মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১০ আশ্বিন ১৪২৪, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

ঝলক

প্রকাশিত : ১ জুলাই ২০১৬

শহুরে পাখির আয়ু!

বিজ্ঞানীদের মতে, মানুষের মতো পাখিদেরও থাকে মানসিক চাপ। এক্ষেত্রে শহরের অধিকাংশ পাখিই এই সমস্যায় ভোগে। যে কারণে বহু শহুরে পাখি ছোট থাকতেই মারা যায়। পাখিদের ওপর একটি প্রতিবেদনে এমন তথ্যই তুলে ধরেছেন সংশ্লিষ্ট বিশেষজ্ঞরা। শহরের পরিবেশের সঙ্গে তারা খাপ খাইয়ে নিতে পারে না। শহুরে খুব কম সংখ্যক পাখিই আছে যারা অনেকদিন পর্যন্ত বাঁচে। শহুরে পাখিদের ডিএনএ টেস্টের মাধ্যমে জানা গেছে হাতেগোনা দু-একটি পাখি ছিল প্রবীণ। গবেষণায় দেখা গেছে, পাখিদের ক্রোমোসোমের দৈর্ঘ্য যদি কমে যেতে থাকে তাহলে ধারণা করা হয় তার মৃত্যুর সময় ঘনিয়ে আসছে।

জীববিজ্ঞানী পাভেলো সালমোনের মতে, ‘শহরের পরিবেশ খুব দ্রুত পরিবর্তন হয়। একটি পরিবেশের সঙ্গে খাপ খাইয়ে নিতে পাখিদের বেশ কিছুদিন সময় লাগে। তাই গ্রামের চাইতে শহরের পাখিদের পরিবেশের সঙ্গে টিকে থাকাটা অনেক কঠিন। যেটা বন্যপ্রাণীদের ক্ষেত্রে দেখা যায় না। এছাড়া শহরে পাখিদের বেড়ে ওঠার মতো পর্যাপ্ত সুযোগ নেই। চারদিকে নানা দূষণ, খাবারের উৎসের অভাব; তাই বেশিদিন বেঁচে থাকতে পারে না পাখিরা।’

প্রতিবাদই বটে!

বেতন দিতে দেরি করায় সরকারের বিরুদ্ধে অভিনব প্রতিবাদে নেমেছে ব্রাজিলের পুলিশ ও দমকলকর্মীরা। এজন্য তারা প্রতিবাদের কেন্দ্র হিসেবে বেছে নিয়েছে রিও ডি জেনিরো আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরকে। যাত্রীদের অভ্যর্থনা জানাতে পরিবারের সদস্য-পরিচিত জন বা ট্যাক্সি ড্রাইভাররা যেখানে দাঁড়িয়ে থাকেন, সেখানেই দেখা যায় এক অভিনব দৃশ্য। পুলিশ ও দমকল বাহিনীর কর্মীরা সেখানে ব্যানার ও প্ল্যাকাার্ড ধরে দাঁড়ায়। একটি প্ল্যাকার্ডে লেখা ছিল, ‘নরকে স্বাগতম’। অন্য একটি প্ল্যাকার্ডে লেখা ছিল, ‘পুলিশ আর দমকল কর্মীদের বেতন দেয়া হচ্ছে না। রিও ডি জেনেরিওতে যারা আসছে, তাদের কেউই নিরাপদ নয়।’ উল্লেখ্য, ব্রাজিলে গত কয়েক মাস ধরে তীব্র অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক সঙ্কট চলছে। প্রেসিডেন্টের পদ থেকে ডিলমা রুসেফকে এক রকম একটি নীরব অভ্যুত্থানের মধ্য দিয়ে অপসারণ করা হয় বাজেট ঘাটতি সম্পর্কে বিভ্রান্তিকর তথ্য দেয়ার অভিযোগে। এই অবস্থায় পুলিশ বিক্ষোভ করছে তাদের বেতন দেরিতে দেয়ার প্রতিবাদে।

প্রকাশিত : ১ জুলাই ২০১৬

০১/০৭/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



শীর্ষ সংবাদ: