১৯ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৩ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

২০২১ সাল নয়, ২০১৮ সালকেই গুরুত্ব দিতে হবে ॥ মির্জা আজম


২০২১ সাল নয়, ২০১৮ সালকেই গুরুত্ব দিতে হবে ॥ মির্জা আজম

নিজস্ব সংবাদদাতা, জামালপুর ॥ বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম বলেছেন, আমাদের নেতা-কর্মীদের এখন শুধু ভিশন টোয়েন্টি টোয়েন্টি ওয়ানের কথা চিন্তা করলে হবে না। সামনে জাতীয় সংসদ নির্বাচন। তাই ২০১৮ সালকেই বেশি গুরুত্ব দিতে হবে। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ একটি ঐতিহাসিক রাজনৈতিক সংগঠন। আর আওয়ামী লীগের আরেকটি বিরোধী সংগঠন আছে। তারা সব সময় আওয়ামী লীগের সমালোচনা করে থাকেন। তারা ক্ষমতায় আসলে আওয়ামী লীগের অস্তিত্ব রাখবে না। বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম শুক্রবার রাত আটটায় জামালপুরে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রাথমিক সদস্যপদ গ্রহণ ও সদস্যপদ নবায়ন কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে শহরের বকুলতলায় জেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে পৌর শাখা আওয়ামী লীগ এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। দেশ পরিচালনায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাফল্য উল্লেখ করে প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এখন সারা বিশ্বের মানুষের কাছে শান্তি ও উন্নয়নের রোল মডেল হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছেন। তিনি বিদেশ থেকে ‘মাদার অব হিউমেনিটি’সহ বিভিন্ন সম্মানে ভূষিত হয়েছেন। তিনি আজ শুধু বাংলাদেশরই নেত্রী নন, তিনি আজ সারা বিশ্বের নেত্রী। বাংলাদেশের উন্নয়নের অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বের প্রতি আস্থা রেখে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে সক্রিয়ভাবে কাজ করে যেতে হবে। প্রতিমন্ত্রী বলেন, মাদকাসক্ত ও মাদকব্যবসায়ীরা যাতে দলে ভিড়তে না পারে সেই দিকে সজাগ থাকতে হবে। তিনি দলীয় নেতা-কর্মীদের প্রাথমিক সদস্যপদ গ্রহণ ও সদস্যপদ নবায়ন কার্যক্রম সফল করে রাজনীতিতে মনোযোগী হওয়ার জন্য প্রতিটি নেতা-কর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান। জামালপুর পৌর শাখা আওয়ামী লীগের সভাপতি মাসুম রেজা রহিমের সভাপতিত্বে এ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ভূমি মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী পরিষদের সভাপতি মো: রেজাউল করিম হীরা, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আইনজীবী মুহাম্মদ বাকী বিল্লাহ ও সাধারণ সম্পাদক ফারুক আহাম্মেদ চৌধুরী, জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি সৈয়দ আতিকুর ছানা, সহসভাপতি ও জামালপুর পৌরভার মেয়র মির্জা সাখাওয়াতুল আলম মনি ও জি এসএম মিজানুর রহমান প্রমুখ। অনুষ্ঠানে বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম ৫ হাজার টাকা দিয়ে সদস্য ফরম সংগ্রহ করেন। এ ছাড়া সংসদ সদস্য মো: রেজাউল করিম হীরা, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আইনজীবী মুহাম্মদ বাকী বিল্লাহ ও সাধারণ সম্পাদক ফারুক আহাম্মেদ চৌধুরীসহ নেতাকর্মীরা তাদের সদস্য ফরম সংগ্রহ করেন। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন জামালপুর পৌরশাখা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বিজন কুমার চন্দ।

সর্বাধিক পঠিত:
পাতা থেকে: