১৪ ডিসেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৮ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

আদমজী ইপিজেডে পোশাক কারখানার অগ্নিকান্ড ॥ আতঙ্কে আহত ২৪


আদমজী ইপিজেডে পোশাক কারখানার অগ্নিকান্ড ॥ আতঙ্কে আহত ২৪

স্টাফ রিপোর্টার, নারায়ণগঞ্জ ॥ নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে আদমজী ইপিজেডের অনন্ত এ্যাপারেলস লিমিটেড নামে পোশাক তৈরি কারখানায় অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে। অগ্নিকান্ডের খবর পেয়ে হাজীগঞ্জ ও আদমজী ইপিজেডের ৪টি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। আগুনে তেমন কোন ক্ষয়ক্ষতি হয়নি বলে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা জানায়। তবে আগুন আতঙ্কে তাড়াহুড়ো করে সিঁড়ি দিয়ে নামতে গিয়ে কমপক্ষে ২৪ শ্রমিক আহত হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে রবিবার বেলা ২টায়।

ফায়ার সার্ভিস ও শ্রমিকরা জানায়, আদমজী ইপিজেডের অনন্ত এ্যাপারেলস লিমিটেড নামের পোশাক তৈরি কারখানার ৫ম তলা ভবনের ৩য় তলার স্টোর রুমে ওয়েল্ডিংয়ের কাজ করছিল। এ সময় ওয়েল্ডিং স্পার্ক (আগুন) কিছু পুরাতন পরিত্যক্ত মালামালের উপর গিয়ে পড়লে আগুন লেগে যায়। খবর পেয়ে হাজীগঞ্জ ও আদমজী ফায়ার সার্ভিসের ৪টি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এ সময় পুরো কারখানায় শ্রমিকদের মাঝে আগুন আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় তাড়াহুড়ো করে সিঁড়ি দিয়ে নামতে গিয়ে রুমি (২০), কনা (২৫), পপি (২২) ও সেলিনা (২৫) কমপক্ষে ২৪ জন শ্রমিক আহত হয়। আতদেরকে উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ ৩০০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

নারায়ণগঞ্জ ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্সের উপ-সহকারী পরিচালক মামুনুর রশিদ জানান, অনন্ত এ্যাপারেল লিঃ কারখানার স্টোর রুমে ওয়েল্ডিংয়ের কাজ করছিল। এ সময় ওয়েল্ডিং এর আগুন পুরনো পরিত্যক্ত মালামালের উপর গিয়ে পড়লে আগুন লেগে যায়। পরে ফায়ার সার্ভিসকে খবর দিয়ে হাজীগঞ্জ ও আদমজী ইপিজেড থেকে ৪টি ইউনিট ঘটনাস্থলে এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে আগুনের ঘটনাটি বড় নয়। আগুনে ৭-৮ হাজার টাকার মালামাল পুড়ে গেছে। তবে আগুন আতঙ্কে নামতে গিয়ে ১২-১৩ জন শ্রমিক আহত হয়েছে। এদেরকে নারায়ণগঞ্জ হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। তিনি আরও জানান, অনন্ত কারখানায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনার সময় একই স্থানে অবস্থিত রীমি হোল্ডিং লিঃ কারখানার স্পার্কের সৃষ্টি হয়। এ সময়ও আগুন আতঙ্কে নামতে গিয়ে কয়েকজন শ্রমিক আহত হয়েছে।

শিল্পাঞ্চল পুলিশ-৪, নারায়ণগঞ্জ এর সহকারী পুলিশ সুপার মতিউর রহমান জানান, অনন্ত এ্যাপারেলস কারখানার আগুন তেমন বড় নয়। তবে তাড়াহুড়ো করে সিঁড়ি দিয়ে নামতে গিয়ে ২০-২১ জনের মতো আহত হয়েছে। আহতদেরকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: