২৪ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৪ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

৩ নম্বর সতর্ক সংকেত বহাল, জলোচ্ছ্বাস হতে পারে


৩ নম্বর সতর্ক সংকেত বহাল, জলোচ্ছ্বাস হতে পারে

অনলাইন রিপোর্টার ॥ বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট নিন্মচাপটি উত্তর ও উত্তর পূর্ব দিকে অগ্রসর হচ্ছে। যার ফলে রবিবারে আগে বৃষ্টিপাত কমার কোনো সম্ভাবনা নেই। শনিবার দিনভর একই ধারায় চলবে বর্ষণ। প্রকৃতির এ খেয়ালে সাগর উত্তাল থাকায় এখনও তিন (০৩) নম্বর সতর্কতা সংকেত বলবৎ রয়েছে। এছাড়া উপকূলীয় এলাকায় জলোচ্ছ্বাসের শঙ্কাও দেখছে আবহাওয়া অফিস।

আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, এ সময়ের মধ্যে গত দুইদিনের মতো দেশের কোথাও কোথাও ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টিপাতও হবে। শনিবার সকালে আবহাওয়া অধিদফতরের ঝড় সতর্কীকরণ কেন্দ্রের এক বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা বলা হয়।

এতে বলা হয়, গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ এবং তৎসংলগ্ন বাংলাদেশের দক্ষিণপশ্চিমাঞ্চল ও উড়িষ্যা এলাকায় অবস্থানরত স্থল নিম্নচাপটি উত্তর-উত্তরপূর্ব দিকে অগ্রসর হয়ে শনিবার সকাল ৯ টায় পশ্চিমবঙ্গ-বাংলাদেশের পশ্চিমাঞ্চল এলাকায়

অবস্থান করছিল (২৩ দশমিক ৮ ডিগ্রি উত্তর অক্ষাংশ এবং ৮৮ দশমিক ৫ ডিগ্রি পূর্ব দ্রাঘিমাংশ)। এটি আরও উত্তর/উত্তরপূর্ব দিকে অগ্রসর হয়ে ক্রমান্বয়ে দুর্বল হয়ে যেতে পারে বলে বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়। নিম্নচাপের প্রভাবে উত্তর বঙ্গোপসাগর এলাকায় বায়ু চাপের তারতম্যের আধিক্য বিরাজ করছে এবং গভীর সঞ্চালণশীল মেঘমালা তৈরি অব্যাহত রয়েছে।

ঝড় সতর্কীকরণ কেন্দ্র জানায়, নিম্নচাপের প্রভাবে উপকূলীয় জেলা কক্সবাজার, চট্টগ্রাম, নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর, ফেনী, চাঁদপুর, ভোলা, বরিশাল, পটুয়াখালী, বরগুনা, ঝালকাঠী, পিরোজপুর, খুলনা, বাগেরহাট, সাতক্ষীরা এবং তাদের অদূরবর্তী দ্বীপ ও চরসমূহের নিম্নাঞ্চল স্বাভাবিক জোয়ারের চেয়ে ১-২ ফুট অধিক উচ্চতার বায়ু তাড়িত জলোচ্ছ্বাসে প্লাবিত হতে পারে।

উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত সব মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত নিরাপদ আশ্রয়ে থাকতে বলেছে সতর্কীকরণ কেন্দ্র।

এদিকে টানা বর্ষণের কারণে এরইমধ্যে সারাদেশেই জনজীবনে ভোগান্তি নেমে এসেছে। ব্যাঘাত ঘটছে স্বাভাবিক জীবনযাত্রায়।

সর্বাধিক পঠিত:
পাতা থেকে: