মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২০ আগস্ট ২০১৭, ৫ ভাদ্র ১৪২৪, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

দেশ ভ্রমণে বাঘ মামার গাড়ি

প্রকাশিত : ১১ মে ২০১৬

সমুদ্র হক ॥ দেশের জাতীয় প্রাণী বাঘ সংরক্ষণে জনসচেতনতা তৈরিতে নেমেছে বন ও পরিবেশ মন্ত্রণালয়। মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে ইউএসএইড ও ওয়াইল্ড টিম যোগ দিয়ে টাইগার ক্যারাভান নামের বাঘ আকৃতির একটি বড় বাস নিয়ে দেশজুড়ে ঘুরে বেড়াচ্ছে। মঙ্গলবার এই বাস বগুড়ার কয়েকটি স্কুলের সামনে দাঁড়িয়ে বাসের ভিতরে সাজানো সুন্দরবন প্রদর্শন করে। বাসের গায়ে লেখা আছে দেশ ভ্রমণে বাঘ মামা। বাসটি এমনভাবে বানানো সামনের অংশ বাঘের মুখ আকৃতির। বাসের বাইরের অংশ বাঘের ডোরাকাটা দাগ অঙ্কিত। বাসের ভিতরে গাছগাছালি বাঘ হরিণ বানর কুমির পাখি ইত্যাদি বসিয়ে সুন্দরবনের রূপ দেয়া হয়েছে। শিক্ষার্থীরা ভ্রাম্যমাণ এই মিনি সুন্দরবন দর্শনের পর তাদের মধ্যে বাঘ ও প্রাণী রক্ষার চেতনা জাগছে। শিক্ষকগণ জীববৈচিত্র্যের বর্ণনা করছেন। প্রদর্শনের সময় বর্ণনা করা হয়, পৃথিবীতে বাঘের অস্তিত্ব কমে বর্তমানে মাত্র ৩ হাজার ২শ’তে ঠেকেছে। বাংলাদেশের সুন্দরবনে বাঘের সংখ্যা কমে বর্তমানে দাঁড়িয়েছে মাত্র ১০৬টি। বাংলাদেশের জাতীয় প্রাণী বাঘ সংরক্ষণ করা না গেলে প্রাণীটি নিকট ভবিষ্যতে বিলুপ্ত হয়ে গিয়ে পরিবেশের বিপর্যয় ডেকে আনবে। বাঘের এমন গাড়ি দেশের প্রতিটি স্থানে যাচ্ছে। স্কুল কলেজ বিশ্বদ্যিালয়গুলোতে গিয়ে আগামী প্রজন্মের মধ্যে সচেতনতা জাগাতে এই উদ্যোগ বড় ভূমিকা পালন করবে, এমনটি আশা করে কর্তৃপক্ষ। টাইগার ক্যারাভান নামের বাসটি প্রদর্শনের সময় জনসচেতনতামূলক নাটিকা প্রদর্শিত হয়। শিক্ষার্থীর সঙ্গে অভিভাবক ও বড়রাও বাসটির ভিতরে দেখে বাঘ রক্ষায় প্রেরণা পাচ্ছে।

প্রকাশিত : ১১ মে ২০১৬

১১/০৫/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



শীর্ষ সংবাদ:
চাহিদার চেয়ে কোরবানিযোগ্য পশুর সংখ্যা বেশি ॥ কোন সঙ্কট হবে না || বঙ্গবন্ধুর খুনীরা যে গর্তেই লুকিয়ে থাকুক ধরে এনে রায় কার্যকর করা হবে ॥ আনিসুল হক || উত্তরের বন্যার পানি নামছে, মধ্যাঞ্চলে নতুন এলাকা প্লাবিত || রায় যদি বিরাগ প্রসূত হয়ে থাকে তাহলে শপথ ভঙ্গ হবে || কমলাপুরে মানুষের ঢল, প্রত্যাশিত টিকেট না পেয়ে অনেকেই হতাশ || সেই মৃত্যু- রক্তস্রোতের ভয়ঙ্কর স্মৃতি আজও তাড়িয়ে বেড়ায় || বিএনপির ক্ষমতার রঙিন খোয়াব কর্পূরের মতো উবে গেছে ॥ কাদের || মেগা প্রকল্পে অর্থ ব্যয়ের ওপরই নির্ভর করছে চট্টগ্রামের উন্নয়ন || যমুনার বাঁধে আশ্রয় নিতেও এককালীন নজরানা, দিতে হয় মাসিক ভাড়া || আওয়ামী লীগে যোগ দেয়া ৪শ’ জামায়াতীর ওপর নজরদারি ||