১৮ জানুয়ারী ২০১৮,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

রাজশাহী আইএইচট’র ছাত্রীদের ওপর হামলা ॥ ক্যাম্পাস বন্ধ ঘোষণা


রাজশাহী আইএইচট’র ছাত্রীদের ওপর হামলা ॥ ক্যাম্পাস বন্ধ ঘোষণা

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী ॥ ক্যাম্পাসে নিরাপত্তা নিশ্চিত ও বহিরাগতদের উৎপাত বন্ধের দাবিতে রাজশাহী ইনস্টিটিউট অব হেলথ টেকনোলজিতে (আইএইচটি) আন্দোলনরত ছাত্রীদের ওপর হামলা চালিয়েছে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এতে অন্তত ১৫ জন ছাত্রী আহত হয়েছেন। বুধবার বেলা সোয়া ১১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় চরম উত্তেজনার মুখে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি অনির্দিষ্টকালের জন্যে বন্ধ ঘোষণা করেছে কর্তৃপক্ষ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বহিরাগতদের উৎপাত ও নিরাপত্তার নিশ্চিতের দাবিতে আইএইচটি’র ছাত্রীরা সকালে ১০টার দিকে প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষের সামনে অবস্থান নেয়। এক পর্যায়ে অধ্যক্ষের কক্ষে প্রবেশ করে তাকে অবরুদ্ধ করেন বিক্ষুব্ধ ছাত্রীরা। এ সময় ছাত্রলীগের একটি পক্ষ ছাত্রীদের পাশেই অবস্থান নেয়। পরে পুলিশ আন্দোলনরত ছাত্রীদের অধ্যক্ষের কক্ষ থেকে বের করে আনার সময় তাদের ওপর হামলা চালায় ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এতে অন্তত ১৫ ছাত্রী আহত হয়েছেন। তাদের রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করেছে কর্তৃপক্ষ। একইসঙ্গে দুপুর ৩টার মধ্যে হোস্টেল ত্যাগের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়ন রয়েছে।

রাজশাহী মহানগরীর রাজপাড়া থানার ওসি হাফিজুর রহমান জানান, পুলিশ ঘটনাস্থলে থাকায় পরিস্থিতি বেশি দূর গড়াতে পারেনি। পুলিশ দ্রুত পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে আইএইচটি ক্যাম্পাসে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে বলেও জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।

আইএইচটি’র অধ্যক্ষ সিরাজুল ইসলাম বলেন, ‘বিভিন্ন দাবি নিয়ে ছাত্রীরা আমার কাছে এসেছিলো। তবে অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে তাদের হোস্টেলের ভেতরে চলে যেতে বলা হয়। কিন্তু এখান থেকে বের হয়ে যাওয়ার পর তাদের ওপর হামলার ঘটনা ঘটে। এই ঘটনার জের ধরে ক্যাম্পাসে উত্তেজনা আরও বেড়ে যায়’। অধ্যক্ষ বলেন, এই ঘটনার পরে তাৎক্ষনিকভাবে অ্যাকাডেমিক কাউন্সিলের সভা ডাকা হয়। সভা শেষে রাজশাহী আইএইচটি অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা হয়। শিক্ষার্থীদের আজ বিকেল ৩টার মধ্যে হল ছাড়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে পরে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি খুলে দেওয়া হবে বলেও জানান অধ্যক্ষ ড. সিরাজুল ইসলাম।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: