১৯ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৫ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

ওয়েলস মোকাবেলায় প্রস্তুত পর্তুগাল


স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ইউরোপিয়ান ফুটবলের সেরা দলগুলোর একটি হলো পর্তুগাল। কিন্তু এখন পর্যন্ত ইউরোর শিরোপাটাই ছোঁয়া হয়নি তাদের। ২০০৪ সালে ফাইনালে উঠে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার আশা জাগালেও শেষপর্যন্ত গ্রীসের কাছে হেরে যায় তারা। এরপর আর ফাইনালে উঠা হয়নি তাদের। দীর্ঘ এক যুগ পর পর্তুগালের সামনে আবারও ফাইনালে উঠার সুযোগ। সেক্ষেত্রে বুধবার ওয়েলসকে হারাতে হবে তাদের। শেষ চারের বাধা পেরুতে পেপে-রোনাল্ডোরা কী পারবে? ভক্ত-অনুরাগীদের অপেক্ষা এখন সেটাই দেখার।

তবে ওয়েলসের বিপক্ষে জয় পেতে প্রস্তুত পর্তুগাল। রবিবার প্যারিসের মার্কাসিসে অনুশীলনে ঘাম জড়িয়েছেন ফার্নান্দো সান্তোসের দল। সিরিয়াস ছিলেন দলের সেরা তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোও। গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে জোড়া গোল করে দলকে শেষ ষোলোতে জায়গা করে দিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন তিনি। ওয়েলসের বিপক্ষে ম্যাচেও যে তাকে দলের হাল ধরতে হবে সেটাও উপলব্ধি করতে পারছেন সি আর সেভেন। রিয়ালের পর্তুগীজ তারকা ছাড়াও ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে শেষ ষোলোর নায়ক কারিশমা, ন্যানি, সানচেস, পেপেও অনুশীলনে ছিলেন সান্তোসের মনোযোগী ছাত্র। কারণ একটাই, ওয়েলসের বিপক্ষে যে তাদের জয়ের বিকল্প নেই।

এদিকে প্রথমবারের মতো ইউরোর মিশনে নেমেই বাজিমাত করেছে ওয়েলস। বাঘা বাঘা দলগুলোকে নাকানি-চুবানি খাইয়ে ছাড়ছে তারা। শুক্রবার রাতে তারকাখচিত বেলজিয়ামকেও ৩-১ গোলের বড় ব্যবধানে উড়িয়ে দিয়ে চলমান আসরের শেষ চারের খেলা নিশ্চিত করেছে ওয়েলস। ৫৮ বছর পর বড় কোন প্রতিযোগিতায় খেলতে আসা দলটির সেমিফাইনালে প্রতিপক্ষ এখন পর্তুগাল। ফাইনালের উঠার লড়াইয়ে আগামী বুধবার এই দুই দলই মুখোমুখি হবে লিওতে। ওয়েলস-পর্তুগাল মুখোমুখি, এমন আবহের চেয়ে বেশি রোমাঞ্চ ছড়াচ্ছে গ্যারেথ বেল-ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো, একে অপরের প্রতিপক্ষ। ওয়েলসের গ্যারেথ বেল, পর্তুগালের ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো, দুজনই কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে খেলে থাকেন রিয়াল মাদ্রিদের জার্সিতে। ক্লাব ফুটবলে বন্ধু হলেও জাতীয় দলের হয়ে একে অন্যের ‘শত্রু’। ওয়েলসের প্রাণভোমরা গ্যারেথ বেল জানিয়েছেন, সেমিফাইনালে তিনবারের বিশ্বসেরা ফুটবলার ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোকে নিয়ে চিন্তিত নন তিনি। এ বিষয়ে বেল বলেন, ‘এটা মূলত পর্তুগাল বনাম ওয়েলস ম্যাচ। এর বাইরে আর কিছুই নয়।’ সেমিফাইনালে নিজেদের সেরাটা ঢেলে দিয়ে ফাইনালের টিকেট পাওয়ার জন্য মুখিয়ে রয়েছে ওয়েলসও। আগের ম্যাচের ভুলগুলো শুধরে নিয়ে শিরোপার আরও কাছে পৌঁছে যেতে চায় তারা। লিখতে চায় নতুন রূপকথা। এ প্রসঙ্গে বেল বলেন, ‘আমরা যোগ্য দল হিসেবেই সেমিফাইনালে উঠে এসেছি। প্রতিযোগিতা যত এগোচ্ছে ততই শক্তিশালী হয়ে উঠছি। আমরা ভুল থেকে শিক্ষা নিয়ে পরের ম্যাচগুলোতে প্রয়োগ করছি। সেমিফাইনালে আমরা নিজেদের ক্ষমতা উজাড় করে দেব।