মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২০ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ৫ আশ্বিন ১৪২৪, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিশুদের সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা

প্রকাশিত : ১২ মে ২০১৬, ০৪:০৬ পি. এম.
প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিশুদের সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ‘বাংলাদেশের সকল সরকারি ও বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা আয়োজন’ শীর্ষক প্রতিযোগিতার আয়োজন করেছে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি। এ কর্মসূচীর পৃষ্ঠপোষকাতা করছে সংস্কৃতি মন্ত্রনালয়। সৃজনশীল মানবিক বাংলাদেশ গড়ার আন্দোলনকে তরান্বিত করার লক্ষ্যে এবং তৃণমূলের শিশু শিল্পীদের জাতীয় পর্যায়ে বিকশিত করার প্রত্যয়ে এ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এ উপলক্ষে একাডেমির জাতীয় চিত্রশালার সেমিনার কক্ষে আজ বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলন হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন একাডেমির মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকী, একাডেমির প্রযোজনা বিভাগের পরিচালক ইকবাল হোসেন, চারুকলা বিভাগের পরিচালক উৎপল কুমার দাস, প্রশিক্ষণ বিভাগের পরিচালক শাওকাত ফারুক, কর্মসূচির পরিচালক সোহরাব উদ্দীন এবং একাডেমির অর্থ, হিসাব ও পরিকল্পনা উপবিভাগের উপপরিচালক শহিদুল ইসলামসহ প্রতিযোগিতা বাস্তবায়ন কমিটির সদস্যবৃন্দ। সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয় একক লোকসঙ্গীত, রবীন্দ্রসঙ্গীত, নজরুলসঙ্গীত, মুক্তিযুদ্ধের গান, দেশাত্ববোধক গান, গণ সঙ্গীত, শিশুতোষ, মুক্তিযুদ্ধ ও দেশাত্ববোধক বিষয়ক আবৃত্তি, রবীন্দ্রসঙ্গীত ও নজরুলসঙ্গীতের সাথে নৃত্য, সাধারণ নৃত্য ও উচ্চাঙ্গ নৃত্য, একক ও দ্বৈতঅভিনয়সহ সংস্কৃতির মোট ১১টি বিষয়ে দেশব্যাপী ৪৮৯টি উপজেলা, ৬৪টি জেলা এবং ঢাকা, চট্টগ্রাম, রাজশাহী ও খুলনা মহানগরের পঁয়ত্রিশ হাজার স্কুলের প্রায় দুই লক্ষ পঁয়ষট্টি হাজার ছাত্র-ছাত্রী সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করেছে। প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারী প্রতিটি বিষয়ে ১ম, ২য় ও ৩য় স্থান বিজয়ীদের বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির পক্ষ থেকে পুরস্কার ও সনদপত্র প্রদান করা হয়েছে। আগামীকাল শুক্রবার ও আগামী পরশু শনিবার একাডেমিতে প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত জেলা ও মহানগরের ১ম ও ২য় স্থান বিজয়ী ১৫৬০জন প্রতিযোগীর অংশগ্রহণে একাডেমির সঙ্গীত ও নৃত্যকলা ভবন, জাতীয় চারুকলা ভবন এবং প্রশিক্ষণ ভবনে জাতীয় পর্যায়ে প্রতিযোগিতা এবং প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে প্রতিযোগিদের বিণোদনের জন্য একাডেমির নন্দন মঞ্চে অ্যাক্রোবেটিক প্রদর্শনী এবং সন্ধ্যা ৬টায় একাডেমির জাতীয় নাট্যশালা মিলনায়তনে প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারীদের পরিবেশনায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান এবং বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির অ্যাক্রোবেটিক দলের পরিবেশনায় অ্যাক্রোবেটিক প্রদর্শনীর আয়োজন করা হবে। জাতীয় পর্যায়ে প্রতিযোগিতায় ১১টি বিষয়ের প্রত্যেকটির ১ম, ২য় ও ৩য় স্থান বিজয়ীদের পরবর্তীতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর উপস্থিতিতে পুরস্কার এবং সনদপত্র প্রদানের পরিকল্পনা রয়েছে।

প্রকাশিত : ১২ মে ২০১৬, ০৪:০৬ পি. এম.

১২/০৫/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

সংস্কৃতি অঙ্গন



শীর্ষ সংবাদ: