মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১০ আশ্বিন ১৪২৪, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

ফের ছয় ছক্কা হাঁকাবেন যুবরাজ

প্রকাশিত : ১৬ মে ২০১৬, ১২:০০ পি. এম.
ফের ছয় ছক্কা হাঁকাবেন যুবরাজ

অনলাইন ডেস্ক ॥ ক্যান্সার ‘যুদ্ধজয়ী’ ও বিশ্বকাপ হিরো যুবরাজ সিং ১৭ জন অল্পবয়সী বাচ্চাদের কিছু টিপস দিয়েছেন, যারা মরণব্যাধি রোগের সঙ্গে লড়াই করছে। একজনের প্রশ্নের জবাবে আবারো ছয় ছক্কা হাঁকানোর ইচ্ছা ব্যক্ত করেন ভারতীয় তারকা অলরাউন্ডার।

কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের বিপক্ষে ব্যাট হাতে ২৪ বলে ৪২ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলে সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদকে সাত উইকেটের জয় এনে দেন যুবরাজ। মোহালির বিন্দ্রা স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত রবিবার (১৫ মে) ম্যাচ চলাকালীন বেশ কয়েকজন বাচ্চাদের সঙ্গে দেখা করেন যুবরাজ। যাদের বয়স ৭-৮ বছরের মধ্যে।

তার মধ্যে একজন যুবরাজের দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলে, তিনি আবারো ছয় ছক্কা (এক ওভারে) হাঁকাতে চান কিনা। যুবরাজের ভাষ্য, ‘তুমি দোয়া করো, আমি আবারো ছয়টি ছক্কা মারবো।’

অবশ্য, যুবরাজ এও বলেছেন, কীভাবে তিনি ওই ছক্কাগুলো মেরেছিলেন তা তিনি জানেন না। অনেক বছরই তো পার হয়ে গেছে। এক ওভারে যুবরাজের ছয় বলে ছয়টি ছক্কার কীর্তি ভারতীয় ক্রিকেটেরই এক স্মরণীয় মুহূর্ত ছিল। দক্ষিণ আফ্রিকায় অনুষ্ঠিত ২০০৭ বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের স্টুয়ার্ট ব্রডের ছয়টি বলই তিনি বাউন্ডারির ওপর দিয়ে সীমানা ছাড়া করার রেকর্ড গড়েছিলেন।

সতেরজন শিশুদের মধ্যে আট বছর বয়সী একজন ক্যান্সারের সঙ্গে লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে, ১৮ মাস বয়সে যার ক্যান্সার ধরা পড়ে। সে (নাম জানা যায়নি) এখন স্কুলে চতুর্থ শ্রেণিতে পড়ে। পিটিআইকে এই ছেলেটি বলে, যুবরাজের মতো খেলোয়াড়রাই নাকি ‍তার কাছে বড় অনুপ্রেরণা, ‘আমি ক্রিকেট ভালোবাসি। যুবরাজ ও সুরেশ রায়নার খেলা আমাকে অনেক আনন্দ দেয়।’

যুবরাজও বাচ্চাদের মূল্যবান পরামর্শ দিয়েছেন, ‘ভয়ংকার রোগের সঙ্গে লড়াই করাটা ক্যান্সারের কাছ থেকে শিক্ষা নেওয়ার মতোই। তুমি তোমার জীবন মঞ্জুর করতে পারবে না, তোমার পরিবার বা বন্ধুবান্ধবদেরকেও মঞ্জুর করতে পারবে না। ভেবে নাও এটা ছদ্মবেশে একটা আশীর্বাদ যেটা তোমাকে আবারো বেঁচে থাকার সুযোগ করে দেবে।’

২০১১ বিশ্বকাপের সেরা খেলোয়াড় হয়েছিলেন যুবরাজ। ওই বছরই তার মরণব্যাধি ক্যান্সার ধরা পড়েছিল। পরে ক্যান্সারের সঙ্গে নির্ভীকভাবে লড়াইয়ের পর নিরাময় লাভ করে ক্রিকেটে ফেরেন।

প্রকাশিত : ১৬ মে ২০১৬, ১২:০০ পি. এম.

১৬/০৫/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ: