২৩ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

দাবি আদায়ে সুগার মিল শ্রমিকদের বিক্ষোভ


জনকণ্ঠ ডেস্ক ॥ জাতীয় মজুরি স্কেল ২০১৫ ঘোষণাসহ ৬ দফা দাবিতে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন হয়েছে পঞ্চগড়, গাইবান্ধা, চুয়াডাঙ্গা ও নাটোরে। খবর স্টাফ রিপোর্টার ও নিজস্ব সংবাদদাতাদের।

পঞ্চগড় ॥ জাতীয় মজুরি স্কেল-২০১৫ ঘোষণা ও বাস্তবায়নসহ সেক্টর কর্পোরেশন শ্রমিক ফেডারেশন সমন্বয় পরিষদের ৬ দফা দাবি আদায়ের লক্ষ্যে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করা হয়েছে। বুধবার বেলা ১১টা থেকে পঞ্চগড় সুগার মিল চত্বরে ঘণ্টাব্যাপী এই মানববন্ধন পালন করে সুগার মিল শ্রমিক ইউনিয়ন।

গাইবান্ধা ॥ মহিমাগঞ্জে রংপুর চিনিকলের শ্রমিক-কর্মচারীরা বুধবার মিল গেট এলাকায় মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করে। এর আগে এক বিক্ষোভ মিছিল মহিমাগঞ্জ বন্দরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে।

চুয়াডাঙ্গা ॥ মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে দেশের বৃহৎ চিনিশিল্প প্রতিষ্ঠান চুয়াডাঙ্গার দর্শনা কেরু এ্যান্ড কোম্পানি চিনিকল শ্রমিকরা। বুধবার সকাল সাড়ে ১০টায় চিনিকল চত্বর থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের করে শত শত শ্রমিক। মিছিলটি দর্শনা রেলবাজারে এসে সেখানে ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করে।

নাটোর ॥ বুধবার সকালে নাটোর সুগার মিলের প্রধান ফটকের সামনে মানববন্ধন করে শ্রমিক-কর্মচারীরা। প্রায় ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধন শেষে বক্তব্য দেন নাটোর শ্রমিক-কর্মচারী ইউনিয়নের সভাপতি মোহাম্মাদ হাবিবুল্লাহ, সাধারণ সম্পাদক নাজিম উদ্দিন। এদিকে একই দাবিতে দেশের সবচেয়ে বড় নর্থবেঙ্গল সুগার মিলের প্রধান ফটকের সামনে মানববন্ধনে সেখানকার শ্রমিক-কর্মচারীরা।

সাতক্ষীরায় কিশোরীকে ধর্ষণ

সংবাদ সম্মেলনের জের

স্টাফ রিপোর্টার, সাতক্ষীরা ॥ জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে হুমকিদাতাদের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন করায় অবসরপ্রাপ্ত এক পুলিশ সদস্যের এক কিশোরী মেয়েকে ধর্ষণ করা হয়েছে।

বুধবার দুপুর ২টার দিকে আশাশুনি উপজেলার খাজরা ইউনিয়নের খালিয়া গ্রামের একটি চিংড়ি ঘেরের বাসায় এ ঘটনা ঘটে। ধর্ষিতাকে আশাশুনি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। খালিয়া গ্রামের অবসরপ্রাপ্ত ওই পুলিশ সদস্য জানান, গত বছরের জুন মাসে তিনি অবসরে যান। কর্মক্ষেত্রে দেশের বিভিন্ন স্থানে অবস্থান করায় তার চার মেয়েই তার জমি জায়গা দেখাশুনা করত। তিন মেয়ে বিয়ে হলেও ছোট মেয়েটিকে তিনি এখনও বিয়ে দিতে পারেননি।

তার অভিযোগ, তিনি বাড়িতে থাকতে না পারার কারণে তার ভাই নজরুল ইসলাম ও ভাইপো বায়েজিদ তার জমি দখল করে নেয়ার চেষ্টা করে।