২৩ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

ইসরাইলী-ফিলিস্তিনী সংঘর্ষ চিরস্থায়ী রূপ নিতে পারে ॥ কোয়ার্টেট


বিরামহীন দখলদারিত্ব এবং ইসরাইলী-ফিলিস্তিনী সংঘাতের ব্যাপারে সতর্ক করে দিয়েছে বিশ্ব শক্তিগুলোর একটি গুরুত্বপূর্ণ গ্রুপ। খবর বিবিসি অনলাইনের।

তথাকথিত কোয়ার্টেট দীর্ঘ বিলম্বিত এক রিপোর্টে বলেছে, অব্যাহত সহিংসতা, ইসরাইলী বসতি নির্মাণ ও ফিলিস্তিনীদের মধ্যে বিভাজন শান্তির প্রত্যাশাকে নস্যাত করে দিয়েছে। ইসরাইলী প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু প্রত্যয়ের সঙ্গে বলেছেন, এটা একটা কল্পকথা যে, বসতি নির্মাণ শান্তির প্রতি বাধা। যুক্তরাষ্ট্র রাশিয়া, ইউরোপীয় ইউনিয়ন ও জাতিসংঘ সমন্বয়ে ২০০২ প্রতিষ্ঠিত কোয়ার্টেট ইতিবাচক পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য দু’পক্ষের প্রতিই আহ্বান জানিয়ে বলেছে, একমাত্র প্রত্যক্ষ দ্বিপক্ষীয় আলোচনার মাধ্যমেই এ সংঘাতের অবসান হতে পারে। ইসরাইল ও ফিলিস্তিনীদের মধ্যে সর্বশেষ প্রত্যক্ষ আলোচনা ২০১৪ সালের এপ্রিলে এক তিক্ততার মধ্য দিয়ে শেষ হয়।

রিপোর্টটি এমন সময় প্রকাশিত হলো যখন ইসরাইল ও ফিলিস্তিনীদের মধ্যে উত্তেজনা চরমে পৌঁছেছে। ফিলিস্তিনীরা ইসরাইলীদের ওপর বেশ কিছু মারাত্মক হামলা চালিয়েছে এবং ফিলিস্তিনীদের বিরুদ্ধে নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করেছে ইসরাইল। অক্টোবর থেকে এ পর্যন্ত ৩৫ জন ইসরাইলী নিহত হয়েছে ফিলিস্তিনীদের ছুরিকাঘাতে, আগ্নেয়াস্ত্রের গুলিতে এবং গাড়িধাক্কায়। এ সময়ের মধ্যে নিহত হয়েছে দুই শতাধিক ফিলিস্তিনী। ইসরাইল বলেছে, এদের বেশিরভাগই হামলাকারী। ইসরাইল বলেছে, ফিলিস্তিনীদের সৃষ্ট উত্তেজনা সংঘাতকে উস্কে দিচ্ছে। ফিলিস্তিনী নেতৃত্ব ইসরাইলের কয়েক দশকের দখলদারিত্বের কারণে তাদের মধ্যে নৈরাশ্যের সৃষ্টি হয়েছে। রিপোর্টে বলা হয়, ফিলিস্তিনী নেতৃত্ব সুষ্ঠু ও স্পষ্টভাবে কোন নির্দিষ্ট সন্ত্রাসী হামলার নিন্দা জানায়নি এবং রাস্তা, মোড় ও স্কুলের নামকরণ করা হয়েছে এমন ফিলিস্তিনীদের নামে যারা সন্ত্রাসী কর্মকা- চালাতে বদ্ধপরিকর। রিপোর্টে উত্তেজনার বিরুদ্ধে সুস্পষ্টভাবে কাজ করার জন্য ফিলিস্তিনী কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানানো হয়। প্রধান ফিলিস্তিনী আলোচক সায়েব এরকাত রিপোর্টের সমালোচনায় বলেছেন, রিপোর্টে আমাদের প্রত্যাশার প্রতিফলন ঘটেনি।