১৮ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

পুঁজিবাজারে সূচক ও লেনদেনে অগ্রগতি


পুঁজিবাজারে সূচক ও লেনদেনে অগ্রগতি

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) বুধবার মূল্য সূচকের উত্থানে লেনদেন শেষ হয়েছে। ডিএসইতে আগের দিনের তুলনায় লেনদেনেও উন্নতি হয়েছে। অপর বাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সূচক বাড়লেও লেনদেন কমেছে।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা যায়, বুধবার ডিএসইতে ৭৬৫ কোটি ৬০ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। যা আগের দিনের তুলনায় ২১ কোটি ৯ লাখ টাকা বেশি। আগের দিন এ বাজারে ৭৪৪ কোটি ৫০ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছিল।

ডিএসইতে মোট লেনদেনে অংশ নেয় ৩৩১টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ড। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১১৭টির, কমেছে ১৬৩টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫১টির শেয়ার দর।

সকালে ইতিবাচক প্রবণতা দিয়ে শুরুর পর ডিএসইএক্স বা প্রধান মূল্য সূচক ২৯ পয়েন্ট বেড়ে ৬ হাজার ১৫৯ পয়েন্টে অবস্থান করছে। ডিএসইএস বা শরীয়াহ সূচক ৮ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে এক হাজার ৩৩৬ পয়েন্টে। আর ডিএস৩০ সূচক ১৯ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ২ হাজার ২২৯ পয়েন্টে।

ডিএসইর লেনদেনের সেরা কোম্পানিগুলো হলো : সিটি ব্যাংক, গ্রামীন ফোন, ঢাকা ব্যাংক, উত্তরা ব্যাংক, ওয়াইম্যাক্স ইলেক্ট্রোড, ইউসিবি, এ´িম ব্যাংক, শাহজালাল ইসলামী ব্যাংক, বিবিএস কেবল ও লঙ্কাবাংলা ফাইনান্স।

দরবৃদ্ধির সেরা কোম্পানিগুলো হলো : মুন্নু সিরামিক, রেকিট বেনকিসার, ইস্টার্ন লুব্রিক্যান্ট, স্টাইল ক্রাফট, ন্যাশনাল টিউব, বে´িমকো ফার্মা, জেমিনি সী ফুড, ঢাকা ব্যাংক, ফার্মা এইড ও ফু-ওয়াং ফুড।

দর হারানোর সেরা কোম্পানিগুলো হলো : ম্যাকসন্স স্পিনিং, জুটস স্পিনার্স, ওয়াইম্যাক্স ইলেক্ট্রোড, ডেফোডিল কম্পিউটার, শ্যামপুর সুগার, আরএসআরএম স্টিল, প্রাইম টেক্স, মেট্রো স্পিনিং, ডেসকো ও ড্রাগন সোয়েটার।

অন্যদিকে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) ৪০ কোটি ১৪ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। সিএসইর সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ৭৭ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১৯ হাজার ১০১ পয়েন্টে। সিএসইতে মোট লেনদেন হয়েছে ২৩৭টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ড। এর মধ্যে দর বেড়েছে ৯২টির, কমেছে ১১৭টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২৮টি কোম্পানির শেয়ার।

সিএসইতে লেনদেনের সেরা কোম্পানিগুলো হলো : ওয়াইম্যাক্স ইলেক্ট্রোড, সিটি ব্যাংক, ফু-ওয়াং ফুড, ঢাকা ব্যাংক, আইএফআইসি, উত্তরা ব্যাংক, ন্যাশনাল ব্যাংক ও লঙ্কাবাংলা ফাইনান্স।