২২ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

আশুলিয়ায় গার্মেন্টস শ্রমিকদের ওপর গুলি, শতাধিক আহত


নিজস্ব সংবাদদাতা, সাভার, ৪ জুলাই ॥ ঈদকে সামনে রেখে শতাধিক শ্রমিককে ছাঁটাইয়ের পরিকল্পনা আর বকেয়া বেতন না দেয়ায় সোমবার আশুলিয়ার টঙ্গাবাড়ী এলাকায় একটি তৈরি পোশাক কারখানায় বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা। এ সময় মালিকপক্ষের ২০/২৫ সন্ত্রাসী কারখানায় প্রবেশ করে শ্রমিকদের ওপর এলোপাতাড়ি গুলি ছোড়ে। এতে কয়েক শ্রমিক গুলিবিদ্ধ হয়। এ ঘটনায় ওই কারখানার ভুক্তভোগী শ্রমিকরা মালিককে গ্রেফতারের দাবিতে বাইপাইল-আব্দুল্লাহপুর মহাসড়কের টঙ্গাবাড়ী স্থানে প্রায় আধা ঘণ্টা সড়ক অবরোধ করে রাখে।

শাহিন, রফিক, কবির, সেলিনাসহ অন্য শ্রমিকদের অভিযোগ, আশুলিয়ার টঙ্গাবাড়ী এলাকায় ‘গ্রীন লাইফ কম্পোজিট’ নামক পোশাক কারখানায় প্রায় ৩ হাজার শ্রমিক কর্মরত। ওই কারখানার কিছু শ্রমিক বিভিন্ন সময়ে মালিক পক্ষের অন্যায়-অত্যাচারের প্রতিবাদ করে আসছিল। সে প্রেক্ষিতে মালিকপক্ষ ওই শ্রমিকদের চিহ্নিত করে এবং সোমবার তাদের ছাঁটাই করার পরিকল্পনা করে। এ নিয়ে শ্রমিকদের মাঝে সোমবার সকাল থেকেই গুঞ্জন চলছিল। ওই কারখানার প্রায় ৩ হাজার শ্রমিকের মধ্যে দেড় শতাধিক চিহ্নিত শ্রমিকের বেতন আটক রেখে অন্যান্য শ্রমিকের বেতন দিলে তারা যার যার বাড়ি চলে যায়। চিহ্নিত শ্রমিকদের বেতন না দিয়ে বিকেলে কারখানা ত্যাগ করার নির্দেশ দেয় কর্তৃপক্ষ। এ সময় ওই শ্রমিকরা ক্ষিপ্ত হয়ে কারখানার ভেতরে বিক্ষোভ শুরু করে। কারখানার মালিকপক্ষের ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসীরা বিক্ষুব্ধ শ্রমিকদের ওপরে আগ্নেয়াস্ত্র দিয়ে এলোপাথারি গুলি চালায়। এতে শ্রমিক হাছান, বাদশা, লাকি, রহিমাসহ গুলিবিদ্ধসহ আহত হয় দেড় শতাধিক শ্রমিক। পরে শ্রমিকরা কারখানার মালিক সায়মন ও ঝুট ব্যবসায়ী জালাল আহমেদকে গ্রেফতারের দাবিতে বাইপাইল-আব্দুল্লাজপুর মহাসড়কের টঙ্গাবাড়ী নামক স্থানে প্রায় আধা ঘণ্টা অবরোধ করে রাখে। শিল্প পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে শ্রমিকদের মহাসড়ক থেকে সরিয়ে দেয়ার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়। পরে অন্যান্য শ্রমিক গুলিবিদ্ধসহ আহত শ্রমিকদের দ্রুত উদ্ধার করে স্থানীয় বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করে। এ সময় শতাধিক শ্রমিককে কারখানার ভেতরে একটি রুমে আটকে রেখে অমানুষিক নির্যাতন করে মালিকপক্ষ। অবরোধের ফলে ওই সড়কে চলাচলরত ঈদে ঘরমুখো কয়েক লাখ মানুষ যানজটে পড়ে চরম দুর্ভোগের শিকার হতে হয়েছে।

এ ব্যাপারে শিল্প পুলিশের পরিচালক মোস্তাফিজার রহমান বলেন, তদন্ত করে ওই কারখানার মালিককে আইনের আওতায় আনা হবে।

ভালুকায় ঈদ বোনাসের দাবিতে বিক্ষোভ, সংঘর্ষ,আটক ২২ ॥ নিজস্ব সংবাদদাতা ভালুকা থেকে জানান, ভালুকা উপজেলার জামিরদিয়ার আরিফ টেক্সটাইল মিলস লিমিটেডের হোমটেক্স শাখার প্রায় চার শতাধিক শ্রমিক ঈদ বোনাসের দাবিতে সোমবার সকালে মিল গেটে বিক্ষোভ শুরু করে। এ সময় মালিক পক্ষের লোকজন শ্রমিকদের ওপর হামলা করে। পরে ২২ শ্রমিককে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে।

শ্রমিকরা জানান, তারা কয়েকদিন ধরে ঈদ বোনাসের দাবি করে আসছিল। মিল কর্তৃপক্ষ আশ^াস দিলেও মিলের এ্যাডমিনসহ ভাড়াটিয়া লোকজন শ্রমিকদের বিভিন্ন ধরনের হুমকি দেয়। এরই জের হিসেবে ঘটনার সময় চার শতাধিক শ্রমিক মিলগেটে শান্তিপূর্ণ সমাবেশ ও বিক্ষোভ করে। পরে এ্যাডমিনের নেতৃত্বে মালিক পক্ষের লোকজন তাদের ওপর হামলা চালায়।

এ ঘটনায় মিলের এজিএম মনিরুল ইসলাম বাদী হয়ে আন্দোলনরত শ্রমিকদের বিরুদ্ধে শ্রমিকের বিরুদ্ধে ভালুকা মডেল থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: