১৭ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

কাতারে সাইবার হামলায় আমিরাত জড়িত


কাতারে সাইবার হামলায় আমিরাত জড়িত

অনলাইন ডেস্ক ॥ কাতারের রাষ্ট্রীয় সংবাদ মাধ্যম এবং সরকারের সামাজিক যোগাযোগ ওয়েবসাইটে সাইবার হামলার সঙ্গে জড়িত ছিল সংযুক্ত আরব আমিরাত বা ইউএই । মার্কিন গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে এ খবর দিয়েছে রবিবারের দৈনিক ওয়াশিংটন পোস্ট।

মে মাসের শেষের থেকে চালানো সাইবার হামলা বা হ্যাকের ঘটনাকে কেন্দ্র করে সৌদি নেতৃত্বাধীন চার আরব দেশের সঙ্গে কাতারের কূটনৈতিক বিরোধের সূচনা হয়। ওয়াশিংটন পোস্টের খবরে বলা হয়েছে, নতুন করে তথ্য-প্রমাণ বিশ্লেষণের ভিত্তিতে কাতারে চালানো সাইবার হামলার সঙ্গে ইউইএ’র জড়িত থাকার বিষয়ে নিশ্চিত হয়েছেন মার্কিন গোয়েন্দা কর্মকর্তারা। গত সপ্তাহে এ বিষয়ে তারা নিশ্চিত হয়েছেন বলে জানিয়েছে দৈনিকটি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক মার্কিন গোয়েন্দা সম্প্রদায়ের বরাত দিয়ে এটি জানিয়েছে মার্কিন দৈনিক ওয়াশিংটন পোস্ট। অবশ্য আমেরিকায় নিযুক্ত সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাষ্ট্রদূত ইউসুফ আল-ওতিবা এ অভিযোগ নাকচ করে দিয়েছেন। এক বিবৃতিতে একে ‘মিথ্যা’ বলেও দাবি করেন তিনি।

সাইবার হামলার মাধ্যমে ইরান, ইহুদিবাদী ইসরাইল এবং আমেরিকাসহ স্পর্শকাতার বিষয়ে কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আলে সানির নামে বক্তব্য প্রকাশ করা হয়। ২৪ মে প্রকাশিত তার এ কথিত বক্তব্য তাৎক্ষণিক ভাবে পারস্য উপসাগরের কোনো কোনো দেশে তীব্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি করে। এরপরই তড়িঘড়ি কাতারের সংবাদ মাধ্যমের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে সৌদি আরব, ইউএই, বাহরাইন এবং মিশর।

পাশাপাশি সৌদির প্রতি দ্রুত সমর্থন ব্যক্ত করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি দাবি করেন, দুর্ভাগ্যজনক ভাবে কাতার ব্যাপক ভাবে সন্ত্রাসীদের তহবিলের যোগান দিচ্ছে। এর কিছুদিন আগেই সৌদি আরবের কাছে শত শত কোটি ডলারের অস্ত্র বিক্রির চুক্তি করেছে আমেরিকা। অবশ্য মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসন সব পক্ষকে ধৈর্য ধরার আহ্বান জানিয়েছিলেন।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: