১৪ ডিসেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

২৪ ঘণ্টার মধ্যে লেকহেড গ্রামার স্কুল খুলে দিতে হবে ॥ হাইকোর্ট


২৪ ঘণ্টার মধ্যে লেকহেড গ্রামার স্কুল খুলে দিতে হবে ॥ হাইকোর্ট

স্টাফ রিপোর্টার ॥ জঙ্গীবাদে জড়িত থাকার অভিযোগে লেকহেড গ্রামার স্কুলের গুলশান ও ধানমণ্ডি শাখা ২৪ ঘণ্টার মধ্যে খুলে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

বিচারপতি সৈয়দ মোহাম্মদ দস্তগীর হোসেন ও বিচারপতি মো. আতাউর রহমান খান সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ মঙ্গলবার এ আদেশ দেন।

এর আগে স্কুল বন্ধে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের আদেশের বৈধতাকে চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টের দেওয়া রুলের শুনানি সোমবার শেষ হয়।

আদালতে রিট আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী এএফ হাসান আরিফ, ব্যারিস্টার আখতার ইমাম ও রাশনা ইমাম। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম ও ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অমিত তালুকদার।

শুনানিতে রাষ্ট্রপক্ষে লেকহেড গ্রামার স্কুল বন্ধের বিষয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পর্যবেক্ষণ প্রতিবেদন আদালতে উপস্থাপন করা হয়। পরে প্রতিবেদন ও রুলের বিষয়ে উভয়পক্ষের শুনানি শেষে রায়ের দিন ধার্য করেন হাইকোর্ট।

গত ৬ নভেম্বর গুলশান ও ধানমণ্ডির দুটি শাখাসহ লেকহেড স্কুলের সব শিক্ষা কার্যক্রম বন্ধের নির্দেশ দেয় শিক্ষা মন্ত্রণালয়। মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম-সচিব সালমা জাহান স্বাক্ষরিত এক চিঠির মাধ্যমে ঢাকা জেলা প্রশাসককে এই নির্দেশ দেওয়া হয়।

এতে বলা হয়েছে, সরকারের অনুমোদন না নেওয়া প্রতিষ্ঠানটি ধর্মীয় উগ্রবাদ, উগ্রবাদী সংগঠন সৃষ্টি, জঙ্গি কার্যক্রমের পৃষ্ঠপোষকতাসহ স্বাধীনতার চেতনাবিরোধী কর্মকাণ্ডে যুক্ত।

এর পর গত ৯ নভেম্বর ওই স্কুল বন্ধের নোটিশের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে স্কুলের মালিক খালেদ হাসান মতিন ও শিক্ষার্থীর অভিভাবকের পক্ষে তিনটি পৃথক রিট দায়ের করা হয়। পরে ওই রিটে লেকহেড গ্রামার স্কুলের গুলশান ও ধানমণ্ডি শাখা বন্ধে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের আদেশের বৈধতা প্রশ্নে পৃথক রুল জারি করেন হাইকোর্ট। এরই ধারাবাহিকতায় শুনানি শেষে আজ রায় দেন হাইকোর্ট।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: