১৩ ডিসেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

ময়মনসিংহ মহানগর যুবলীগ নেতা রাসেল পাঠানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন


ময়মনসিংহ মহানগর যুবলীগ নেতা রাসেল পাঠানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন

স্টাফ রিপোর্টার,ময়মনসিংহ। ময়মনসিংহ মহানগর যুবলীগের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক ও সরকারী টিটার্স ট্রেনিং কলেজ ছাত্র সংসদের ভিপি রাসেল পাঠান ও মহানগর যুবলীগ সদস্য রাজীব খানসহ যুবলীগের অন্যান্য নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে মিথ্যা ও ষড়যন্ত্রমূলক প্রত্যাহার দাবি করেছে ময়মনসিংহ জেলা যুবলীগের নেতা কর্মী ও সমর্থকরা। বুধবার দুপুরে ময়মনসিংহ প্রেসক্লাব মিলনায়তনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এই দাবি জানায় যুবলীগ নেতৃবৃন্দ।

সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, গত ৩১ অক্টোবর,২০১৭ইং ময়মনসিংহ শহরের জয়নুল আবেদিন পার্কের একটি রেঁস্তোরার পাশে ময়মনসিংহ মহানগর স্বেচ্চা সেবক লীগের যুগ্ম আহবায়ক শেখ শাহ আলম মাসুম সন্ত্রাসী হামলার শিকার হয়। এই ঘটনায় রাসেল পাঠানসহ ২০ জনকে আসামী করে কোতোয়ালি থানায় মামলা হয়েছে। জেলা যুবলীগ এই হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে হামলাকারীদের তদন্তপূর্বক অবিলম্বে গ্রেফতারসহ বিচারের দাবি জানায় সংবাদ সম্মেলনে।

সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ করে বলা হয়, মাসুমের ওপর হামলার ঘটনাটিকে ভিন্নখাতে প্রবাহিত করতে ময়মনসিংহ মহানগর যুবলীগের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক ও সরকারী টিটার্স ট্রেনিং কলেজ ছাত্র সংসদের ভিপি রাসেল পাঠান ও মহানগর যুবলীগ সদস্য রাজীব খানসহ যুবলীগের অন্যান্য নেতৃবৃন্দকে ষড়যন্ত্রমূলকভাবে এই মিথ্যা মামলায় আসামী করা হয়েছে। অথচ রাসেল পাঠান এই ঘটনার সাথে কোনভাবেই সম্পৃক্ত নয়। ঘটনার সময় রাসেল পাঠান বাসায় ছিলেন। মাসুমকে ফোন করে ডেকে আনার যে তথ্য প্রচার করা হচ্ছে সেটিও সত্য নয়, তদন্ত কর্মকর্তারা মোবাইল ফোনের কল লিষ্ট যাচাই করলেই তার প্রমাণ মিলবে বলে দাবি করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন ময়মনসিংহ জেলা যুবলীগের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক শাহরিয়ার মো. রাহাত খান। এসময় রেজাউল হাসান বাবু, আবুল খায়ের চৌধুরী, গৌতম এষ, বিপ্লব রহমান জুয়েল, আসাদুজ্জামান রানা, শাহ আলমগীর জয়, এ্যাডভোকেট আরিফ মো আসাদুল্লাহ ও সেলিমসহ আওয়ামীলীগ যুবলীগের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: