১৯ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

‘স্টোকসের প্রেরণা হতে পারেন ওয়ার্নার’


‘স্টোকসের প্রেরণা হতে পারেন ওয়ার্নার’

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বিশ্ব ক্রিকেটে মাঝে মধ্যেই এমন সব ক্রিকেটার দেখা যায় আর সব ছাপিয়ে যাদের আচরণটাই হয়ে ওঠে আলোচিত। বদমেজাজ আর অসদাচরণের কাছে তাদের বিরল প্রতিভাও হার মানে। বেন স্টোকস যেন সেই জাতের ক্রিকেটার। অসারধারণ প্রতিভাবান হয়েও যিনি মাঠের বাইরের অনাকাক্সিক্ষত ঘটনার জন্যই বেশি আলোচিত। ব্রিস্টলে পানশালার বাইরে একজনকে মারধর করে ঐতিহ্যের এ্যাশেজ সিরিজের প্রথম টেস্ট থেকে বাদ পড়েছেন ইংলিশ অলরাউন্ডার। কোটি টাকার স্পন্সর তাকে ছেড়ে যাচ্ছে। কার্যত ক্যারিয়ার-সংশয়ে থাকা স্টোকস নিজেকে শোধরানোর জন্য ডেভিড ওয়ার্নারের জীবন থেকে শিক্ষা নিতে পারেন বলে মনে করছেন সাবেক অস্ট্রেলীয় পেসার রায়ান হ্যারিস। অসি ওপেনারও এক সময় বাজে আচরণের জন্য ধিকৃত ছিলেন। শুধরে নিয়ে, নিজের ওপর নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা করে এখন তিনি অন্যতম সফলই ব্যাটসম্যানই কেবল নন, অস্ট্রেলিয়ার মতো দলের সহ-অধিনায়কও।

হ্যারিস বলেন, ‘পরের প্রজন্মের ক্রিকেটার হওয়ায় স্টোকস সম্পর্কে খুব একটা ভালভাবে জানি না। কয়েকবার স্বল্প সময়ের জন্য তার সঙ্গে দেখা হয়েছে। কিন্তু আমি মনে করি নিজের ভুল থেকে শিক্ষা নিতে ডেভিড ওয়ার্নার তারজন্য একটা শিক্ষণীয় উদাহরণ হতে পারে। সে (ওয়ার্নার) আমোদ ফুর্তি ও বিয়ার পছন্দ করতো কিন্তু সমালোচিত হওয়ার পর এখন সে নিজেকে আমূল বদলে ফেলেছে। একজন ভাল জীবনসঙ্গী পেয়েছে এবং তাদের সন্তান আছে, এটাই জীবন। একটা সুন্দর সংসার, ব্যক্তিজীবন একজন মানুষকে সত্যিকারের মানুষে পরিণত করতে পারে। অতীতে অনেক ক্রিকেটার নিজের ওপর নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ক্যারিয়ার ধ্বংস করেছে। কিন্তু ওয়ার্নার ফিরে এসেছে।’ স্থানীয় সংবাদ মাধ্যমকে তিনি আরও বলেন, ‘স্টোকস অবশ্যই একটা বড় ভুল করেছে এবং বয়সের কারণে এমন কিছু ঘটে যায়। ভুল করার পর সম্মান ফিরে পেতে আপনাকে কঠোর পরিশ্রম করতে হবে। আশা করছি বেন স্টোকসের জন্য পরিকল্পনাগুলো যদি সঠিকভাবে এগোয় এই ঘটনাটি ভবিষ্যতে সবাই ভুলে যাবে, অন্যথায় এটি বেশিরভাগ মানুষকে মনে করিয়ে দেবে।’

উল্লেখ্য, ২০১৩ এ্যাশেজ সিরিজে বার্হিংহামে বর্তমান ইংল্যান্ড অধিনায়ক জো রুটকে ঘুষি মেরে বিতর্কের জন্ম দিয়েছিলেন ওয়ার্নার। সেখান থেকেই শিক্ষা নিয়েছেন অসি ভাইস-ক্যাপ্টেন। এরপর থেকে মদ্যপানে নিজেকে নিয়ন্ত্রণ করেছেন। এটি যে তার ক্যারিয়ারের টার্নিং পয়েন্ট ছিল সেটিও প্রকাশ করেছেন এই মারকুটে ওপেনার। এবার ইংল্যান্ড টেস্ট দল যখন তাকে ছাড়াই এ্যাশেজ খেলতে অস্ট্রেলিয়ার উদ্দেশে পাড়ি জমাচ্ছে, বিষন্নতা কাটিয়ে উঠতে স্টোকস তখন বিয়ের পিঁড়িতে বসেছেন। ক’দিন আগেই দীর্ঘদিনের প্রেমিকা ক্লারা র‌্যাটক্লিফের সঙ্গে গাঁটছড়া বেঁধেছেন আলোচিত-সমালোচিত এ ক্রিকেটার। বেশ কয়েক বছর আগে থেকেই দু’জনের সখ্যতা। পরিচয় থেকে প্রেম এবং সে প্রেম শেষ পর্যন্ত রূপ নেয় পরিণয়ে। তাদের দুই সন্তানও আছে। হ্যারিস সেদিকে ইঙ্গিত করেই এমন মন্তব্য করেন। ব্যক্তি জীবনে বাজে আচরণের কারণে এর আগে তুখোড় এ্যান্ড্রু সাইমন্ডস, নিউজিল্যান্ডের জেসি রাইডার্স, ভারতের শান্তকুমারন শ্রীশান্থসহ বিশ্বের অনেক ক্রিকেটারের ক্যারিয়ার অকালে শেষ হয়ে গেছে।

ভুল থেকে শিক্ষা নিতে বেন স্টোকসের ওয়ার্নারকে অনুকরণ করা উচিত বলেই মনে করেন অস্ট্রেলিয়ার সাবেক তারকা পেসার হ্যারিস।

সর্বাধিক পঠিত:
পাতা থেকে: