২০ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

চীনে সাত তারকা হোটেলে অ্যান্টিক জাদুঘর


চীনে সাত তারকা হোটেলে অ্যান্টিক জাদুঘর

অনলাইন ডেস্ক॥ চীনের শাংহাই যেন নতুন মাত্র পেতে চলেছে। সেখানকার বান্ডে অবস্থিত সাত তারকা হোটেল 'ওয়ান্ডা রেইন' এমনিতেই বিলাসিতার জন্যে বিখ্যাত। সেখানে নতুন কিছু যোগ করলেন ওয়াং সাইকং। ২৮ বছর বয়সী এই রিয়েল এস্টেট ব্যারন ইতিমধ্যে খবরের শিরোনাম হয়েছেন।

ওয়াং তার নিজস্ব স্বাদের সমন্বয় ঘটালেন নিজের হোটেলে। হুয়াংপু নদীর কিনারে বানানো হয়েছে বিশাল এই হোটেল। আর এটি একমাত্র হোটেল যেখানে অ্যান্টিক সামগ্রীপূর্ণ এক জাদুঘর স্থাপন করা হয়েছে। চীনের সমসাময়িক শিল্পীদের শিল্পকর্ম এখানে স্থান পেয়েছে। এ হোটেলের ডিজাইনার লরেন্স জু। তিনি প্রথমবারের মতো প্যারিসের কালচার উইকের স্টাফ ইউনিফর্ম বানাচ্ছেন।

শৈল্পিক মোটিফের মধ্যে ম্যাগনোলিয়াস এবং গতানুগতিক সুজহু এম্ব্রোয়ডারি স্থান পাচ্ছে।

এ হোটেলের ১৯৩টি গেস্টরুম নিয়ন্ত্রিত হয় আইপ্যাডের মাধ্যমে। কক্ষগুলো আর্ট ডেকো-থিমে সাজানো হয়েছে। দুই ধরনের থিম এখানে সৃষ্টি করা হয়েছে। একটি আধুনিক গ্ল্যামারের স্ফূরণ ঘটাবে রং, আলো-আঁধারি পরিবেশ, মেহগনির সজ্জা ইত্যাদির মাধ্যমে।

মেহমানদের আরাম-আয়েশ দিতে যাবতীয় সরঞ্জাম তৈরি করেছে এল'ওকিটেন এবং হারমেস। আয়েশী ঘুমের জন্য সুগন্ধী, সঙ্গীত এবং পড়ার উপকরণ তো থাকছেই।

এখানে তারাই আসবে যাদের কাছে পয়সা কোনো সমস্যা নয়। আরো থাকছে ৩১০০ বর্গ ফুটের চেয়ারম্যান স্যুইট। সেখানে লিভিং রুম, ডায়নিং রুম, অ্যাডজয়নিং প্যান্ট্রি, বার, পড়াশোনার ঘর, মাস্টার বেডরুম সনা এবং ম্যাসাজ বাথটাব।

ভোজনরসিকদের জন্যে রুফটপ রেস্টুরেন্ট মার্ক। সেখানে আছেন ফ্রেঞ্চ তারকা শেফ মার্ক মিনাউ। এখানে দক্ষিণ চীনের কুইজিন এবং জাপানিজ রেস্টুরেন্টও থাকছে। নতুন মেহমানদের জন্যে ৪৫৩ ডলারেই একরাত থাকার ব্যবস্থা হয়ে যাবে। সূত্র : হিন্দুস্তান টাইমস

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: