১৯ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

ওসি সালাহউদ্দিন এসি রবিউল বোমার স্প্লিন্টারে মারা গেছেন


ওসি সালাহউদ্দিন এসি রবিউল বোমার  স্প্লিন্টারে মারা গেছেন

স্টাফ রিপোর্টার ॥ গুলিতে নয়। বোমার স্প্লিন্টারের আঘাতেই মারা গেছেন বনানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সালাহউদ্দিন খান (৫০) ডিবির সহকারী কমিশনার (এসি) মোঃ রবিউল করিম (৩৮)। শনিবার দুপুরে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ ফরেনসিক বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সোহেল মাহমুদ এ তথ্য জানিয়েছেন। এর আগে শনিবার দুপুর আড়াইটার দিকে তাদের মরদেহ ময়নাতদন্ত করেন তিনি।

সোহেল মাহমুদ জানান, পুলিশের দুই কর্মকর্তাই বোমার স্প্লিন্টারের আঘাতে নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে এসি রবিউলের ডানপাশের বুকে স্প্লিন্টারের আঘাত লেগেছে। তাতেই ফুসফুস ছিদ্র হয়ে তার মৃত্যু হয়েছে। রবিউলের শরীরে স্প্লিন্টারের অসংখ্য আঘাত ছিল। তিনি জানান, আর ওসি সালাহউদ্দিনের গলার ডানপাশে আঘাত লেগেছে। এতে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে তার মৃত্যু হয়েছে। এর আগে বেলা ১১.০৫ মিনিটে গুলশান থানার এসআই মোঃ আসাদুজ্জামান তাদের লাশের সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করেন। নিহত ডিবি সহকারী পুলিশ কমিশনার রবিউল করিম তার বাবার নাম মৃত আঃ মালেক। গ্রামের বাড়ি মানিকগঞ্জ জেলার সদরের কাটিগ্রামে। অপরদিকে নিহত ওসি সালাহউদ্দিন খানের বাবার নাম মৃত আব্দুল মান্নান খান। গ্রামের বাড়ির গোপালগঞ্জ জেলার ২৭৮নং ব্যাংকপাড়ায়।

এদিকে ময়নাতদন্ত শেষে ওসি সালাউদ্দিনের লাশ তার বড় ভাই রাজউদ্দিন খান গ্রহণ করেন। এর আগে তিনি সাংবাদিকদের জানান, ওসি সালাহউদ্দিনকে বনানী কবরস্থানে দাফন করা হবে। রাজউদ্দিন জানান, সালাহউদ্দিন দেশের জন্য জীবন দিয়েছে। আমরা দেশবাসীর কাছে তার ছেলে-মেয়েদের জন্য দোয়া চাই।

কলেজ মর্গে গোলাপগঞ্জ জেলার আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সালাউদ্দিন পান্না বলেন, রাতে অভিযানের সময় ওসি সালাহউদ্দিনের গলায় ও বুকের এক পাশে গুলি লেগেছে। পরে তাকে রাতেই ইউনাইটেড হাসপাতাল নেয়া হয় সেখানে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। সকাল বেলা তার লাশ ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে আনা হয়েছে।

অন্যদিকে একই ঘটনায় নিহত ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের সহকারী কমিশনার রবিউল ইসলামের লাশ দাফন করা হবে গ্রামের বাড়ি মানিকগঞ্জের কাটিবাড়ি। নিহতের ছোট ভাই শামসুজ্জান খান জানান, আমার ভাই দেশের জন্য জীবন দিয়ে গেছে। তার জন্য আমি দেশবাসীর দোয়া চাচ্ছি। তার একটি ছেলে আছে। তার স্ত্রী সন্তানসম্ভবা। সবাই তার জন্য দোয়া করবেন। তিনি জানান, মানিকগঞ্জের কাটিবাড়িতে তারাবির নামাজের পর তার জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। সেখানেই তার লাশ দাফন করা হবে।

উল্লেখ্য, শুক্রবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে গুলশানের ৭৯নং হলি আর্টিজান রেস্টুরেন্টে কতিপয় সন্ত্রাসীরা বিদেশীদের জিম্মি করে অতর্কিত হামলা চালায়। এ সময় তারা বেশ কয়েকটি বিস্ফোরণ ঘটিয়ে আতঙ্ক সৃষ্টি করে রেস্টুরেন্টের অবস্থানকারীদের জিম্মি করে। এ ঘটনায় অস্ত্রধারীদের হামলায় ডিবির এসি রবিউল করিম ও বনানী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সালাহউদ্দিন গুরুতর আহত হন। পরে তাদের উদ্ধার করে গুলশান ইউনাইটেড হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানেই তিনি মৃত্যুবরণ করেন। গোলাগুলির সময় সালাহউদ্দিন পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করতে গিয়েছিলেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। একই ঘটনায় প্রাণ হারান ডিবি এসি রবিউল ইসলামও।