১৮ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৩ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

গণঅভ্যুত্থান করবে সেই শক্তি বিএনপির নেই ॥ তোফায়েল


নিজস্ব সংবাদদাতা, ভোলা, ১০ নবেম্বর ॥ বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, বিএনপি অনেক বড় বড় কথা বলতে চায়। তারা গনঅভ্যুত্থান করবে সেই শক্তি তাদের নেই। ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি নির্বাচন না করে বিএনপি ভুল করেছে আজ তারা স্বীকার করে। আগামী ২০১৯ সালের ২৯ জানুয়ারির আগের ৯০ দিনের মধ্যে যে কোন দিন নির্বাচন হবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকারের অধীনে। সেই নির্বাচন পরিচালনা করবে নির্বাচন কমিশন। তিনি আরও বলেন, ২০০১ সালের মতো নির্বাচন বাংলাদেশে আর হবে না। বাংলাদেশের নির্বাচন হবে অবাধ ও নিরপেক্ষ। সেই নির্বাচনে বিএনপি অবশ্যই অংশগ্রহণ করবে। যদি না করে তাহলে তাদের অবস্থা হবে করুণ। শুক্রবার সন্ধ্যার আগে ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাণিজ্যমন্ত্রী এসব কথা বলেন। বোরহানউদ্দিন সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত জনসভায় হাজার হাজার নেতাকর্মী অংশ নিতে দুপুর থেকে উপজেলার সব ইউনিয়ন থেকে মিছিলে মিছিলে বোরহানউদ্দিন বাজারে এলে এক ধরনের উৎসবমুখর পরিবেশ সৃষ্টি হয়। বোরহানউদ্দিন সরকারী স্কুল মাঠে তিলধারণের জায়গা না থাকায় রাস্তায় গিয়ে নেতাকর্মীরা বাণিজ্যমন্ত্রীর বক্তব্য শোনার জন্য দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করেন।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ভোলায় গ্যাস পাওয়ার মধ্য দিয়ে বাংলাদেশের মধ্যে নতুন দিগন্ত উন্মোচিত হলো। ভোলা গ্যাসের ওপর ভাসছে। বোরহানউদ্দিনে ৭০০ বিলিয়ন টিউবিক ফুট গ্যাস পেয়েছি। ভোলা সদরের ভেদুরিয়াতে আরও একটি গ্যাসকূপ খনন করা হবে। ভোলার বোরহানউদ্দিন পৌরবাসীর ঘরে ঘরে গ্যাস সংযোগ দেয়া হবে। প্রধানমন্ত্রীকে গ্যাস দেয়ার জন্য অনুরোধ করবেন বলেও মন্ত্রী উল্লেখ করেন। বোরহানউদ্দিনে ইতোমধ্যে ২২৫ মেগাওয়াট বিদ্যুত প্লান্ট স্থাপন করা হয়েছে। আরও ২২৫ মেগাওয়াট স্থাপন করা হবে। আরও অনেক পাওয়ার প্লান্ট হবে। মন্ত্রী বলেন, ভোলা বাংলাদেশের মধ্যে সবচেয়ে সমৃদ্ধ জেলা। ভোলায় বিপুল পরিমাণ গ্যাসসম্পদ রয়েছে। এ গ্যাস ব্যবহার করে এখানে প্রচুর শিল্পকারখানা গড়ে উঠবে। ভোলা হবে সিঙ্গাপুর। বাংলাদেশের মধ্যে উন্নত একটি জেলা। মন্ত্রী আওয়ামী লীগ সরকারের বিভিন্ন উন্নয়নের চিত্র তুলে ধরে আরও বলেন, আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এলেই দেশের উন্নয়ন হয়। বিএনপির আমলে কোন উন্নয়ন হয়নি। ভোলায় বিএনপির আমলে মেজর হাফিজ, মোশারেফ হোসেন শাজাহান পানিসম্পদমন্ত্রী ছিলেন। কিন্তু নদী ভাঙ্গন রোধে ব্লকের কাজ হয়নি। বোরহানউদ্দিনে ৫৫১ কোটি টাকা ব্যয়ে ব্লক নির্মাণের কাজ হচ্ছে। ভোলায় জেলায় প্রধানমন্ত্রী ১৬শ’ কোটি টাকা নদী ভাঙ্গন রোধে বরাদ্দ দিয়েছেন। তোফায়েল আহমেদ আরও বলেন, বোরহানউদ্দিনে এমপি আলী আজম মুকুলের বিকল্প কেউ নেই। প্রধানমন্ত্রী মুকুলকে স্নেহ করেন। আওয়ামী লীগ কোন ভাড়াটিয়াকে বাংলাদেশের কোন আসনে মনোনয়ন দেবে না। ভোলার বোরহানউদ্দিন আওয়ামী লীগের সভাপতি জসিম উদ্দিন হায়দারের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ভোলা-২ (বোরহানউদ্দিন-দৌলতখান) আসনের সংসদ সদস্য আলী আজম মুকুল।

অন্যন্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেনÑ ভোলা জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবদুল মমিন টুলু, বোরহানউদ্দিন পৌর মেয়র মোঃ রফিকুল ইসলাম, বোরহানউদ্দিন আবদুল জব্বার কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ এসএম গজনবী প্রমুখ।

এর আগে সকালে ভোলা সদর উপজেলার ভেলুমিয়া ইউনিয়নের কুলগাজী এলাকায় পল্লী বিদ্যুতের নতুন ছয় কিলোমিটার সংযোগ লাইনের উদ্বোধন করেন বাণিজ্যমন্ত্রী। ওই উদ্বোধনী সমাবেশে মন্ত্রী বলেন, বিএনপি অনেকবার ক্ষমতায় ছিল কিন্তু একবারও দেশের মানুষের জন্য কিছু করেনি। আওয়ামী লীগ সকারের অধীনে দেশ এগিয়ে চলেছে, দেশ এখন অর্থনৈতিকভাবে অনেক মজবুত। প্রধানমন্ত্রী গ্রামকে শহরে পরিণত করেছেন। ২০২৪ সালের মধ্যে ঘরে ঘরে শতভাব বিদ্যুত পৌঁছে দেয়া হবে। ২০২১ সালে দেশে ২৪ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুত উৎপাদন হবে।

আগামী দিনগুলোতেও দেশের সার্বিক উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে শেখ হাসিনাকে জয়যুক্ত করার জন্য দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানিয়ে বণিজ্যমন্ত্রী আরও বলেন, ২০১৯ সালের ২৯ জানুয়ারির আগের ৯০ দিনের মধ্যে যে কোন দিন জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। সেই নির্বাচন হবে অবাধ ও সুষ্ঠু। আর সেই নির্বাচনে আবারও জনগণ আওয়ামী লীগকে অবশ্যই নির্বাচিত করবে।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: