২৪ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

শেখ হাসিনা হৃদয়হীনা নন ॥ মোস্তাফিজুর


শেখ হাসিনা হৃদয়হীনা নন ॥ মোস্তাফিজুর

স্টাফ রিপোর্টার, গাজীপুর ॥ প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান বলেছেন, শেখ হাসিনা হৃদয়হীনা নন। রোহিঙ্গাদের দেশে আশ্রয় দিয়ে প্রধানমন্ত্রী সারা দুনিয়ার কাছে যে সমবেদনার অবস্থার সৃষ্টি করেছেন, এরপরও কি বলবেন শেখ হাসিনা হৃদয়হীনা।

গাজীপুরের জয়দেবপুরে শনিবার দুপুরে পিটিআই’তে শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার অডিটোরিয়াম এর উদ্বোধন ও বার্ষিক সাংস্কৃতি প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি বক্তব্যে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী অ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান এমপি এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রীর দক্ষতায় শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কৃষি, শিল্প, বিনোয়গ, রেমিটেন্স বৃদ্ধিসহ সকল বিষয়ে দেশ এগিয়ে গেছে। একজন বঙ্গবন্ধুর জন্ম হয়েছিল বলে আমরা বাংলাদেশ পেয়েছি। একজন শেখ হাসিনা না হলে বঙ্গবন্ধুর হত্যার বিচার হতো না, স্বপ্নের পদ্মা সেতু হতো না। আজকের বাংলাদেশের ধারাবাহিক সরকারের নমুনা এইভাবে দেখাতে পারতো না।

পিতার হত্যাকা- নিয়ে অনেক কেঁদেছিলেন তিনি। তারপরও তিনি হাল ছেড়ে দেননি। নিজের জীবনের মায়া করেননি। তিনি আরও বলেন, এখনও নাগিনীরা বিষাক্ত নিঃশ্বাস ফেলছে। কখন কি হয়, এরমধ্যে দিয়েও আমাদের প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা মাথা ঠান্ডা রেখে আজকের এ দেশটি চালাচ্ছেন।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি মো: জাহিদ আহসান রাসেল এমপি। গাজীপুরে নবনির্মিত অডিটোরিয়ামে পিটিআই সুপারিনটেনডেন্ট (অ.দা.) মোঃ হাসানারুল ফেরদৌস এর সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে আরও বক্তব্য রাখেন গাজীপুরের জেলা প্রশাসক ড. দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ূন কবীর, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাসেল শেখ, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা অধিদপ্তর এর ঢাকা বিভাগীয় পরিচালক ইন্দ্র ভূষণ দেব, গাজীপুর এলজিইডি’র নির্বাহী প্রকৌশলী ইঞ্জি: মো: আমিরুল ইমলাম, আওয়ামীলীগ নেতা অ্যাডভোকেট ওয়াজ উদ্দিন মিয়া, মোঃ আতাউল্লাহ মন্ডল, অ্যাডভোকেট আব্দুল হাদী শামীম।

উল্লেখ্য, ২০১৩ সালের ১৮ আগস্ট গাজীপুরের পিটিআইতে অডিটোরিয়াম ভবনটির ভিত্তিপস্তর স্থাপন করেন তৎকালিন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী ডা. মো: আফছারুল আমীন। এলজিইডি’র তত্ত্বাবধায়নে ১১কোটি ২২লাখ ৮৮হাজার ৯শ ৮২টাকা ব্যয়ে অত্যাধুনিক এ ভবনটি নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হয়।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: