মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১০ আশ্বিন ১৪২৪, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

সৈয়দপুর ফাইলেরিয়া হাসপাতালের কর্মচারীরা ঈদের বেতন বোনাস হতে বঞ্চিত

প্রকাশিত : ৩ জুলাই ২০১৬, ১২:২০ পি. এম.
সৈয়দপুর ফাইলেরিয়া হাসপাতালের কর্মচারীরা ঈদের বেতন বোনাস হতে বঞ্চিত

স্টাফ রিপোর্টার, নীলফামারী ॥ নানান সমস্যায় জর্জরিত হয়ে পড়ছে নীলফামারীর সৈয়দপুরে অবস্থিত ফাইলেরিয়া হাসপাতালটি। আয় রোজকার কমে যাওয়ায় এখানকার ১৮ কর্মকর্তা-কর্মচারী এবারের বেতন ও ঈদের বোনাস পাচ্ছেনা। এতে ওইসব কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের পরিবার বিপাকে পড়েছে।

সূত্র মতে, দীর্ঘ কয়েক বছর থেকে অভ্যান্তরিন নানান সমস্যার কারনে বিদেশী দাতা সংস্থা ও সরকারী অনুদান বন্ধ হয়ে গেছে। ফলে হাসপাতালের অ্যাম্বুলেন্স, ফার্মেসী ও রোগীদের কাছ থেকে প্রাপ্ত অর্থ দিয়ে কোনোরকমে হাসপাতালটি চলছে। হাসপাতালটিতে চিকিৎসক, নার্স, ল্যাব টেকনেশিয়ান, গাড়ী চালক, আয়া, ওয়ার্ডবয়, দারোয়ান, নৈশ প্রহরী সহ মোট ১৮জন কর্মকর্তা-কর্মচারী কর্মরত রয়েছেন।

আজ রবিবার সকালে তারা জানায় আসন্ন ঈদের জন্য এখনও তারা বেতন-বোনাস পাননি।

এ ব্যাপারে সৈয়দপুর ফাইলেরিয়া হাসপাতালের পরিচালক ডা. সুরত আলী জানান, সরকারী অনুদান ছাড়া এত বড় প্রতিষ্ঠান পরিচালনা করা সম্ভব নয়। এছাড়া রমজান মাসে রোগীর সংখ্যা শুন্যের কোঠায় নেমে আসে।

খোঁজ নিয়ে জানা যায় ১৯৯৫ সালে ফাইলেরিয়া বিশেষজ্ঞ ড. মোয়াজ্জেম হোসেনের উদ্যোগে জাপান সরকারের অর্থায়নে নীলফামারীর সৈয়দপুরের ধলাগাছে ২০০২ সালে ২৫ শয্যাবিশিষ্ট একটি ফাইলেরিয়া হাসপাতাল চালু করা হয়। যা বিশ্বের একমাত্র ফাইলেরিয়া হাসপাতাল হিসেবে পরিচিত। পরে ২০১২ সালে অভ্যান্তরিন কোন্দলে ডা. মোয়াজ্জেম এ হাসপাতাল ছেড়ে চলে যান। বর্তমানে প্রতিদিনের টিকিট বিক্রি এবং হাসপাতালটির অ্যাম্বুলেন্স ভাড়া দিয়ে মাসে যে আয় হয় সেই টাকা দিয়ে খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে চলছে সৈয়দপুর ফাইলেরিয়া হাসপাতালের সব কার্যক্রম।

প্রকাশিত : ৩ জুলাই ২০১৬, ১২:২০ পি. এম.

০৩/০৭/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



শীর্ষ সংবাদ: