১৫ ডিসেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৪ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

ভাঙ্গুড়ায় পিইসি কেন্দ্রে কোচিং সেন্টারগুলোর দৌড়ঝাঁপ


ভাঙ্গুড়ায় পিইসি কেন্দ্রে কোচিং সেন্টারগুলোর দৌড়ঝাঁপ

সংবাদদাতা, ভাঙ্গুড়া, পাবনা ॥ ভাঙ্গুড়ায় এবছর ২৩৯৬ জন ক্ষুদে শিক্ষার্থী উপজেলার ৯টি কেন্দ্রে পিইসি পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে। পরীক্ষায় উত্তীর্ণরা আগামী শিক্ষাবর্ষে বিভিন্ন বিদ্যালয়ে ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তি হবে। ভর্তির পরই অভিভাবকরা তাদের সন্তানদের পাঠাবে শহরের নামকরা কোচিং সেন্টার ও প্রাইভেট প্রতিষ্ঠানগুলোতে। তাই এসব শিক্ষার্থীদের নিজ প্রতিষ্ঠানে ভর্তি করাতে শহরের প্রায় ১ ডজন কোচিং সেন্টার পিইসি পরীক্ষা কেন্দ্রগুলোতে শুরু করেছে দৌড়ঝাঁপ।

আজ বৃহস্পতিবার ভাঙ্গুড়া ইউনিয়ন উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, পরীক্ষা কেন্দ্রের সামনে কোচিং সেন্টারগুলোর পরিচালকরা বিভিন্ন আকৃতির চটকদার বিলবোর্ড টাঙিয়ে অস্থায়ী ক্যাম্প বসিয়ে অভিভাবকদের প্রতিনিয়ত প্রভাবিত করার চেষ্টা করছেন। তাছাড়া কোচিং সেন্টারগুলোর কর্মরত শিক্ষকরাও সেখানে অবস্থান নিয়ে অভিভাবকদের নানা রকমের লোভনীয় প্রস্তাব দিয়ে তাদের সন্তানদের ভর্তি করতে উৎসাহিত করছেন।

কোচিং সেন্টারের পরিচালকরা বিভিন্ন এমপিও ভুক্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক হওয়ায় অভিভাবকরা অনেকটা বাধ্য হয়েই তাদের সন্তানকে ভর্তি করানোর ওয়াদা দিচ্ছেন। দেখা যায়, অভিজ্ঞ শিক্ষকরা তাদের পরিচালিত কোচিং সেন্টারে বেশি শিক্ষার্থী ভর্র্তি করাতে অভিভাবকদের প্রলুদ্ধ করে সফল হচ্ছেন। এসময় নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন অভিভাবক জানান, সরকার নিয়ন্ত্রিত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকরা ঠিকমত পড়ালেখা করায় না।

অথচ ওই শিক্ষকই কোচিং সেন্টারে গুরুত্বের সাথে শিক্ষার্থীদেরকে পড়ালেখা করায়। তাই বাধ্য হয়েই সন্তানদেরকে কোচিং সেন্টারে ভর্তি করাতে হয়। এ বিষয়ে উপজেলার প্রিজম কোচিং সেন্টারের পরিচালক রাসেল আহমেদের সাথে কথা বললে তিনি জানান, ভাল ফলাফলের জন্য অভিভাবকরা নিজেদের ইচ্ছাতেই তাদের সন্তানদের কোচিং সেন্টারে ভর্তি করেন। অন্য সব কিছু আমাদের আনুষ্ঠানিকতা মাত্র।

সর্বাধিক পঠিত:
পাতা থেকে: