২৪ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

এসপির স্ত্রী হত্যায় মুছার ভাইসহ গ্রেপ্তার ২


এসপির স্ত্রী হত্যায় মুছার ভাইসহ গ্রেপ্তার ২

অনলাইন ডেস্ক ॥ পুলিশ সুপার (এসপি) বাবুল আক্তারের স্ত্রী মাহমুদা খানম (মিতু) হত্যার ঘটনায় আরও দুজনকে গ্রেপ্তার করার কথা জানিয়েছে চট্টগ্রাম নগর গোয়েন্দা পুলিশ।

পুলিশের ভাষ্য, আজ শুক্রবার সকালে নগর এবং জেলার রাঙ্গুনিয়া থেকে ওই দুজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। পুলিশের তথ্যমতে, গ্রেপ্তার হওয়া দুজন হলেন শাহজাহান ও সাইফুল ইসলাম ওরফে সাকু।

পুলিশের ভাষ্য, এই মামলায় গ্রেপ্তার হওয়া দুই আসামির স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি অনুযায়ী, মাহমুদা হত্যায় অন্যদের সঙ্গে শাহজাহানও সরাসরি অংশ নিয়েছিলেন। সাকু এই হত্যা মামলার অন্যতম সন্দেহভাজন কামরুল শিকদার ওরফে মুছার ভাই।

চট্টগ্রাম নগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার (অপরাধ ও অভিযান) দেবদাস ভট্টাচার্য্য বলেন, সাকুকে রাঙ্গুনিয়া থেকে ও শাহজাহানকে নগর থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। হত্যায় ব্যবহৃত মোটরসাইকেলটি সাকুর কাছ থেকে নিয়েছিলেন তাঁর ভাই মুছা। পরে তা উদ্ধার করে পুলিশ।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা চট্টগ্রাম মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের সহকারী কমিশনার মো. কামরুজ্জামান বলেন, গ্রেপ্তার হওয়া শাহজাহান ও সাকুকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

গত ৫ জুন সকালে ছেলেকে স্কুলবাসে তুলে দিতে যাওয়ার সময় চট্টগ্রামের জিইসি এলাকায় গুলি ও ছুরিকাঘাতে খুন হন মাহমুদা। হত্যাকাণ্ডের পর তাঁর স্বামী বাবুল আক্তার বাদী হয়ে অজ্ঞাতপরিচয় তিন ব্যক্তিকে আসামি করে মামলা করেন।

পুলিশ অভিযান চালিয়ে এই মামলার আসামি ওয়াসিম, আনোয়ার, অস্ত্র সরবরাহকারী ভোলা ও তাঁর সহযোগী মনিরকে গ্রেপ্তার করে।

পুলিশের দাবি অনুযায়ী, এখনো পলাতক রয়েছেন হত্যাকাণ্ডে অংশ নেওয়া মুছা, মো. কালু (২৮), মো. রাশেদ (২৯) ও নূর নবী (২৮)।

পুলিশ বলছে, গ্রেপ্তার আনোয়ার ও ওয়াসিম তাঁদের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে বলেছেন, মাহমুদা হত্যার পুরো বিষয়টির সমন্বয় করেছিলেন মুছা। আর মাহমুদাকে পেছন থেকে ছুরি মারেন নবী।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: