মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২২.৮ °C
 
১ মে ২০১৭, ১৮ বৈশাখ ১৪২৪, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

ব্রিটিশ পত্রপত্রিকার দৃষ্টিতে ব্রেক্সিট

প্রকাশিত : ২৬ জুন ২০১৬

ব্রিটেনের সংবাদপত্র শনিবার ইউরোপীয় ইউনিয়ন ত্যাগ করা (ব্রেক্সিট) নিয়ে বিভক্ত হয়ে যায়। কেউ একে নতুন ব্রিটেনের জন্ম বলছে, আর অন্যরা প্রশ্ন করছে পরিণতি কি হতে যাচ্ছে তা নিয়ে। খবর এএফপির।

বহুল প্রচারিত ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) নিয়ে সংশয় প্রকাশকারী পত্রিকা দ্য ডেইলি মেইল তার প্রথম পাতাজুড়ে শিরোনাম দিয়েছে ‘ব্রিটেন তোমাকে প্রণতি জানাই’। এতে আরও বলা হয়, ব্রিটেনের নীরব জনগণ অহংকারী, জনবিচ্ছিন্ন রাজনৈতিক শ্রেণী ও অবজ্ঞাকারী ব্রাসেলস এলিট শ্রেণীর বিরুদ্ধে জেগে উঠেছে। ব্রেক্সিটপন্থী দ্য ডেইলি এক্সপ্রেস তাদের শিরোনাম করেছে, ‘আমরা ইইউ থেকে বেরিয়ে গেছি’। একে তারা ঐতিহাসিক বিজয় বলেও অভিহিত করেছে। টাইম একে একটি ‘ব্রেক্সিট ভূমিকম্প’ বলছে। দ্য ডেইলি টেলিগ্রাফ তার প্রথম পাতায় নতুন ব্রিটেনের জন্ম বলে প্রশংসা করেছে। এর সম্পাদকীয়তে বলা হয়, ‘জুন ২৩ ২০১৬ চিরকাল স্মরণীয় হয়ে থাকবে এ কারণে যে ব্রিটিশরা ভোট দিয়ে নিজ দেশের নিয়ন্ত্রণ নিজেদের হাতে তুলে নিল। যেখানে অনেক লোক সচেতনভাবে তাদের ভবিষ্যৎ নিয়ে চিন্তিত।

ইইউপন্থী ডেইলি মিরর হতাশা প্রকাশ করে প্রশ্ন করেছে, এখন কি সর্বনাশ হতে যাচ্ছে? গার্ডিয়ান এর প্রথম পাতায় প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরন একদিন ছেড়ে চলে যাবে এমন ছবি দিয়ে লিখেছে শেষ এবং বেরিয়ে যাও।

ব্রিটেনের প্রতি হুঁশিয়ারি দিয়ে অনড় অবস্থানে বারাক ওবামা

মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) ত্যাগ করলে ব্রিটেনকে তার দেশের সঙ্গে বাণিজ্য চুক্তি করতে গিয়ে পিছনের কাতারে গিয়ে দাঁড়াতে হবে। এ সতর্কবাণীতে অনড় রয়েছেন। যুক্তরাজ্যের ডেইলি টেলিগ্রাফ এ খবর জানায়।

ব্রিটেন ইইউ ছাড়ার পক্ষে গণভোটে রায় দেয়ার পর ওবামা এক সংক্ষিপ্ত বিবৃতি দেন। এতে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্র ঐ সিদ্ধান্তের প্রতি সম্মান জানায় এবং দু’দেশের মধ্যকার সম্পর্ক চিরস্থায়ী।

তিনি বলেন, যুক্তরাজ্য ও ইউরোপীয় ইউনিয়ন যুক্তরাষ্ট্রের অপরিহার্য অংশীদার হয়ে থাকবে। একই সময়ে তারা ইউরোপ, গ্রেট ব্রিটেন ও উত্তর আয়ারল্যান্ড ও বিশ্বের অব্যাহত স্থিতিশীলতা, নিরাপত্তা ও সমৃদ্ধি নিশ্চিত করতে তাদের বিরাজমান সম্পর্ক নিয়ে আলোচনা শুরু করছে। তবে হোয়াইট হাউস শুক্রবার রাতে জানায়, ব্রিটেনকে বাণিজ্য চুক্তি করতে হলে ঘুরে গিয়ে পিছনের কাতারে দাঁড়াতে হবে প্রেসিডেন্ট তার এ অবস্থাতেই রয়েছেন।

হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র এরিক শুলজ এক ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের বলেন, স্পষ্টত প্রেসিডেন্ট যা বলেছিলেন তাতেই তিনি অবস্থান করছেন এবং আমাদের দৃষ্টিভঙ্গির হালনাগাদ তথ্য আমার কাছে নেই।

ওবামা এপ্রিলে লন্ডন সফরকালে ইইউতে থেকে যেতে ব্রিটেনের প্রতি আহ্বান জানান। তিনি হুঁশিয়ার করেছেন যে, ব্রিটেন যদি ব্লক ত্যাগ করে তাকে দুটি দেশের মধ্যে কোন বাণিজ্য চুক্তি হওয়ার আশু সম্ভাবনা নেই।

প্রকাশিত : ২৬ জুন ২০১৬

২৬/০৬/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ: