১৯ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

৩৪ তম বিসিএসের নন ক্যাডার থেকে মাধ্যমিকে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে


স্টাফ রিপোর্টার ॥ দেশের সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক-সঙ্কট দূর করতে নতুন উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। শূন্য পদ পূরণে ৩৪তম বিসিএস পরীক্ষায় উত্তীর্ণ কিন্তু ক্যাডার পদ পাননি (নন ক্যাডার) এমন প্রার্থীদের মধ্য থেকে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ দেয়ার সিদ্ধান্ত এসেছে সরকারী কর্মকমিশনের (পিএসসি) এক সভায়। তবে সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষকের যত শূন্য পদ আছে, তার ৫০ শতাংশ এই প্রক্রিয়ায় নিয়োগ দেয়া হবে।

সভায় সিদ্ধান্তের বিষয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব রুহী রহমান জনকণ্ঠকে বলেছেন, পিএসসির সভায় সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে যে ৩৪তম বিসিএস পরীক্ষায় উত্তীর্ণ কিন্তু ক্যাডার পদ পাননি (নন ক্যাডার) এমন প্রার্থীদের মধ্য থেকে শূন্য আসনের ৫০ শতাংশ সহকারী শিক্ষক হিসেবে নিয়োগ দেয়া হবে। ঈদের আগেই তারা আমাদের এ বিষয়ে একটা ক্লিয়ারেন্স নেবে। দ্রুতই এ নিয়োগ হবে। বর্তমানে দেশের সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে এক হাজার ৭৪৪টি সহকারী শিক্ষকের পদ শূন্য আছে। সহকারী শিক্ষকদের চাকরি দ্বিতীয় শ্রেণীতে উন্নিত করার পর মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতরের কাছ থেকে তাদের নিয়োগের ক্ষমতা চলে যায় পিএসসির কাছে। তবে নিয়োগ বিধিমালা না থাকায় বেশ কয়েক বছর ধরে সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে নিয়োগ বন্ধ ছিল। ফলে চরম শিক্ষক সঙ্কটে পড়ে প্রতিষ্ঠানগুলো। এ অবস্থায় রবিবার পিএসসিতে অনুষ্ঠিত এক সভায় এ শূন্য পদ পূরণে বিকল্প চিন্তা করা হয়।

শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের (মাউশি) একাধিক কর্মকর্তা বলেন, নিয়োগবিধি সংশোধনের বিষয়টি জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় ও অর্থ মন্ত্রণালয় হয়ে এখন সচিব কমিটির চূড়ান্ত অনুমোদনের জন্য বিবেচনাধীন। বর্তমানে দেশের ৩৩৩ সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে এক হাজার ৭৪৪ সহকারী শিক্ষকের পদ ফাঁকা আছে। সহকারী শিক্ষকের অনুমোদিত পদ আছে ১০ হাজার ৬টি। সবচেয়ে বেশি সমস্যা ইংরেজী, গণিত ও বাংলা বিষয়ে।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: