরুর আগেও কমলাপুর স্টেডিয়ামের বাইরের পরিবেশ ‘ভদ্রস্থ’ করে তুলতে পারেনি জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ (এনএসসি)। দেখা গেছে স্টেডিয়ামে ঢোকার প্রবেশ পথের বাঁ দিকের ফুটপাথে কাদা-বালির ঢাউস স্তূপ, দুটো বড় ডাস্টবিন, কিছু আন্তঃজেলা রুটের বাস, দুমড়ানো-মুচড়ানো ইলেকট্রিক লাইনের একাধিক খুঁটি, সাইকেলের টায়ারের স্তূপ, মুচির খুঁটি গেড়ে ফুটপাথে বসা... সবমিলিয়ে নোংরা, অস্বাস্থ্যকর, জঘন্য, বমি করার মতো দুঃসহ পরিবেশ।

অংশ নেয়া অতিথি দলগুলোর প্রতিটি দল বলছে একই কথা, ‘এবারের আসরে বাংলাদেশই ফেভারিট।’ ফুটবলপ্রেমীরা মনে করছেন এই আসরে বাংলাদেশের চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পেছনে আরও অন্তত তিনটি কারণ আছে। সেগুলো হলো : ১. স্বাগতিক হওয়ার সুবিধা, ২. টিম কম্বিনেশন এবং ৩. ফিটনেস, কৌশল ও আত্মবিশ্বাসের অভাবনীয় উন্নতি।

এর আগে কোচ ছোটনের অধীনে এএফসি অনুর্ধ-১৪ বালিকা চ্যাম্পিয়ন (আঞ্চলিক) আসরে দু’বার (২০১৫ ও ২০১৬) এবং এএফসি অনুর্ধ-১৬ আসরের (২০১৬) আঞ্চলিক বাছাইপর্বে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল বাংলাদেশ মহিলা ফুটবল দল। এখন দেখার বিষয় মেয়েদের বয়সভিত্তিক ফুটবলে চতুর্থ সাফল্য অর্জন করে দ্রোণাচার্য ছোটন আরেকবার মেতে উঠতে পারেন কি না বিজয়ের উল্লাসে।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: