১৯ ফেব্রুয়ারী ২০১৮, ৭ ফাল্গুন ১৪২৪, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
 

লক্ষ্মীপুরে বর্ষার আগমনে চরাঞ্চলে তৈরী হচ্ছে মাছ ধরার ছাই

প্রকাশিত : ৩০ জুন ২০১৬, ০২:৫৯ পি. এম.
লক্ষ্মীপুরে বর্ষার আগমনে চরাঞ্চলে তৈরী হচ্ছে মাছ ধরার ছাই

নিজস্ব সংবাদদাতা, লক্ষ্মীপুর ॥ লক্ষ্মীপুরে বর্ষার আগমনে চরাঞ্চলে তৈরী হচ্ছে মাছ ধরার ছাই, হারল, আনতা, খলি, হত্তরসহ স্থানীয় নানান মাছ ধরার সরঞ্জাম। মেঘনা উপকূলীয় সদর উপজেলার চররমনীমোহন, চরবসু, রামগতি, কমলনগর, রায়পুর ও রামগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন অঞ্চলে মাছ ধরার এ সব ছাই বানানো হচ্ছে। সুদূর ময়মনসিংহসহ দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে কারিগররা এসে এ অঞ্চলে বর্ষা মৌসুমে ছাই বানানোর কাজে নেমেছে। বৈশাখ থেকে শুরু করে আগামী ভাদ্র মাস পর্যন্ত চলবে তাদের এ মৌসুম। একেকজন কারিগর প্রতিদিন এক’শটি ছাই বানাতে পারেন বলে জানালেন ময়মনসিংহ থেকে আসা ছাই ব্যবসায়ী ও কারিগর মো. হারুনুর রশিদ। এর মধ্যে ছাই বানানোর কারিগর কফিল জানান, দৈনিক তারা প্রতিজন কারিগর এক’শটি ছাই বানাতে পারেন। বাজারে প্রতিটি ছাই বিক্রী হচ্ছে ৭০ থেকে ৮০ দরে। এতে একেক জন মজুরী পান প্রায় পাঁচ’শ টাকা। এ দিয়ে সংসারর পরিবার পরিজন চালাতে হয়। তবে সংশ্লিষ্ট ছাই বানানো ব্যবসায়ীরা বলেছেন, এ খাতে সরকার যদি তাদেরকে সহজ শর্তে ঋন দেয় তবে এ শিল্পের আরো প্রসার ঘটবে। এতে এলাকার অনেক বেকার লোকের কর্মসংস্থানের সৃষ্টি হবে। বর্ষা শুরু হলেও বৃষ্টি নামার বালাই দেখা যাচ্ছেনা। এর মাঝেও বর্ষার আগমনে বিভিন্ন স্থানে তৈরী হচ্ছে, হারল, আনতা, খলি, হত্তর সহ স্থানীয় বিভিন্ন প্রকার মাছ ধরার সরঞ্জাম।

প্রকাশিত : ৩০ জুন ২০১৬, ০২:৫৯ পি. এম.

৩০/০৬/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



শীর্ষ সংবাদ: